ত্বক উজ্জ্বল রাখার পানীয়

শীতের সময়েও শরীর আর্দ্র রাখা প্রয়োজন।

লাইফস্টাইল ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 25 Nov 2022, 05:20 AM
Updated : 25 Nov 2022, 05:20 AM

শীতকালের সাধারণ সমস্যা হল ত্বকের শুষ্কতা ও মলিনভাব। এর প্রধান কারণ আর্দ্রতার অভাব।

তাপমাত্রা কম থাকায় অনেকেই পানি কম পান করেন। পানি শূন্যতার কারণে দেহে বিপাকে ব্যঘাত, নির্জীবভাব, মাথা ব্যথা, অনিয়মিত হজম ইত্যাদি জটিলতা দেখা দেয়।

টাইমসঅবইন্ডিয়া ডটকম’য়ে প্রকাশিত প্রতিবেদনে ভারতের ‘হেল্থ হ্যাবিটেট’য়ের প্রতিষ্ঠাতা ও পুষ্টি পরামর্শক প্রাচি শাহ বলেন, “শীতকালে ত্বক উজ্জ্বল রাখতে পানি ছাড়াও বিভিন্ন সুস্বাদু তরল গ্রহণে উপকার পাওয়া যায়।”

সুপ

গরম সবজির সুপ শীতকালে খেতে আরামই লাগে। এতে দেহ পর্যাপ্ত পানি পায় এবং অন্ত্র সুস্থ থাকে। খাবারের আগে এক বাটি সবজির সুপ খাওয়া উপকারী।

সবুজ জুস

কাঁচা ফল ও সবজির জুস বা শরবত পানির ঘাটতি পূরণের পাশাপাশি আঁশের চাহিদা পূরণ করে। সবজি ও ফলের সঠিক সমন্বয় দেহের পুষ্টির চাহিদা পূরণ করার পাশাপাশি ভিটামিন ও খনিজের চাহিদা পূরণ করতেও সহায়তা করে।

লেমনেইড

ঘরেই তৈরি করা যায় এমন সহজ পানীয় হল লেমনেইড বা লেবুর শরবত। এক গ্লাস লেমনেইড হজম ক্রিয়া উন্নত করে, ত্বকের স্বাস্থ্য ভালো রাখে, ভিটামিন সি’র চাহিদা মেটায় এবং দেহের আর্দ্রতা রক্ষা করতে সহায়তা করে।

ভেষজ চা

গরম ভেষজ চা সতেজ অনুভূতি দেয়। ভিন্ন ভিন্ন ভেষজের চা যেমন- গ্রিন টি, ক্যামোমাইল চা ইত্যাদি রাতে পান করা আরামের। পাশাপাশি নানান উপকারও করে।

পুদিনা চা: এটা কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা কমায় ও মাথা ব্যথা দূর করে।

জবা: যকৃতের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে ও রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে এতা সহায়তা করে।

আদা: হজমের সমস্যা ও সংযোগস্থলের ব্যথা কমাতে আদার চা উপকারী।

তবে, এগুলো অতিরিক্ত পান করা দেহের জন্য ক্ষতিকর। দিনে দুবারের বেশি পান করা ঠিক নয়।

হলুদ মিশ্রিত দুধ

দুধ প্রোটিন ও ক্যালসিয়ামেরর ভালো উৎস। এটা দেহের আর্দ্রতা রক্ষা করে ও স্বাস্থ্য ভালো রাখে।

রাতে ঘুমানোর আগে গরম দুধ খাওয়া ঘুম ভালো করতে সাহায্য করে। দুধের সঙ্গে এক চিমটি হলুদ মিশিয়ে পান করা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। কারণ এটা ব্যাক্টেরিয়া ও প্রদাহরোধী হিসেবে কাজ করে।

এসব পানীয় আর্দ্রতার ঘাটতি পূরণ করতে সহায়তা করলেও পানির বিকল্প নয়। এছাড়াও, সময় ধরে নিয়ম করে পানি পান দেহের আর্দ্রতার ঘাটতি পূরণ করে।

শীতকালে যতটা সম্ভব কম ক্যাফেইন গ্রহণ করা উচিত, এটা পানি শূন্যতার অন্যতম কার্ণ।

আরও পড়ুন

Also Read: শরীর যেভাবে জানান দেয় পানির অভাব

Also Read: যে সময়ে পানি পান  জরুরি

Also Read: মানসিক চাপে পানি পান না করার পরিণতি

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক