প্রবাসে এনআইডি সেবা: ইতালির পর যুক্তরাজ্য ও সৌদিতে ‍শুরু হচ্ছে কার্যক্রম

জুলাই মাসে সংযুক্ত আরব আমিরাতে ভোটার নিবন্ধনের মাধ্যমে প্রথমবারের মত প্রবাসী বাংলাদেশি নাগরিকদের হাতে স্মার্ট কার্ড দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছিল।

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 3 Nov 2023, 02:59 PM
Updated : 3 Nov 2023, 02:59 PM

সংসদ নির্বাচনের আগে আরও তিনটি দেশে প্রবাসী বাংলাদেশিদের হাতে এনআইডি সেবা পৌঁছে দিতে উদ্যোগী হয়েছে নির্বাচন কমিশন।

ইতোমধ্যে ইতালির দুটো শহরে কার্যক্রম শুরু হয়েছে। শিগগিরই যুক্তরাজ্য, সৌদি আরবের দুটি শহরে নিবন্ধন তথ্য সংগ্রহের কাজ শুরু হবে।

জুলাই মাসে সংযুক্ত আরব আমিরাতে ভোটার নিবন্ধনের মাধ্যমে প্রথমবারের মত প্রবাসী বাংলাদেশি নাগরিকদের হাতে স্মার্ট কার্ড দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছিল।

ইতালি থেকে ইসির অতিরিক্ত সচিব অশোক কুমার দেবনাথ শুক্রবার জানান, ইসির কারিগরি ও প্রশাসনিক প্রতিনিধি দল এবার যুক্তরাজ্য, সৌদি আরব ও ইতালিতে দূতাবাস-কনস্যুলেট অফিসের মাধ্যমে প্রবাসীদের ভোটার নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু করছে।

“আমরা ইতালি ও মিলানে ট্রেইনিং, সেট আপ ইকুইপমেন্ট, ডেটা কানেকটিভিটির ব্যবস্থা করে নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু করেছি; দুই জায়গায় ২৫ জন করে স্মার্ট কার্ড পেয়েছেন। এখন সহজেই এনআইডি সেবার কাজ চলবে। সৌদি আরবেও প্রকল্প পরিচালকের নেতৃত্বে টিম রয়েছে এখন; কার্যক্রম শুরুর প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ চলছে।”

আগামী সপ্তাহে এনআইডি উইংয়ের মহাপরিচালকের নেতৃত্বে একটি টিম যুক্তরাজ্যের লন্ডন ও ম্যনচেস্টারে যাচ্ছেন। সেখানেও এনআইডি সেবা কার্যক্রম শুরু হবে নভেম্বরে।

ইসি কর্মকর্তারা জানান, এ তিন দেশে প্রতিটি কারিগরি টিমে থাকছে ১১ জন করে লোকবল। প্রশাসিনিক টিমে ইসি সচিবালয় ও এনআইডি উইংয়ের চার জন করে কর্মকর্তা।

কারিগরি টিম সংশ্লিষ্ট দেশগুলোর দূতাবাসের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রশিক্ষণ দিয়ে আসবে; দূতাবাসের কর্মকর্তারা প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণের পর আবেদন গ্রহণ করে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির উপজেলা নির্বাচন কার্যালয়ে তথ্য পাঠাবেন। তথ্যের সঠিকতা যাচাই শেষে সংশ্লিষ্ট দেশেই দেওয়া হবে এনআইডি।

এখন থেকে ১৫ বছর আগে ছবিসহ ভোটার তালিকা প্রণয়ন শুরুর সময়ই প্রবাসী বাংলাদেশিদের ভোটার করা ও এনআইডি দেওয়ার দাবি উঠেছিল। দীর্ঘদিন ধরে প্রবাসী বাংলাদেশিদের ভোটার নিবন্ধন নিয়ে নানা ধরনের জটিলতা পেরিয়ে কে এম নূরুল হুদা কমিশন ২০১৯ সালের নভেম্বরে মালয়েশিয়ায় অনলাইন নিবন্ধনের কার্যক্রম শুরু করে। কিন্তু এরপর মহামারীতে সেই উদ্যোগ থমকে যায়। কাজী হাবিবুল আউয়াল নেতৃত্বাধীন বর্তমান কমিশন আবার সেই কাজে গতি আনার উদ্যোগ নেয়।

মাহামারীর সময় প্রবাসী বাংলাদেশিদের এনআইডি সেবা দেওয়ার জন্যে অনলাইনে আবেদন নেওয়া শুরু করে ইসি। ছয়টি দেশে তা শুরু হলেও সাড়ে তিন বছর পর ২০২৩ সালের জুলাইয়ে বর্তমান কমিশন সংযুক্ত আরব আমিরাতে স্মার্ট কার্ড তুলে দিতে সক্ষম হয়।

প্রাথমিকভাবে যুক্তরাজ্য, সৌদি আরব, কুয়েত, ওমান, মালয়েশিয়া, কাতার, বাহরাইন, জর্ডান, ইতালি, সিঙ্গাপুর, লেবানন, লিবিয়া, অস্ট্রেলিয়া, মালদ্বীপ ও কানাডায় পর্যায়ক্রমে নিবন্ধন কাজ শুরুর পরিকল্পনা রয়েছে ইসির।

এনআইডি পেতে মালয়েশিয়া, সৌদি আরব, সিঙ্গাপুর, সংযুক্ত আরব আমিরাত, যুক্তরাজ্য, মালদ্বীপে থাকা পাঁচ হাজারেও বেশি প্রবাসী নাগরিক ইতোমধ্যে আবেদন করেছেন।

সবশেষ ৩০ অক্টোবর সংসদ কাজে নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত আইনমন্ত্রী আনিসুল হক সংসদে প্রশ্নোত্তরে জানান, এ পর্যন্ত এক হাজার ৬২৫ জন প্রবাসী বাংলাদেশিকে স্মার্ট জাতীয় পরিচয়পত্র দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া ৬ হাজার ৮৮ জন প্রবাসী ভোটারের বায়োমেট্রিক নেওয়া হয়েছে। তদন্ত পরবর্তী যোগ্য এক হাজার ৭৮২ জনের জাতীয় পরিচয়পত্র প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

পুরনো খবর:

Also Read: প্রবাসে এনআইডি সেবা এবার যুক্তরাজ্য, সৌদি আরবে

Also Read: স্মার্টকার্ড পেলেন আমিরাত প্রবাসী বাংলাদেশিরা

Also Read: মিলানে প্রবাসীদের স্মার্ট কার্ড বিতরণ শুরু

Also Read: ইতালিতে প্রবাসীদের জন্য চালু হচ্ছে জাতীয় পরিচয়পত্র সেবা

Also Read: সবার আগে এনআইডি পাচ্ছেন আমিরাত প্রবাসীরা, বিতরণ শুরু সোমবার

Also Read: প্রবাসে এনআইডি সেবা: আমিরাতে শুরু হচ্ছে বায়োমেট্রিক তথ্য সংগ্রহ

Also Read: প্রবাসে বাংলাদেশি কর্মীর সংখ্যা দেড় কোটি ছুঁই ছুঁই

Also Read: পোস্টাল ব্যালটে কারা কীভাবে ভোট দেবেন