নিজেকে ‘পাঞ্চিং ব্যাগ’ মনে হচ্ছে রাশমিকার

অনলাইনে লাগাতার ট্রলের স্বীকার হয়ে বিরক্ত ভারতের ‘জাতীয় ক্রাশ’।

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 10 Nov 2022, 06:26 AM
Updated : 10 Nov 2022, 06:26 AM

সোশাল মিডিয়ায় ‘ট্রলড’ হয়ে বিরক্তির ‘চরম’ সীমায় পৌঁছে ভারতের ‘জাতীয় ক্রাশ’ রাশমিকা মানদানা জানালেন, নিজেকে তার ‘পাঞ্চিং ব্যাগ’ মনে হচ্ছে।

‘পুষ্পা: দ্য রাইজ’ সিনেমায় রাশমিকার নাচের আবেদন আলোড়ন তুলেছিল কোটি ভক্তের হৃদয়ে। বলিউডে পা রাখার আগেই এই কন্নড় অভিনেত্রীর নাম ফিরেছিল সিনেমাপ্রেমীদের মুখে মুখে।

সেই রাশমিকার ভাষ্য, সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রায়ই তাকে ‘ট্রলের’ শিকার হতে হয়।

টাইমস নাও জানিয়েছে. এই অভিনেত্রী মঙ্গলবার ইনস্টাগ্রামে একটি দীর্ঘ নোটে আক্ষেপ ও হতাশা প্রকাশ করেছেন। নিজের বর্তমান অবস্থাকে তিনি ‘হৃদয়বিদারক এবং হতাশাজনক’ হিসেবে বর্ণনা করেছেন। 

রাশমিকা বলেছেন, মানুষের নেতিবাচক মন্তব্য একসময় তিনি উপেক্ষা করতে চেয়েছিলেন, কিন্তু সেটি ঠিক হয়নি।

“কয়েক বছর, কয়েক মাস এবং কয়েক সপ্তাহে কিছু বিষয় আমাকে বিপর্যস্ত করে তুলেছে। সেসবের এখনই সমাধান হওয়া উচিত বলে মনে করছি। আরও আগেই আমার সমাধান খোঁজা উচিত ছিল। কিন্তু আমি সেটা বয়ে নিয়ে চলেছি। কর্মজীবন শুরু করার পর থেকে এখন পর্যন্ত লাগাতার ট্রল ও মানুষের ঘৃণার শিকার হতে হয়েছে আমাকে। আজকাল নিজেকে পাঞ্চিং ব্যাগ মনে হচ্ছে আমার।“

রাশমিকা বলেন, “যে জীবন বেছে নিয়েছি তার একটি মূল্য রয়েছে। এতটুকু বুঝি যে আমি প্রত্যেকের পছন্দের চায়ের কাপ নই। এমন কোনো কথাও নেই যে সবার আমাকে পছন্দ করতে হবে। কিন্তু তার মানে এই নয় যে আপনি আমার বিরুদ্ধে বিদ্বেষ ছড়িয়ে দেবেন।

“আমার চোখে পড়েছে, আমার এমন কোন বিষয় নিয়ে উপহাস করা হচ্ছে, যা আমি বলিনি। আমার সাক্ষাত্কারগুলোকেও ভুল ব্যাখ্যা করে আমার বিরূদ্ধে ব্যবহার করা হচ্ছে। সোশাল মিডিয়ায় আমার বিরুদ্ধে গুজব রটিয়ে দিচ্ছে। যা আমার ক্যারিয়ার এবং ব্যক্তিজীবনের জন্য খুব ক্ষতিকর হতে পারে।”

গীতা গোবিন্দমের এই অভিনেত্রীর ভাষ্য, তিনি গঠনমূলক সমালোচনাকে স্বাগত জানালেও মিথ্যা এবং গুজবকে মেনে নিতে আর রাজি নন। মানুষের এমন ‘নেতিবাচক’ মানসিকার কারণে নিজেকে আড়ালে রাখার বা বদলে ফেলারও পক্ষপাতী নন। 

তিনি এও বলেছেন, ভক্ত অনুরাগীদের কাছ থেকে তার ভালোবাসা জোটে না, না নয়। ভক্তদের ভালোবাসা ও সমর্থনই তার এগিয়ে চলার শক্তি।

“সবাই সদয় হন, আমরা সবাই আমাদের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করছি,” লিখে পোস্ট শেষ করেছেন রাশমিকা।

বিনোদন জগতে রাশমিকার শুরু বিজ্ঞাপনের মডেল হয়ে। সেখান থেকে ২০১৬ সালে চলচ্চিত্রে।

২০১৮ সালে মুক্তি পায় রাশমিকার তেলেগু সিনেমা ‘গীতা গোবিন্দম’। এতে বিজয় দেবরাকোন্ডার বিপরীতে রাশমিকাকে পছন্দ করেছেন অনেক দর্শক।

এরপর আসে বিজয়-রাশমিকা জুটির দ্বিতীয় ছবি ‘ডিয়ার কমরেড’। সেই সিনেমার পর দুজনের প্রেমের গুঞ্জন জোরাল হয়।সম্প্রতি তারা মালদ্বীপে একসঙ্গে ঘুরে এসেছিলেন বলেও খবর ছড়িয়েছে।

তবে রাশমিকা আলোচনায় আসেন গত বছর মুক্তি পাওয়া ‘পুষ্পা দ্যা রাইজ’ দিয়ে। এরপর বলিউডে পা রাখেন তিনি।

২৬ বছর বয়সী এই অভিনেত্রীর প্রথম হিন্দি সিনেমা গুডবাই মুক্তি পেয়েছে কিছুদিন আগে। যেখানে তিনি কাজ করেছেন মেগাস্টার অমিতাভ বচ্চনের সঙ্গে।

শিগগিরি রণবীর কাপুরের বিপরীতে ‘এনিমেল’-এ দেখা যাবে তাকে। সেই সাথে পুষ্পার সিক্যুয়েলে শ্রীবল্লীর ভূমিকায় আবারও আসছেন রাশমিকা।

পুরনো খবর

Also Read: রাশমিকা লিখলেন ‘আমি তোমায় ভালোবাসি’

Also Read: ছুটিতে সৈকতে রাশমিকা, সঙ্গে বিজয়?

Also Read: যে কারণে রাশমিকা ভারতের ‘জাতীয় ক্রাশ’

Also Read: এ বছরই বিয়ে করছেন রাশমিকা ও বিজয়?

Also Read: ‘গোল্ডেন গার্ল’ রাশমিকা

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক