ভোটের পর হালনাগাদ ভোটার তালিকার খসড়া

বর্তমানে দেশে প্রায় ১১ কোটি ৯৭ লাখ ভোটার রয়েছে, এ তালিকায় নতুন ভোটার যুক্ত হবে ২ মার্চ।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 30 Dec 2023, 05:01 PM
Updated : 30 Dec 2023, 05:01 PM

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর ভোটার তালিকা হালনাগাদের খসড়া তালিকা আগামী ২১ জানুয়ারি প্রকাশ করবে নির্বাচন কমিশন।

শনিবার এ সংক্রান্ত নির্দেশনা মাঠ কর্মকর্তাদের পাঠিয়েছেন সংস্থাটির নির্বাচন সহায়তা শাখার সিনিয়র সহকারী সচিব নাসির উদ্দিন চৌধুরী।

তবে ৭ জানুয়ারির নির্বাচনের চূড়ান্ত ভোটার তালিকায় যাদেরকে অন্তর্ভূক্ত করা হয়েছে, তাদের নাম খসড়া ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হবে না বলে নির্দেশনায় বলা হয়েছে।

ভোটার তালিকা হালনাগাদের অংশ হিসেবে ২০২২ সালে ১৫-১৭ বছর বয়সী এবং ভোটারযোগ্য বাদ পড়া নাগরিকের তথ্য সংগ্রহ করে নির্বাচন কমিশন।

এর মধ্যে ২০২৩ সালে নতুন যারা ভোটার তালিকাভুক্ত হচ্ছে, তারা দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে ভোট দিতে পারবেন। বাকিরা ২০২৪ ও ২০২৫ সালে ১৮ বছর বা তার বেশি বয়সী হওয়ার পর স্বয়ংক্রিয়ভাবে ভোটার তালিকায় যুক্ত হবে।

২০২৩ সালের ‌১৫ জানুয়ারিতে সবশেষ ভোটার তালিকা হালনাগাদের খসড়া প্রকাশের সময় এ তথ্য জানানো হয়েছিল।

প্রতিবছর ২ জানুয়ারি খসড়া প্রকাশ করা হলেও সংসদ নির্বাচনের কারণে ২০১৯ সালেও কিছুটা পিছিয়ে ১৫ জানুয়ারি খসড়া প্রকাশ করা হয়েছিল।

আইন অনুযায়ী প্রতি বছর ২ জানুয়ারি থেকে ২ মার্চের মধ্যে ভোটার তালিকা হালনাগাদ করার বিধান রয়েছে। বর্তমানে দেশে ভোটার সংখ্যা ১১ কোটি ৯৬ লাখ ৯১ হাজারেরও বেশি।

পরবর্তী হালনাদাগের বিষয়ে শনিবার পাঠনো নির্দেশনায় বলা হয়েছে, “ভোটার তালিকা হালনাগাদ-২০২২ এ বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোটার নিবন্ধনের জন্য যাদের তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে এবং পরবর্তীতে অফিসে এসে যারা ভোটার তালিকাভুক্তির জন্য নিবন্ধন সম্পন্ন করেছেন, তাদের মধ্যে ২০০৬ সালের ১ জানুয়ারি বা তার পূর্বে যাদের জন্ম তাদেরকে চূড়ান্ত ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্তির জন্য ২১ জানুয়ারি খসড়া ভোটার তালিকা প্রকাশের বিষয়ে নির্বাচন কমিশন সিদ্ধান্ত নিয়েছে।”

ইসিরি সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, খসড়া তালিকা প্রণয়ন করে তা নিবন্ধন কর্মকর্তার কাছে পাঠাতে হবে ১৫ জানুয়ারি। হালনাগাদ করা খসড়া তালিকা প্রকাশ করা হবে ২১ জানুয়ারি, দাবি-আপত্তি জানানোর শেষ সময় ৫ ফেব্রুয়ারি, দাবি-আপত্তি নিষ্পত্তির শেষ সময় ১১ ফেব্রুয়ারি, দাবি-আপত্তি নিষ্পত্তির সিদ্ধান্ত তালিকায় সন্নিবেশ করার শেষ সময় ১৮ ফেব্রুয়ারি। চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হবে ২ মার্চ।

Also Read: এবার হালনাগাদে নতুন ভোটার প্রায় ৮০ লাখ

Also Read: এবার হালনাগাদে প্রায় ১ কোটি নাগরিকের তথ্য সংগ্রহ