নিজেকে চিমটি কেটেছিলেন ম্যাডিসন, ‘সত্যি তো’!

তিন বছর বাইরে থাকলেও সবসময়ই জাতীয় দলে ফেরার আশায় ছিলেন ইংলিশ মিডফিল্ডার।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 17 Nov 2022, 12:05 PM
Updated : 17 Nov 2022, 12:05 PM

প্রথম বিশ্বকাপ যে কোনো খেলোয়াড়ের মনে দোলা দেয় এক রোমাঞ্চকর অনুভূতির। জেমস ম্যাডিসনের সেই স্বপ্ন পূরণ হয়েছে নাটকীয়ভাবে, তিন বছর পর ইংল্যান্ড দলে ডাক পেয়ে। পুরো বিষয়টি এখনও যেন বিশ্বাসই হচ্ছে না এই মিডফিল্ডারের। বললেন, প্রতিটি মুহূর্তই তার কাছে পরাবাস্তব ঠেকছে।

আন্তর্জাতিক ফুটবলে এখন পর্যন্ত একটি ম্যাচই খেলেছেন ম্যাডিসন। সেটিও সেই ২০২০ ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাইয়ে; মন্টেনেগ্রোর বিপক্ষে ৩৫ মিনিট। এরপর মাঝে আর ডাক পাননি গ্যারেথ সাউথগেটের দলে।

তাই ম্যাডিসনের বিশ্বকাপের দলে জায়গা পাওয়ার সম্ভাবনা ছিল অনেক কম। তবে চলতি মৌসুমে লেস্টার সিটির হয়ে দারুণ খেলে নজরে আসেন তিনি। সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ১৪ ম্যাচে ৭ গোল করার পাশাপাশি সতীর্থদের দিয়ে করান ৪টি।

ক্লাবের এই ফর্ম তাকে জায়গা করে দেয় ইংল্যান্ডের বিশ্বকাপের চূড়ান্ত স্কোয়াডে। বুধবার এক সংবাদ সম্মেলনে বিশ্ব সেরার মঞ্চে খেলার প্রসঙ্গ উঠতে ম্যাডিসন বললেন, সবকিছু এখনও ঘোরের মতো লাগছে তার কাছে।

“প্রতিটি মুহূর্তই আমার কাছে অবিশ্বাস্য ঠেকছে…বিমানে ওঠা এবং তা থেকে নামা, (কাতারে) স্থানীয়দের কাছ থেকে আমরা যে অভ্যর্থনা পেয়েছি, সবকিছুই কিছুটা পরাবাস্তব লাগছে। এটা আমার প্রথম বড় টুর্নামেন্ট, তাই আমি সব কিছু উপভোগ করার চেষ্টা করছি।”

ইংল্যান্ড দল ঘোষণার সময় ম্যাডিসন ছিলেন লেস্টার কোচ ব্রেন্ডন রজার্সের অফিসে। সেই সময়ে তার মনের মধ্যে কী চলছিল, তাও তুলে ধরেন ২৫ বছর বয়সী এই ফুটবলার।

“তিনি (ব্রেন্ডন রজার্স) আমাকে জিজ্ঞাসা করেছিলেন যে, আমি কিছু শুনেছি কিনা এবং ওই সময়ে আমি কিছু জানতাম না। তিনি কেবল ভালো একজন কোচের মতো আমার কাঁধে হাত রেখে বলছিলেন, যদি জাতীয় দলে ডাক না পাই তাহলে যেন হতাশ না হলে আমি অনুপ্রাণিত থাকি এবং (বিশ্বকাপ) বিরতি উপভোগ করি।”

“কিন্তু আমি যখন চেঞ্জ রুমে ফিরে এলাম, তখন দেখলাম আমার ফোনে গ্যারেথ সাউথগেটের কাছ থেকে একটা মিসড কল এসেছে। আমার হার্ট বিট বেড়ে গিয়েছিল, আমি তাকে ফোন করলাম এবং তিনি আমাকে সুখবরটা দিলেন।”

লম্বা সময় ইংল্যান্ড দলের বাইরে থাকলেও সবসময়ই আবার জাতীয় দলে ফেরার আশায় ছিলেন ম্যাডিসন।

“এমন একটা সময় ছিল যখন আমি ভালো খেলছিলাম, কিন্তু তারপরও নির্বাচিত হইনি। তবে মূল বিষয়টা আসলে সঠিক মানসিকতা ধরে রাখা, চেষ্টা করে যাওয়া এবং সাফল্যের জন্য ক্ষুধার্ত থাকার ব্যাপার।”

“আমরা আগেও দেখেছি, গ্যারেথ (সাউথগেট) কোনো খেলোয়াড় ফর্মে থাকলে তাকে দলে ফিরিয়েছেন এবং ভাগ্যক্রমে এই টুর্নামেন্টে ওই খেলোয়াড়রাটা আমি।”

বিশ্বকাপে আগামী ২১ নভেম্বর ইরানের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচ খেলবে ইংল্যান্ড।

‘বি’ গ্রুপে তাদের অন্য দুই প্রতিপক্ষ ওয়েলস ও যুক্তরাষ্ট্র।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক