‘এমবাপের সামর্থ্যের পুরোটা এখনও দেখা যায়নি’

পিএসজির ফুটবল উপদেষ্টা লুইস কাম্পোসের বিশ্বাস, খেলোয়াড় হিসেবে আরও উন্নতি করবেন ফরাসি ফরোয়ার্ড।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 19 Nov 2022, 10:32 AM
Updated : 19 Nov 2022, 10:32 AM

ফ্রান্স জাতীয় দল ও ক্লাব পিএসজি, দুই জায়গাতেই গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়দের একজন কিলিয়ান এমবাপে। ২৩ বছর বয়সেই তার ব্যক্তিগত ও দলগত অর্জনের খাতা বেশ সমৃদ্ধ। হয়ে উঠেছেন সময়ের সেরা ফুটবলারদের একজন। প্যারিসের ক্লাবটির ফুটবল উপদেষ্টা লুইস কাম্পোস অবশ্য মনে করেন, এমবাপের সামর্থ্যের পুরোটা এখনও দেখা যায়নি। তার মতে, খেলোয়াড় হিসেবে আরও উন্নতির জায়গা আছে বিশ্বকাপ জয়ী এই খেলোয়াড়ের। 

২০১৮ বিশ্বকাপে ফ্রান্স দলে এমবাপের অবস্থান এখনকার মতো এত গুরুত্বপূর্ণ ছিল না। তবে ওই আসরেই নিজের জাত চেনান তিনি। ফাইনালে ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ৪-২ ব্যবধানে জয়ের ম্যাচেও একটি গোল করেন সাবেক মোনাকো ফুটবলার। 

পেলের (১৯৫৮ বিশ্বকাপ) পর দ্বিতীয় কনিষ্ঠতম খেলোয়াড় হিসেবে বিশ্বকাপের ফাইনালে জালের দেখা পান এমবাপে। কাতারে দিদিয়ে দেশমের দলের শিরোপা ধরে রাখার অভিযানে প্রধান সেনানীদের একজন হিসেবে ধরা হচ্ছে রাশিয়া বিশ্বকাপে মোট ৪ গোল করা এই তারকাকে।

সাম্প্রতিক ফর্মও খুব ভালো এমবাপের। চলতি মৌসুমে পিএসজির হয়ে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ২০ ম্যাচে ১৯টি গোল করেছেন তিনি। ইউরোপের শীর্ষ পাঁচ লিগের খেলোয়াড়দের মধ্যে তার চেয়ে বেশি গোল করেছেন কেবল আর্লিং হলান্ড (২৩ গোল)। 

সম্প্রতি পর্তুগালের পোর্তোতে একটি অনুষ্ঠানে এমবাপের প্রসঙ্গে ক্যাম্পোস বলেন, বয়সের তুলনায় অনেক বেশি পরিণত এমবাপের উন্নতির আরও সুযোগ আছে। 

“এমবাপের সামর্থ্যের মাত্র ৪০ বা ৫০ শতাংশ এখন পর্যন্ত দেখা গেছে এবং প্রতিদিনই আমি তা বলি তাকে। সে এখনও অনেক কিছু দিতে পারে, কারণ সে এমন একজন খেলোয়াড় যার বেড়ে ওঠা এখনও শেষ হয়নি।” 

“(খেলোয়াড় হিসেবে) পরিণত হওয়ার একটা ধারা আছে, এজন্যই বলা হয় যে সবাই একই হারে বিকশিত হয় না। ১৬ বছর বয়সে এমবাপে সব বিভাগেই উন্নতি করেছিল। শারীরিকভাবে সে খুব শক্তিশালী ছিল এবং ফুটবল সম্পর্কে তার জ্ঞান ছিল ২৬ বছর বয়সী একজন খেলোয়াড়ের সমান।” 

এমবাপে এখন ব্যস্ত ফ্রান্স দলের বিশ্বকাপ প্রস্তুতিতে। বিশ্ব সেরার মুকুট ধরে রাখার অভিযানে ‘ডি’ গ্রুপে খেলবে দেশমের দল। প্রথম ম্যাচে আগামী ২৩ নভেম্বর তাদের প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া। 

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক