পরিবহন ধর্মঘটে ভোগান্তিতে সুনামগঞ্জের যাত্রীরা

শুক্রবার সকাল থেকেই এ জেলায় দূরপাল্লার বাস, মিনিবাস, মাইক্রোবাস, ট্রাকসহ যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি
Published : 18 Nov 2022, 11:29 AM
Updated : 18 Nov 2022, 11:29 AM

পরিবহন মালিক সমিতির ডাকা দুই দিনের অবরোধের কারণে সারাদেশের সঙ্গে সুনামগঞ্জের সরাসরি যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে। এতে চরম ভোগান্তির মধ্যে পড়েছেন যাত্রীরা। 

শুক্রবার সকাল থেকেই এ জেলায় দূরপাল্লার বাস, মিনিবাস, মাইক্রোবাস, ট্রাকসহ যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

পরিবহন মালিকরা মহাসড়কে সিএনজি অটোরিকশা বন্ধসহ কয়েকটি দাবিতে অবরোধ ডাকা হয়েছে বললেও সুনামগঞ্জ জেলা বিএনপির অভিযোগ শনিবার সিলেটে তাদের সমাবেশে বাধা দিতেই এই অবরোধের ডাক দেওয়া হয়েছে। 

শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টায় মল্লিকপুর বাসস্টেশনে গিয়ে দেখা যায় জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে যাত্রীরা সিলেট যাওয়ার জন্য বাস স্টেশনে এসেছেন। স্টেশনের সড়কে এলোমেলো ও ছড়িয়ে ছিটিয়ে রাখা হয়েছে বাস। টিকেট কাউন্টারগুলি বন্ধ। 

তাহিরপুর উপজেলার লাউড়েরগড় সীমান্ত গ্রাম থেকে ইসমাইল মিয়া (৫০) ৩০০ টাকা ভাড়ায় মোটরসাইকেলে সুনামগঞ্জ বাস স্টেশনে এসেছেন। এসে দেখেন সিলেটে কোনো বাস যাচ্ছে না। রাস্তাও ফাঁকা। 

ইসমাইল মিয়া বলেন, “আমি গরিব মানুষ। কাজ করে খাই। ৩০০ টাকায় মোটরসাইকেল ভাড়া করে সুনামগঞ্জ বাস স্টেশনে এসে দেখি কোনো যানবাহন চলছে না। এখন জরুরি কাজে যোগ দিতে আমার সিলেট যেতে হয়। যাওয়ার কোনো উপায় দেখছি না “ 

লাউড়েরগড় গ্রামের শ্রমিক আবু বকর সিদ্দিক (৩৫) সিলেটে এক ব্যবসায়ীর অধীনে কাজ করেন। ছুটি নিয়ে বাড়ি এসেছিলেন। ছুটি শেষে তিনিও মোটরসাইকেল ভাড়া করে সুনামগঞ্জ শহরে এসেছেন। 

তিনি বলেন, “আমি আজ স্টেশনে এসে দেখি আমার মতো অনেক মানুষ স্টেশনে জড়ো হয়েছেন। নারী, বৃদ্ধ ও শিশুসহ অনেকে দূর-দূরান্তে যেতে চান। কিন্তু কেউ যানবাহন পাচ্ছে না। দূর থেকে আসায় তাদের সময় ও অর্থ অপচয় হয়েছে।” 

সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার জগাইর গাঁও গ্রামের আব্দুল্লাহ (৫৫) বলেন, “আমার স্ত্রী ও সন্তানদের নিয়ে শশুরবাড়ির অনুষ্ঠানে যোগ দিতে এসেছি। এখন স্টেশনে এসে দেখি সব বাস এলোমেলো রাস্তার উপর ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে। সিলেটের উদ্দেশ্যে কোন বাস যাচ্ছে না এবং আসছেও না। এখন কিভাবে যাবো উপায় দেখছি না।” 

সুনামগঞ্জ পরিবহন মালিক সমিতির সভাপতি মোজাম্মেল হক বলেন, “সুনামগঞ্জ-সিলেট সড়কের লামাকাজি সেতুতে টোল আদায় বন্ধ, মহাসড়কে সিএনজি চলাচল বন্ধ এবং সুনামগঞ্জ বাসস্টেশন আধুনিকায়নের দাবিতে আমরা পূর্বনির্ধারিত পরিবহন ধর্মঘট পালন করছি। কোনো রাজনৈতিক সিদ্ধান্তে আমরা ধর্মঘট করছি না।” 

সুনামগঞ্জ জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নূরুল ইসলাম নূরুল অভিযোগ  করে বলেন, “আমাদের সিলেট মহাসমাবেশে নেতা-কর্মীদের যোগদানে বাধা দিতেই সরকার পরিবহন সংশ্লিষ্টদের মাধ্যমে এই ধর্মঘট ডেকেছে। এভাবে সরকারি অবরোধ দিয়ে সমাবেশে জনস্রোত আটকানো যাবে না।” 

তিনি বলেন, “সরকার এই কাজ করে বরং আরো নিন্দিত হচ্ছে।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক