ফের শতক সোহানের, তাইজুলের ৫ উইকেট

প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে প্রথম শতকের স্বাদ পেয়েছেন মাহিদুল ইসলাম।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 10 Nov 2023, 01:49 PM
Updated : 10 Nov 2023, 01:49 PM

অফ স্পিনার নাঈম হাসানের বল বেরিয়ে এসে লং-অফ দিয়ে ছক্কায় ওড়ালেন নুরুল হাসান সোহান। ৯৯ থেকে পৌঁছে গেলেন কাঙ্ক্ষিত তিন অঙ্কের ঘরে। জাতীয় লিগে এই কিপার-ব্যাটসম্যানের ব্যাটে শতক এলো টানা দ্বিতীয় ম্যাচে। সঙ্গে সৌম্য সরকার ও আফিফ হোসেনের ফিফটিতে চট্টগ্রাম বিভাগকে চ্যালেঞ্জিং লক্ষ্য দেওয়ার পথে খুলনা বিভাগ। 

লিগের পঞ্চম রাউন্ডে দ্বিতীয় স্তরের এই ম্যাচে শুক্রবার দ্বিতীয় দিন শেষে দ্বিতীয় ইনিংসে খুলনার রান ৪ উইকেটে ২২১। ১৮৭ রানে এগিয়ে আছে তারা।

সোহান খেলছেন ১১০ বলে ১০৬ রানে। যেখানে ১৪টি চারের পাশে ছক্কা দুটি। ৭৮ বলে ৫৭ রানে অপরাজিত আছেন আফিফ।

রাজশাহীর শহীদ কামরুজ্জামান স্টেডিয়ামে ২৩ রানে ৩ উইকেট হারানোর পর খুলনার হাল ধরেন সৌম্য ও সোহান। আগ্রাসী ব্যাটিংয়ে ৩৭ বলে ১১ চার ও একটি ছক্কায় ৫৩ রান করেন ফেরেন সৌম্য। আফিফের সঙ্গে অবিচ্ছিন্ন ১২৫ রানের জুটির পথে সোহান প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে একাদশ শতকে পা রাখেন ১০১ বলে।

প্রথম দিন খুলনাকে ১৫৫ রানে গুটিয়ে দেওয়া চট্টগ্রাম দ্বিতীয় দিন শুরু করে ২ উইকেটে ৫১ রান নিয়ে। অল আউট হয় তারা ১৮৯ রানে। শামীম হোসেন সর্বোচ্চ ৬০ রান করেন ৫৪ বলে ৭ চার ও ২ ছক্কার সাহায্যে। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর: 

খুলনা ১ম ইনিংস: ১৫৫ 

চট্টগ্রাম ১ম ইনিংস: (আগের দিন ৫১/২) ৫৪.১ ওভারে ১৮৯ (শাহাদাত ২১, মুরাদ ১৬, মুমিনুল ১৯, ইয়াসির ৬, শামীম ৬০, শুক্কুর ০, নাঈম ১৮, ইয়াসিন ০, এনামুল ১*; আল আমিন ১৪-৩-৪৪-৩, হালিম ১৩-০-৪১-৩, জিয়া ৩-১-১২-০, সৌম্য ৯-২-২২-২, নাহিদুল ১০.১-১-৩৪-৩, টিপু ৫-১-১৭-০) 

খুলনা ২য় ইনিংস: ৪২ ওভারে ২২১/৪ (প্রান্তিক ১, অমিত ০, সৌম্য ৫৩, মিঠুন ০, সোহান ১০৬*, আফিফ ৫৭*; ইয়াসিন ৯-১-৪৯-১, নাঈম ১১-২-৫২-২, এনামুল ৮-১-৫২-১, হাসান ১১-৩-৫০-০, জয় ২-০-৮-০, মুমিনুল ১-০-৭-০)

তাইজুলের ৫ উইকেট 

দ্বিতীয় স্তরের আরেক ম্যাচে দ্বিতীয় দিনেও দাপট দেখিয়েছেন বোলাররা। পাঁচ উইকেট নিয়ে দিনের সবচেয়ে উজ্জ্বলতম নাম তাইজুল ইসলাম।

বগুড়ার শহীদ চান্দু স্টেডিয়ামে প্রথম দিন বরিশালকে ১৯৬ রানে আটকে দেওয়া রাজশাহী দ্বিতীয় দিন শুরু করে ২ উইকেটে ৭৭ রান নিয়ে। থমকে যায় তারা ১৯১ রানে।

বরিশালের হয়ে প্রথম দিন ৬৩ রানের ইনিংস খেলা মইন খান এবার হাত ঘুরিয়ে নেন ৪ উইকেট।

দিন শেষে দ্বিতীয় ইনিংসে বরিশালের রান ৬ উইকেটে ১২৫। ১৩০ রানে এগিয়ে আছে তারা।

৩৭ রানে ৫ উইকেট নিয়েছেন তাইজুল। আসরে দ্বিতীয়বার এবং প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ৩০তম বারের মতো এই স্বাদ পেলেন জাতীয় দলের বাঁহাতি বোলার। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর: 

বরিশাল ১ম ইনিংস: ১৯৬ 

রাজশাহী ১ম ইনিংস: (আগের দিন ৭৭/২) ৬৮.৩ ওভারে ১৯১ (সাব্বির হোসেন ৪৬, আশিক ৩৭, সানজামুল ৩৭, সাব্বির রহমান ৭, প্রিতম ৭, তাইজুল ১১, মেহেরব ১৯, শফিকুল ১, নাহিদ ০*; কামরুল ১০-১-৩৫-১, রুয়েল ১৩-২-৫১-১, তানভির ১৯-৭-৩১-২, সোহাগ ১০.৩-১-৩০-২, জাকারিয়া ১-০-১-০, মইন ১৫-৩-৩৮-৪)

বরিশাল ২য় ইনিংস: ৪২ ওভারে ১২৫/৬ (সায়েম ১০, ইফতেখার ৩২, জাকারিয়া ৩, নুরুজ্জামান ৪, ফজলে মাহমুদ ৪২*, হাফিজুর ০, মইন ১১, সোহাগ ১৫*; নাহিদ ১১-১-৩৬-০, শাফিকুল ৪-০-১১-০, সানজামুল ৮-১-২৬-১, তাইজুল ১৮-৩-৩৭-৫, সাব্বির হোসেন ১-০-৯-০)

আকবরের পর তানবিরের শতক 

প্রথম দিনে আকবর আলির শতকের পর দ্বিতীয় দিনে এই স্বাদ পেয়েছেন তানবির হায়দার। তাদের ব্যাটে ঢাকা মেট্রোর বিপক্ষে বড় সংগ্রহ গড়েছে রংপুর বিভাগ।

প্রথম স্তরের এই ম্যাচে ৩ উইকেটে ২৭৭ রানে দ্বিতীয় দিন শুরু করে ৪৩৫ রানে অল আউট হয় রংপুর। 

খুলনার শেখ আবু নাসের স্টেডিয়ামে প্রথম দিন ১৬২ রানে অপরাজিত আকবর করেন ১৭৯। তার ২৫৪ বলের ইনিংস গড়া ১৭ চার ও ৩ ছক্কায়। ৭৯ রানে দিন শুরু করে ৩২২ বলে ১৭ চার ও ২ ছক্কায় ১৬৯ রান করেন তানবির। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে এটি তার অষ্টম শতক।

এই দুজনের চতুর্থ উইকেট জুটিতে আসে ২৬০ রান।

দিন শেষে মেট্রোর সংগ্রহ ৩ উইকেটে ১০৫ রান। এখনও ৩৩০ রানে পিছিয়ে আছে তারা। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর: 

রংপুর বিভাগ: (আগের দিন ২৭৭/৩) ১৩০.১ ওভারে ৪৩৫ (আকবর ১৭৯, তানবির ১৬৯, আরিফুল ৪, মাহমুদুল ৯, রিশাদ ৫, নিহাদুজ্জামান ১৪, মুশফিক ৭, গালিব ১২*; আবু হায়দার ২৮-২-১০৪-৩, শহিদুল ২৬.১-৭-৪৮-৩, অনিক ২১-৩-৬২-২, আরিফ ৩৭-৫-১২৮-২- আমিনুল ১৩-০-৭০-০, নাঈম ৩-০-১২-০, আল-আমিন ২-০-৮-০) 

ঢাকা মেট্রো ১ম ইনিংস: ৩৩ ওভারে ১০৫/৩ (নাঈম ৪২, সাদমান ২২, জাহিদুজ্জামান ১৭, নাঈম ৬*, মার্শাল ৯*; গালিব ৫-০-২৮-০, মুশফিক ৯-৪-২৭-০, মাহমুদুল ১২-০-২৫-২, আবদুল্লাহ ৪-০-১৩-০, নিহাদুজ্জামান ২-০-৯-১, আরিফুল ১-০-১-০)

মাহিদুলের প্রথম শতক 

প্রথম দিন শেষে শতকের দুয়ারে ছিলেন মাহিদুল ইসলাম। দ্বিতীয় দিনে কাঙ্ক্ষিত মাইলফলকে পা রেখেছেন এই কিপার-ব্যাটসম্যান।

প্রথম স্তরের ম্যাচে সিলেট বিভাগের বিপক্ষে ৮ উইকেটে ২৪৪ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিন শুরু করে ২৬৬ রানে থামে ঢাকা বিভাগ।

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ স্টেডিয়ামে আগের দিন ৮৯ রানে অপরাজিত মাহিদুল করেন ২৭২ বলে ১০৬। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে তার প্রথম শতকের ইনিংসটি গড়া ৭ চার ও এক ছক্কায়।

জবাবে দিন শেষে সিলেটের সংগ্রহ ৭ উইকেটে ১৭২ রান। এখনও ৯৪ রানে পিছিয়ে আছে তারা। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর: 

ঢাকা বিভাগ ১ম ইনিংস: (আগের দিন ২৪৪/৮) ৯৭.১ ওভারে ২৬৬ (মাহিদুল ১০৬, রিপন ০, শাকিল ০*; খালেদ ১৮-৪-৪৪-২, রেজাউর ২৩-১-৮০-১, রাহাতুল ৯-১-৪০-০, নাঈম ৩৪.১-১২-৫০-৩, শাহানুর ১২-১-২৬-৩, তাওফিক ১-০-৮-০) 

সিলেট বিভাগ ১ম ইনিংস: ৭৯ ওভারে ১৭২/৭ (তাওফিক ৩৫, জাকির ৪০, অমিত ৪, শামসুর ৯, জাকের ২,তৌহিদুল ২৫, শাহানুর ০, রাহাতুল ৪০*, রেজাউর ৮*; রিপন ৪-০-২৩-০, শুভাগত ২৭-১০-৪১-৩, সুমন ৩-০-২২-০, শাকিল ৫-১-১২-০, নাজমুল ৩০-১১-৪২-৩, তাইবুর ৫-২-১০-১, সাইফ ৫-১-১৩-০)