মাস সেরার দৌড়ে বাংলাদেশের নাহিদা-ফারজানা

ছেলেদের সংক্ষিপ্ত তালিকায় আছেন অস্ট্রেলিয়ার ট্রাভিস হেড ও গ্লেন ম্যাক্সওয়েল এবং ভারতের মোহাম্মদ শামি।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 7 Dec 2023, 09:49 AM
Updated : 7 Dec 2023, 09:49 AM

পাকিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের ওয়ানডে সিরিজ জয়ে ব্যাটিংয়ে ফারজানা হক, বোলিংয়ে বড় অবদান রেখেছেন নাহিদা আক্তার। এর স্বীকৃতি হিসেবে দুজনই পেয়েছেন আইসিসির 'প্লেয়ার অব দা মান্থ' পুরস্কারের মনোনয়ন। নভেম্বরের সেরার লড়াইয়ে তাদের সঙ্গে আছেন পাকিস্তানের সাদিয়া ইকবাল।

গত মাসের সেরার লড়াইয়ে থাকা পুরুষ ও নারী ক্রিকেটারদের নাম বৃহস্পতিবার ঘোষণা করে বিশ্ব ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্তা সংস্থা-আইসিসি। নভেম্বরের সেরার দৌড়ে ছেলেদের সংক্ষিপ্ত তালিকায় আছেন অস্ট্রেলিয়ার ট্রাভিস হেড ও গ্লেন ম্যাক্সওয়েল এবং ভারতের মোহাম্মদ শামি।

নাহিদা আক্তার  

গত মাসে পাকিস্তানের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে সেরা ক্রিকেটারের পুরস্কার জিতেছেন নাহিদা। এর সৌজন্যে টানা দ্বিতীয়বার তিনি পেয়েছেন মাস সেরার মনোনয়ন। অক্টোবরে অবশ্য সেরা হতে পারেননি তিনি। ফের সুযোগ এসেছে বাঁহাতি স্পিনারের সামনে। 

প্রথম ওয়ানডেতে ৩০ রানে ৩ উইকেটের পর শেষটিতে ২৬ রান খরচায় ধরেন আরও তিনটি শিকার। মাঝে দ্বিতীয় ম্যাচে তার কাঁধে পড়ে সুপার ওভারে বোলিংয়ের দায়িত্ব। স্রেফ ৭ রান দিয়ে ২ উইকেট নেন নাহিদা। ম্যাচ জেতে বাংলাদেশ।

ফারজানা হক 

একই দলের বিপক্ষে তিন ম্যাচের সিরিজে ১১০ রান করেছেন ফারজানা। সিরিজ নির্ধারণী তৃতীয় ওয়ানডেতে ৬২ রানের ইনিংস খেলে তিনি জিতেছেন ম্যাচ সেরার পুরস্কার। দ্বিতীয় ম্যাচে তার ব্যাট থেকে আসে ৪০ রান। 

বাংলাদেশের সিরিজ জয়ে বড় অবদান রেখে প্রথমবার মাস সেরার পুরস্কারে মনোনয়ন পেয়েছেন ৩০ বছর বয়সী ব্যাটার। 

সাদিয়া ইকবাল 

সিরিজ জিততে না পারলেও পাকিস্তানের হয়ে দারুণ বোলিং করেন সাদিয়া ইকবাল। বাঁহাতি স্পিনে পাকিস্তানের জেতা প্রথম ম্যাচে স্রেফ ১৩ রানে তিনি নেন ৪ উইকেট। পরের ম্যাচে তার শিকার ২টি। 

তিন ম্যাচে স্রেফ ১২.৫০ গড় ও ওভারপ্রতি ২.৫৮ রান খরচায় নেওয়া ৬ উইকেটের সৌজন্যে তিনিও প্রথমবার পেয়েছেন মাস সেরার মনোনয়ন। 

ট্রাভিস হেড 

হাতের চোট সেরে বিশ্বকাপে যোগ দিয়ে অস্ট্রেলিয়ার শিরোপা জয়ের নায়ক ট্রাভিস হেড। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সেমি-ফাইনাল ও ভারতের বিপক্ষে ফাইনালে ম্যাচ সেরার পুরস্কার জেতেন বাঁহাতি ওপেনার। 

ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে বল হাতে দুটি গুরুত্বপূর্ণ উইকেটের পর ব্যাটিংয়ে স্রেফ ৪৮ বলে ৬২ রান করেন হেড। পরে শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে তার ব্যাট থেকে আসে ১২০ বলে ১৩৭ রানের ইনিংস। 

নক আউট দুই ম্যাচে এমন পারফরম্যান্সের সৌজন্যে গত জুনের পর আবার মাস সেরার মনোনয়ন পেলেন ২৯ বছর বয়সী ব্যাটসম্যান।

গ্লেন ম্যাক্সওয়েল  

বিশ্বকাপে আফগানিস্তানের বিপক্ষে অবিশ্বাস্য ডাবল সেঞ্চুরির পর ভারতের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ম্যাচে বিধ্বংসী সেঞ্চুরি করেছেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। নভেম্বরে এমন ঝড় তোলা ব্যাটিংয়ে 'প্লেয়ার অব দা মান্থ' পুরস্কারের মনোনয়ন পেয়েছেন তিনি। 

আফগানিস্তান ম্যাচে ২৯২ রানের লক্ষ্যে স্রেফ ৯১ রানে ৭ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। সেখান থেকে ৩১ বাউন্ডারিতে ২০১ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলে দলকে জেতান ম্যাক্সওয়েল।

টুর্নামেন্টে ফাইনালে রোহিত শার্মার উইকেটসহ আঁটসাঁট বোলিংয়ে অবদান রাখেন এই ব্যাটিং অলরাউন্ডার।

বিশ্বকাপের পর গুয়াহাটিতে ভারতের বিপক্ষে স্রেফ ৪৮ বলে ১০৪ রানের ঝড়ো সেঞ্চুরিতে টি-টোয়েন্টিতে দলকে জেতান ৩৫ বছর বয়সী তারকা। 

মোহাম্মদ শামি 

নভেম্বর মাসের শুরুতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে স্রেফ ১৮ রানে ৫ উইকেট নেন মোহাম্মদ শামি। পরে সেমি-ফাইনালে ৫৭ রানে ৭ উইকেট নিয়ে নিউ জিল্যান্ডকে গুঁড়িয়ে দেন ৩৩ বছর বয়সী পেসার। 

সব মিলিয়ে গত মাসে স্রেফ ১২.০৬ গড়ে ১৫ উইকেট নিয়ে মাস সেরার দৌড়ে নাম তুলেছেন শামি।