ব্রাজিলকে বিশ্ব জয়ের স্বপ্ন দেখাচ্ছে ভিনিসিউস-রাফিনিয়াদের উপস্থিতি

আলিসনের বিশ্বাস, বড় মঞ্চে পার্থক্য গড়ে দিতে পারবে তার তরুণ সতীর্থরা।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 11 Nov 2022, 02:18 PM
Updated : 11 Nov 2022, 02:18 PM

দলে আছেন সময়ের সেরা ফুটবলারদের একজন নেইমার। রক্ষণে চিয়াগো সিলভা, মার্কিনিয়োস; মাঝমাঠে কাসেমিরোর মতো অভিজ্ঞরাও আাছেন। এদের পাশাপাশি কাতার বিশ্বকাপে আলাদা নজর থাকবে ব্রাজিলের একঝাঁক তরুণের ওপর। তাদের নিয়ে ভীষণ আশাবাদী দলটির গোলরক্ষক আলিসন। তার বিশ্বাস, ভিনিসিউস-রাফিনিয়া-রদ্রিগোরা দেশকে ভাসাবেন বিশ্ব জয়ের আনন্দে।

রেকর্ড পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিলের জন্য গত কয়েকটি আসর কেটেছে চরম হতাশায়। দেশের মাটিতে ২০১৪ বিশ্বকাপের সেমি-ফাইনালে জার্মানির বিপক্ষে ভরাডুবির পর ২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপে কোয়ার্টার-ফাইনালে বেলজিয়ামের বিপক্ষে বিদায় নেয় তারা।

সাধারণত বিশ্বকাপে ব্যর্থতার পর কোচকে ছাঁটাই করে ব্রাজিল। তবে রাশিয়া আসরে দায়িত্বে থাকা তিতের ওপর ভরসা রাখে দেশটির ফুটবল কর্তৃপক্ষ। সেই থেকে কাতার বিশ্বকাপে চোখ রেখে দল গড়েছেন বর্ষীয়ান এই কোচ।

গত চার বছরে ব্রাজিল দলে এসেছে বেশ কিছু পরিবর্তন। সাফল্যও এসেছে। যার মধ্যে রয়েছে ২০১৯ সালের কোপা আমেরিকা জয় এবং বিশ্বকাপের বাছাইয়ে দক্ষিণ আমেরিকা অঞ্চলে শীর্ষে থেকে কাতারের টিকেট পাওয়া।

তিতের দলের এই সাফল্যে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখছেন তরুণরা। তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য রিয়াল মাদ্রিদের দুই ফরোয়ার্ড ভিনিসিউস ও রদ্রিগো, বার্সেলোনার রাফিনিয়া, নিউক্যাসল ইউনাইটেডের ব্রুনো গিমারেস ও ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের আন্তোনি।

নিজ নিজ ক্লাবের হয়েও দারুণভাবে নিজেদের মেলে ধরা এই খেলোয়াড়দের সঙ্গে নেইমার-কাসেমিরোদের অভিজ্ঞতার মিশেলে বিশ্বকাপে দুর্দান্ত কিছুরই আশা করছে ভক্তরা।

সম্প্রতি ফিফাকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে একইরকম প্রত্যাশা ব্যক্ত করলেন আলিসন। ৩০ বছর বয়সী এই গোলরক্ষক মনে করেন, বড় মঞ্চে পার্থক্য গড়ে দেওয়ার সামর্থ্য আছে এই তরুণদের।

“গত বিশ্বকাপের পর থেকে আমরা অনেক উন্নতি করেছি। নতুন প্রজন্মের খেলোয়াড়দের নিয়ে আমরা কিছু পরিবর্তন করেছি। আমাদের দলে অভিজ্ঞ ও তরুণ খেলোয়াড়দের ভালো মিশ্রণ রয়েছে। এই তরুণরা এখন আন্তর্জাতিক ফুটবলে তাদের ছাপ রাখছে এবং এরই মধ্যে বড় প্রতিযোগিতাগুলোয় তাদের দলের হয়ে বড় ভূমিকা পালন করছে।”

“আমি বিশ্বাস করি, এই চক্রে যেসব তরুণদের ডাকা হয়েছে, তারা আমাদের দলে সত্যিকারের ব্যবধান গড়ে দিতে পারে। কারণ তারা অসাধারণ খেলোয়াড়।”

সবশেষ ২০০২ সালে বিশ্বকাপ জেতা ব্রাজিল এবারের আসরে তাদের প্রথম ম্যাচ খেলবে সার্বিয়ার বিপক্ষে, আগামী ২৪ নভেম্বর।

‘জি’ গ্রুপে তাদের অন্য দুই সঙ্গী সুইজারল্যান্ড ও ক্যামেরুন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক