‘ওয়াজ মাহফিলে প্রকাশ্যে অনুদান দিয়ে’ শোকজের মুখে শমসের মবিন

‘প্রকৃত ঘটনা তুলে ধরে’ শোকজের জবাব দেবেন বলে জানান তৃণমূল বিএনপির চেয়ারপারসন।

সিলেট প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 4 Jan 2024, 11:22 AM
Updated : 4 Jan 2024, 11:22 AM

ওয়াজ মাহফিলে প্রকাশ্যে অনুদান দিয়ে নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটির কারণ দর্শানোর মুখে পড়েছেন তৃণমূল বিএনপির চেয়ারপারসন ও প্রার্থী শমসের মবিন চৌধুরী। 

বৃহস্পতিবার দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে গোলাপগঞ্জ-বিয়ানীবাজার নিয়ে গঠিত সিলেট-৬ আসনে অনুসন্ধান কমিটির চেয়ারম্যান আল আসাদ মো. মাহমুদুল ইসলাম স্বাক্ষরে নোটিস পাঠানো হয়েছে বলে শমসের মনিব নিজেই স্বীকার করেছেন।

নোটিসে বলা হয়েছে, “শমসের মবিন চৌধুরী নির্বাচনি এলাকা ২৫৪, সিলেট-৬ আসনে সোনালী আঁশ প্রতীকে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী হিসেবে মঙ্গলবার গোলাপগঞ্জ থানা বাসেশ্বর ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের শিতেশ্বর গ্রামে আয়োজিত একটি ওয়াজ মাহফিলে উপস্থিত থেকে প্রকাশ্যে চাঁদা বা অনুদান দিয়েছেন। এ বিষয়ে নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটির কাছে অভিযোগ এসেছে। যা নির্বাচনি আচরণবিধি আইনের সুস্পষ্ট লঙ্ঘন।” 

নোটিসে আরও বলা হয়, “এ অবস্থায় আপনার (শমসের মবিন চৌধুরী) বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশন থেকে ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য কেন সুপারিশ করা হবে না, এই মর্মে শুক্রবার বিকাল ৪টার মধ্যে লিখিত ব্যাখ্যার জন্য নির্দেশ দেওয়া হল।” 

কারণ দর্শানোর নোটিসের বিষয়ে তৃণমূল বিএনপির চেয়ারপারসন ও প্রার্থী শমসের মবিন চৌধুরী বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “আমি কাল প্রকৃত ঘটনা তুলে ধরে নির্বাচন কমিশনের দেওয়া চিঠির জবাব জমা দিব।”