কুমিল্লায় যুবদল নেতাকে ‘মারধর ও গালমন্দের’ ভিডিও ভাইরাল

দাউদকান্দি বাজারে বুধবার এ ঘটনা ঘটে; শনিবার মধ্যরাতের পর এর ভিডিও ফেইসবুকে ছড়িয়ে পড়ে।

কুমিল্লা প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 20 Nov 2022, 12:51 PM
Updated : 20 Nov 2022, 12:51 PM

কুমিল্লায় বিএনপির সাংগঠনিক বিভাগীয় সমাবেশের প্রচারের লিফলেট বিতরণকালে এক যুবদল নেতাকে মারধর ও অকথ্য ভাষায় গালমন্দ করার অভিযোগ উঠেছে। 

দাউদকান্দি বাজারে গত বুধবার (১৬ নভেম্বর) এ ঘটনা ঘটেছে বলে ওই যুবদল নেতার অভিযোগ। 

শনিবার মধ্যরাতের পর এই ঘটনার একটি ভিডিও ফেইসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে। 

আগামী ২৬ নভেম্বর কুমিল্লায় বিএনপির সাংগঠনিক বিভাগীয় সমাবেশের কর্মসূচি রয়েছে। ওই কর্মসূচির প্রচারের লিফলেট বিতরণ করছিলেন তিনি। 

ফেইসবুকে ছড়িয়ে পড়া ভিডিওতে দেখা যায়, দাউদকান্দি উপজেলা সদরের দাউদকান্দি বাজারে উপজেলা বিএনপির কার্যালয়ের সামনে সমাবেশের লিফলেট বিতরণ করছিলেন কুমিল্লা উত্তর জেলা যুবদলের সহ-সম্পাদক সেলিম খান। 

সেলিম খানের অভিযোগ, এ সময় তাকে একটি প্রভাবশালী রাজনৈতিক দলের কয়েকজন নেতাকর্মী ঘিরে ধরেন এবং তারা তাকে কানে ধরতে বলেন। ওই সময় কানে ধরার ঘটনা পাশে থাকা তাদেরই একজন রেকর্ড করতে করেন এবং এরপর সেই ভিডিও তারাই ফেইসবুকে ছড়িয়ে দেন। 

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমের হাতে আসা ভিডিওতে কয়েকজনকে কথা বলতে দেখা যায় ও শোনা যায়। তারা প্রকাশের অযোগ্য ভাষায় সেলিমকে গালাগাল দেন। 

ভিডিওতে একজনকে বলতে শোনা যায়, “এই কানে ধর.....পুত! নইলে তোরে মাইরালামু। ২৬ তারিখ গণসমাবেশ করবি? বিএনপি আছেনি রে দেশে? মাইরালামু .....পুত। ২৬ তারিখের পর খবর আছে তোর।” 

এ সময় ওই যুবদল নেতা কানে ধরলে পাশে থাকা কয়েকজন তাকে চড়-থাপ্পড় মারতে থাকেন। 

রোববার এ বিষয়ে জানতে দাউদকান্দি উপজেলার ওই রাজনৈতিক নেতার মোবাইল ফোনে একাধিকবার কল করলেও তিনি রিসিভ করেননি। 

এ বিষয়ে যুবদল নেতা সেলিম খান বলেন, ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি গত ১৬ নভেম্বরের (বুধবার)। ওইদিন সন্ধ্যা ৭টার সময় উপজেলার দলীয় কার্যালয়ের সামনে লিফলেট বিতরণ করতে গেলে তার উপর হামলা হয়। 

“আমি এ ঘটনার পর থেকে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছি। বিএনপির জেলা নেতৃবৃন্দের সাথে কথা বলে এ বিষয়ে পরবর্তী সিদ্ধান্ত গ্রহণ করব। তারা আমার সঙ্গে এমন কাণ্ড করে নিজেরাই ভিডিও ধারণ করে। আবার সেই ভিডিও নিজেরাই ফেইসবুকে ছড়িয়ে দেয়। আমি তাদের বিচার চাই।” 

বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক (কুমিল্লা সাংগঠনিক বিভাগীয়) মোস্তাক মিয়া বলেন, বিএনপির গণসমাবেশকে ঘিরে মানুষের উৎসাহ দেখে তারা বেপরোয়া হয়ে পড়েছে। পুরো জেলাতেই  যেখানে পাচ্ছে, সেখানে আমাদের লোকজনকে মারধর করছে। কিন্তু এসব করে সমাবেশকে পণ্ড করা যাবে না। কুমিল্লার সমাবেশ জনসমুদ্রে পরিণত হবে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক