ফ্রিজে তেলাপোকা, দুই রেস্টুরেন্টকে ৩ লাখ টাকা জরিমানা

ময়মনসিংহে দুই রেস্টুরেন্ট মালিককে রান্নাঘর পরিচ্ছন্নতার পাশাপাশি স্বাস্থ্যসম্মত খাবার পরিবেশন নিশ্চিত করার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

ময়মনসিংহ প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 30 Jan 2024, 02:11 PM
Updated : 30 Jan 2024, 02:11 PM

রান্নাঘরে খাবারের ফ্রিজে তেলাপোকাসহ পচাবাসি খাবার রাখায় ময়মনসিংহের দুই রেস্টুরেন্ট মালিককে তিন লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

মঙ্গলবার নগরীর সারিন্দা রেস্টুরেন্টকে দুই লাখ এবং ধানসিঁড়ি রেস্টুরেন্টকে এক লাখ টাকা জরিমানা করেন নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের নির্বাহী হাকিম মো. আক্তারুজ্জামান।

তিনি বলেন, দুপুর দেড়টার দিকে সারিন্দার রেস্টুরেন্টের চিকেন রুমে অভিযান শুরু হয়ে চলে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। রেস্টুরেন্টের রান্নাঘর অপরিচ্ছন্ন, ফ্রিজে পচাবাসি খাবার রাখা, পচা গ্রিল, ফেন্ডন্স ফ্রাইসহ বেশ কয়েক প্রকার খাবার জব্দ করা হয়।

এরপর ঘণ্টাব্যাপী অভিযান পরিচালনা করা হয় ধানসিঁড়ি রেস্টুরেন্টে। সেখানে কিচেন রুম থেকে জব্দ করা হয় পচা মাংস। খাবারের ফ্রিজে পাওয়া যায় অসংখ্য তেলাপোকা; যা স্বাস্থ্যের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর।

যেসব অভিযোগে জরিমানা করা হয়েছে সেটিকে অনাকাঙ্ক্ষিত বলে উল্লেখ করেছেন সারিন্দা রেস্টুরেন্টে খাবার তৈরির কারিগর কাজী সামিউল।

তিনি বলেন, “অসাবধানতার কারণে রেস্টুরেন্টের সুনাম কিছুটা ক্ষুণ্ন হয়েছে। এ ছাড়া ভেতরের পরিবেশ ঠিক করার জন্য কর্তৃপক্ষ কাজ করছেন।”

ধানসিঁড়ি রেস্টুরেন্টে খাবার তৈরির কারিগর মো. বাবুল বলেন, “শহরের মধ্যে অন্যতম রেস্টুরেন্ট হলেও সম্প্রতি এখানে বেচাকেনা একেবারেই কমে গেছে। কর্তৃপক্ষ অনেক শ্রমিককে ছুটি দিয়েছেন।

“যার কারণে কিচেন রুমের এমন দুরবস্থা। সেখানে একটু খোঁজ খবর কম নেওয়ার কারণে এই সমস্যাগুলো দেখা দিয়েছে।”

নির্বাহী হাকিম আক্তারুজ্জামান বলেন, খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে দুটি রেস্টুরেন্টে অভিযান পরিচালনা করা হয়। সেখানে অপরিচ্ছন্ন পরিবেশে খাবার পরিবেশনসহ নানা সমস্যা পাওয়া গেছে। যারা কারিগর তাদের স্বাস্থ্যসনদ নেই; যা থাকা বাধ্যতামূলক।

দুটি রেস্টুরেন্ট মালিককে তিন লাখ টাকা জরিমানা করা হয়; যা অনাদায়ে তাদের সাজা দেওয়া হয়। পরে টাকা পরিশোধ করেন মালিকরা।

এছাড়া তাদেরকে রান্নাঘরের পরিবেশের পাশাপাশি ত্রুটিমুক্ত স্বাস্থ্যসম্মত খাবার পরিবেশন নিশ্চিত করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে; ব্যত্যয় ঘটলে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

এ সময় নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের ময়মনসিংহ জেলা কর্মকর্তা মির্জা শাহরান হোসাইনসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।