বেশি ভোট পড়লে নির্বাচনের গ্রহণযোগ্যতা আসবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

সারাদেশে নির্বাচনী পরিবেশ বিরাজ করছে বলে দাবি করেন একে আব্দুল মোমেন।

সিলেট প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 29 Nov 2023, 12:31 PM
Updated : 29 Nov 2023, 12:31 PM

বেশি ভোট পড়লে নির্বাচনে গ্রহণযোগ্যতা আসবে বলে মন্তব্য করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন।

তিনি বলেছেন, “এবারের নির্বাচনে অনেক ভোট পড়বে, তাতেই নির্বাচনে গ্রহণযোগ্যতা আসবে। কে আসল না আসল সেটা বিষয় না, জনগণ সাথে আছে কি না সেটাই দেখার বিষয়।”

সিলেট-১ আসন থেকে সংসদ সদস্য পদে নির্বাচনের জন্য বুধবার দুপুরে সিলেট জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া শেষে সাংবাদিকদের সামনে তিনি এসব কথা বলেন।

বিএনপির আন্দোলনে নির্বাচনে প্রভাব পড়বে না দাবি করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “বিএনপির আন্দোলনের নমুনা হল, রাতের অন্ধকারে লুকিয়ে আগুন জ্বালানো। সারাদেশে এখন নির্বাচনী উৎসব শুরু হয়েছে। মানুষ শান্তি ও উন্নয়ন চায়। শেখ হাসিনার উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চান। উন্নয়ন শান্তি ও স্থিতিশীলতা অব্যাহত রাখতে মানুষ উৎসবমুখর পরিবেশে পরিবার-পরিজন নিয়ে ভোট কেন্দ্রে যাবেন এবং নৌকায় ভোট দেবেন।”

তিনি দেশের মানুষকে ‘উৎসমুখর পরিবেশে’ ভোটকেন্দ্রে আসার আহ্বান জানান।

নিজের জয়ের ব্যাপারে আশাবাদ ব্যক্ত করে মোমেন বলেন, “আমি প্রচুর উন্নয়নপ্রকল্প বাস্তবায়ন করেছি। আরও অনেক কিছু করার আছে। অনেক প্রকল্পের কাজ চলছে। সেগুলো বাস্তবায়নের জন্য সিলেটবাসী অতীতের মত আবারও আমাকে নির্বাচিত করবেন বলে আমার দৃঢ় বিশ্বাস।”

সিলেটবাসীর ভালোবাসায় ‘ধন্য’ বলে মন্তব্য করেন সরকারের এ মন্ত্রী।

তিনি বলেন, “তারা অতীতে আমাকে ভোট দিয়েছেন। আবারও আমাকে ভোট দিয়ে তাদের প্রতিনিধি হিসেবে সংসদে পাঠাবেন। সিলেট বিভাগজুড়ে নৌকার অগ্রযাত্রা অব্যাহত থাকবে, নৌকাই জয়ী হবে।”

স্বতন্ত্র প্রার্থীর বিষয়ে একে আব্দুল মোমেন বলেন, “আওয়ামী লীগের যারা স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করার ঘোষণা দিয়েছেন বা দিচ্ছেন। দলের জন্য তারা ত্যাগ স্বীকার করে তাদের সেই সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করবেন বলেই আমি মনে করি। তারা আবার নৌকার প্রার্থীদের জয় নিশ্চিতে নির্বাচনী মাঠ থাকবেন।”

সারাদেশে নির্বাচনী পরিবেশ বিরাজ করছে দাবি করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “বিচ্ছিন্ন দু’একটা ঘটনা ছাড়া সারাদেশে দারুণ নির্বাচনী পরিবেশ বিরাজ করছে। কোথাও কোনো সমস্যা নেই।

“যারা নির্বাচন বয়কটের ঘোষণা করেছেন, তাদের প্রতি আমার আহ্বান, সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে নির্বাচনে আসুন। একটি অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন করতে আওয়ামী লীগ বদ্ধপরিকর।”

এ সময় সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন খান, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন, সিলেট সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর আজাদুর রহমান আজাদসহ জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের নেতারা ছিলেন।