কুড়িগ্রামে হঠাৎই তাপমাত্রা নামল ৮.৭ ডিগ্রিতে

এমন তাপমাত্রা অব্যাহত থাকার সম্ভাবনা নেই বলে জানিয়েছেন আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা।

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 8 Feb 2024, 05:46 AM
Updated : 8 Feb 2024, 05:46 AM

কুড়িগ্রামের উপর দিয়ে আবারও বয়ে যাচ্ছে মৃদু শৈত্য প্রবাহ। মাঘের শেষ দিকে হঠাৎ করেই আবারও তাপমাত্রা ৯ ডিগ্রির নিচে নেমেছে। ঠান্ডার সঙ্গে ঘন কুয়াশায় কষ্টে পড়েছেন খেটে খাওয়া মানুষজন।

কুড়িগ্রামের রাজারহাট কৃষি আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সুবল চন্দ্র সরকার বলেন, কয়েকদিন ধরে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রির ওপরে থাকলেও  হঠাৎ করেই জেলার তাপমাত্রা কমে গেছে। বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় জেলার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ৮ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

এদিকে, তাপমাত্রা হঠাৎ নিম্নগামী হওয়ায় বিপাকে পড়েছেন ব্রহ্মপুত্র, ধরলা, তিস্তা, দুধকুমরসহ ১৬টি নদ-নদীর অববাহিকার চরাঞ্চলের মানুষজন।

বর্তমানে বোরো ধান রোপণের ভরা মৌসুম চলছে। এ অবস্থায় তাপমাত্রা কমে যাওয়ায় কনকনে ঠান্ডা উপেক্ষা করেই মাঠে কাজে বের হতে হচ্ছে শ্রমজীবী মানুষদের।

সদরের পাঁচগাছী ইউনিয়নের কৃষক ছবরুল মিয়া বলেন, “কয়েকদিনের চাইতে একটু ঠান্ডা বেশি মনে হচ্ছে। বোরো ধান রোপণ করছি, তাই মাঠে আসতে হয়েছে।”

ওই এলাকার রিকশা চালক আসলাম বলেন, “কিছুদিন থাকি ঠান্ডা কমে গেছে। কিন্তু হঠাৎ করে কেন জানি আজ (বৃহস্পতিবার) খুব ঠান্ডা। রাস্তায় লোকজনও কম, ভাড়াও পাচ্ছি না। ”

তবে ঘন কুয়াশা কেটে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার পর জেলায় সূর্যের দেখা মিলেছে। তাতে পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হয়েছে।

এমন তাপমাত্রা অব্যাহত থাকার সম্ভাবনা নেই বলে জানিয়েছেন কৃষি আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সুবল চন্দ্র সরকার। তিনি বলেন, আগামীতে বৃষ্টি হলে তাপমাত্রা বৃদ্ধি পাবে।