ডলার বন্ডে সুদহার বাড়ল, উঠল বিনিয়োগ সীমা

এতদিন ইউএস ডলার প্রিমিয়াম ও ইনভেস্ট বন্ডে সর্বোচ্চ ৫০ হাজার ডলার বিনিয়োগ করার সুযোগ ছিল।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 14 Jan 2024, 06:14 PM
Updated : 14 Jan 2024, 06:14 PM

দেশে ডলারের সরবরাহ বাড়ানোর পদক্ষপের অংশ হিসেবে বিনিয়োগ উৎসাহিত করতে তিন বছর মেয়াদী মার্কিন ডলার প্রিমিয়াম ও ইনভেস্ট বন্ডে সুদহার দেড় থেকে সর্বোচ্চ ২ শতাংশ বাড়ানো হয়েছে।

একইসঙ্গে আগের সীমা সর্বোচ্চ ৫০ হাজার ডলার তুলে দিয়ে তা উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ আগ্রহীরা এখন যেকোনো পরিমাণ বিনিয়োগ করতে পারবেন।

রোববার অর্থ মন্ত্রণালয়ের অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগ সুদ হার বাড়ানো ও সীমা তুলে দেওয়ার বিষয়ে সার্কুলার জারি করেছে।

এতদিন ইউএস ডলার প্রিমিয়াম ও ইনভেস্ট বন্ডে ৫০০ থেকে সর্বোচ্চ ৫০ হাজার ডলার বিনিয়োগ করার সুযোগ ছিল।

ইউএস ডলার প্রিমিয়াম বন্ডে এক লাখ ডলার পর্যন্ত বিনিয়োগে সুদহার ২ শতাংশ বাড়িয়ে প্রথম বছর শেষে সাড়ে ৬ শতাংশ, দ্বিতীয় বছরে ৭ শতাংশ ও তৃতীয় বছরে সাড়ে ৭ শতাংশ করা হয়েছে।

এক লাখ এক হতে পাঁচ লাখ ডলারের বিনিয়োগে সুদহার দেড় শতাংশ বাড়িয়ে করা হয় প্রথম বছর শেষে সাড়ে ৫ শতাংশ, দ্বিতীয় বছরে সাড়ে ৫ শতাংশ ও তৃতীয় বছর শেষে ৬ শতাংশ হবে।

পাঁচ লাখ এক ডলার থেকে তদুর্ধ্ব বিনিয়োগে সুদহার দেড় শতাংশ বাড়িয়ে করা হয় প্রথম বছর শেষে সাড়ে ৪ শতাংশ, দ্বিতীয় বছরে সাড়ে ৪ শতাংশ ও তৃতীয় বছর শেষে ৫ শতাংশ।

ইউএস ডলার ইনভেস্টমেন্ট বন্ডে এক লাখ ডলার পর্যন্ত বিনিয়োগে সুদহার দেড় শতাংশ বাড়িয়ে করা হয় প্রথম বছর শেষে সাড়ে ৫ শতাংশ, দ্বিতীয় বছরে ৬ শতাংশ ও তৃতীয় বছরে সাড়ে ৬ শতাংশ।

এক লাখ এক হতে পাঁচ লাখ ডলারের বিনিয়োগে সুদহার এক শতাংশ বাড়িয়ে করা হয় প্রথম বছর শেষে সাড়ে ৪ শতাংশ, দ্বিতীয় বছরে সাড়ে ৪ শতাংশ ও তৃতীয় বছর শেষে ৫ শতাংশ।

পাঁচ লাখ এক ডলার থেকে বেশি বিনিয়োগে সুদহার ১ শতাংশ বাড়িয়ে করা হয় প্রথম বছর শেষে ৩ শতাংশ, দ্বিতীয় বছরে সাড়ে ৩ শতাংশ ও তৃতীয় বছর শেষে ৪ শতাংশ।

প্রবাসীরা যাতে তাদের মাসের খরচ মেটানোর পর যে টাকা সঞ্চয় করেন, তা দেশে পাঠিয়ে লাভবান হতে পারেন, সেজন্য বাংলাদেশে ওয়েজ আর্নার ডেভেলপমেন্ট বন্ড, তিন বছর মেয়াদি ইউএস ডলার প্রিমিয়াম বন্ড ও ইউএস ডলার ইনভেস্টমেন্ট বন্ড চালু করেছে সরকার।