ছাত্রদলের আশিকের বিরুদ্ধে ‍পুলিশের মামলায় পিনাকী ভট্টাচার্য্যও আসামি

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে এই মামলা হয়েছে।

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 17 Nov 2022, 05:30 PM
Updated : 17 Nov 2022, 05:30 PM

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে বিকৃত তথ্য প্রচারের অভিযোগে গ্রেপ্তার সাবেক ছাত্রদল নেতা মফিজুর রহমান আশিকের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে যে মামলা হয়েছে, তাতে লেখক ও অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট পিনাকী ভট্টাচার্য্যকেও আসামি করা হয়েছে।

জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সংসদের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক আশিককে গত ১৪ অক্টোবর গ্রেপ্তারের পর তার বিরুদ্ধে মামলা করে পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ও ট্রান্স ন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিট (সিটিটিসি)।

প্রায় এক মাস পর বৃহস্পতিবার জানা যায়, রমনা থানায় করা সেই মামলায় ফ্রান্সে অবস্থানরত পিনাকী এবং জাস্ট নিউজ নামে একটি নিউজ পোর্টালের সম্পাদক, যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থানরত মুশফিকুল ফজল আনসারীকেও আসামি করা হয়েছে।

রমনা থানার ওসি আবুল হাসান জানান, গ্রেপ্তার মফিজুর রহমানকে এক নম্বর আসামি করা হয়েছে। দুই নম্বরে রাখা হয়েছেপিনাকীকে, ফজল আনসারীর নামও রয়েছে।

পুলিশ জানায়, গত ১৪ অক্টোবর ঢাকার পল্লবী থানায় একটি অবিস্ফোরিত হাতবোমা পাওয়া যায়। তখন সিটিটিসির বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দল তা নিষ্ক্রিয় করেছিল।

ওই ঘটনাটিকে ধরে অপপ্রচারের অভিযোগে এই মামলাটি হয়। সোশাল মিডিয়া এবং অনলাইনে ঘটনাটিকে ‘দেশে জঙ্গি তৎপরতা প্রমাণের জন্য রাষ্ট্রীয় বাহিনীর মাধ্যমে অপতৎপরতা’ হিসোবে দেখানো হচ্ছিল বলে অভিযোগ পুলিশের।

এজাহারে বলা হয়, “সোশ্যাল মিডিয়ায় বিভিন্ন অসাধু ব্যক্তি বা ব্যক্তিবর্গ এবং তাদের সহযোগিতায় সেটিকে বিকৃত করে প্রচার করে, যার মাধ্যমে সমাজে বিদ্বেষ ও বিশৃ্ঙ্খলা সৃষ্টি হয় বা হওয়ার উপক্রম হয়।”

ওই ঘটনার দিনই মিরপুর থেকে আশিককে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল।

এজাহারে বলা হয়, আশিক মেসেঞ্জারসহ বিভিন্ন মাধ্যমে পিনাকী এবং ফজল আনসারীর কাছে এসব বিভ্রান্তিকর তথ্য পাঠিয়েছিলেন এবং তারা তা গুজব আকরে সোশাল মিডিয়ায় প্রকাশ করে।

“সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেক আইডি দ্বারা ছবিগুলো ডিজিটাল উপায়ে প্রেরণ ও প্রকাশিত মিথ্যা ও বিভ্রান্তিকর তথ্যে প্রচারের কারণে রাষ্ট্রের ভারমূর্তি ক্ষুণ্ন এবং সুনাম ক্ষুণ্ন হয়,” বলা হয় এজাহারে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক