স্পেনে অ্যাপার্টমেন্ট ব্লকে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১০

ভবনটির আচ্ছাদনের জন্য ব্যবহার করা অত্যন্ত দাহ্য উপাদানগুলো আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার কারণ হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে।

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 Feb 2024, 05:44 AM
Updated : 23 Feb 2024, 05:44 AM

স্পেনের ভ্যালেন্সিয়া শহরের একটি সুউচ্চ অ্যাপার্টমেন্ট ব্লকে বড় ধরনের এক অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে অন্তত ১০ জনে দাঁড়িয়েছে বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা। গণমাধ্যমে আরও ১৪ জন আহত হওয়ার খবর জানানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় বিকাল ৫টার পর নগরীর কাম্পানা এলাকায় ১৪তলা একটি ভবনে আগুন লাগে, দ্রুত তা পাশের আরেকটি ভবনে ছড়িয়ে পড়ে। গণমাধ্যমের খবরে প্রাথমিকভাবে ১৫ জন নিখোঁজ বলে জানানো হয়েছিল।

পরে ফরেনসিক পুলিশ ঘটনাস্থল তদন্ত করে শুক্রবার বলেছেন, আর কেউ নিখোঁজ আছে বলে মনে করছেন না তারা।

বিবিসি জানিয়েছে, দমকল কর্মীদের ভবন দু’টির বারান্দা থেকে লোকজনকে উদ্ধার করতে দেখা গেছে। ফরেনসিক পুলিশ ১০ জনের লাশ খুঁজে পাওয়ার কথা জানিয়েছে।

প্রবল বাতাসে আগুন আরও ছড়িয়ে পড়ে, তবে ভবনটির আচ্ছাদনের জন্য ব্যবহার করা অত্যন্ত দাহ্য উপাদানগুলোও আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার কারণ হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

২০ জনেরও বেশি দমকল কর্মী কয়েক ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হন। শুক্রবার ভোররাতের দিকেই ভবনটি একটি বিশাল আগুনে পোড়া এক কাঠামোতে পরিণত হয়। লোকজনকে ওই এলাকা এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

ভবনটির ব্যবস্থাপক জানিয়েছেন, পুড়ে যাওয়া ভবনটিতে ১৩৮টি ফ্ল্যাট ছিল আর সেগুলোতে প্রায় সাড়ে ৪০০ মানুষ বসবাস করতো।

স্থানীয় বাসিন্দারা জানিয়েছেন, দমকল কর্মীরা ক্রেন ব্যবহার করে ভবনটির বেশ কিছু বাসিন্দাকে উদ্ধার করেছেন, তাদের মধ্যে সপ্তমতলায় বসবাস করা এক দম্পতিও ছিল।

ভবনটি তৃতীয় তলার এক বাসিন্দা জানান, পঞ্চম তলায় আগুন লাগার পর তা ’১০ মিনিটের মধ্যে’ পুরো ভবনজুড়ে ছড়িয়ে পড়ে।

দাভিদ হিগুয়েরা নামের একজন প্রকৌশলী জানান, ভবনটিতে যে আচ্ছাদন ব্যবহার করা হয়েছে তার কারণেই সম্ভবত আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে।

তিনি বলেন, “বাইরের দিকে ইন্স্যুলেটর হিসেবে ফোম ব্যবহার করে ওপরে অ্যালুমিনিয়াম প্লেট বসানো হয়েছে, এটি উত্তাপ ও ঠাণ্ডা প্রতিরোধে বেশ কার্যকর হলেও খুব দাহ্য উপাদান।”

ঘটনাস্থলের কাছে একটি ফিল্ড হাসপাতাল স্থাপন করা হয়েছে। আগুনের কারণে ঘরহারা লোকজনকে স্থানীয় হোটেলগুলোতে রাখা হবে বলে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে।