‘অভিমান ভেঙে’ ১৫ মাস পর জাতীয় দলে জিয়াশ

সাবেক কোচের সঙ্গে দ্বন্দে জড়িয়ে জাতীয় দলে আর না খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন চেলসি মিডফিল্ডার।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 12 Sept 2022, 03:00 PM
Updated : 12 Sept 2022, 03:00 PM

আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে অবসরের ঘোষণা না দিলেও জাতীয় দলে আর না খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন হাকিম জিয়াশ। তবে কোচ বদলের পর পাল্টে গেছে তার মন। দীর্ঘ ১৫ মাসের বিরতি শেষে আবার মরক্কো জাতীয় দলে ফিরলেন চেলসির এই মিডফিল্ডার।

কাতার বিশ্বকাপের প্রস্তুতিপর্বে চলতি মাসে চিলি ও প্যারাগুয়ের বিপক্ষে প্রীতি ম্যাচ খেলবে মরক্কো। এই দুই ম্যাচের জন্য জিয়াশকে নিয়ে সোমবার দল ঘোষণা করেছেন নতুন কোচ ওয়ালিদ রেগরাগি।

গত ফেব্রুয়ারিতে জিয়াশ জানিয়ে দেন, কাতার বিশ্বকাপে মরক্কো খেলার যোগ্যতা অর্জন করলেও খেলবেন না তিনি।

এর পেছনে মূল কারণ ছিল ওই সময়ের কোচ ভাহিদ হালিলহোদিচের সঙ্গে তার বনিবনা না হওয়া। ঘটনার সুত্রপাত গত বছরের জুনে।

দলটির ওই সময়ের কোচ হালিলহোদিচ অভিযোগ করেছিলেন, মরক্কোর হয়ে প্রীতি ম্যাচ না খেলার জন্য ভুয়া চোটের অজুহাত দেখিয়েছিলেন জিয়াশ। এরপর থেকে দুজনের মধ্যে চলছিল বাকযুদ্ধ। পরে গত আফ্রিকান নেশন্স কাপের দলে জিয়াশকে রাখেননি হালিলহোদিচ।

এরপরই অভিমান করে জাতীয় দলে আর না খেলার সিদ্ধান্ত জানিয়ে দেন জিয়াশ।

গত অগাস্টে কোচের পদ থেকে ৭০ বছর বয়সী হালিলহোদিচকে ছাঁটাই করে মরক্কো ফুটবল ফেডারেশন। তার চলে যাওয়ায় জিয়াশের আবার দলে ফেরার সম্ভাবনা তৈরি হয়। এবার ডাক পেয়েও গেলেন তিনি।

নেদারল্যান্ডসে জন্ম নেওয়া জিয়াশ দেশটির হয়ে খেলেছেন বয়সভিত্তিক দলে। এরপর মায়ের জন্মভূমি মরক্কোর হয়ে খেলার সিদ্ধান্ত নেন তিন। মরক্কোর হয়ে ৪০ ম্যাচ খেলে ১৭ গোল করেছেন ২৯ বছর বয়সী এই মিডফিল্ডার।

কাতার বিশ্বকাপে ‘এফ’ গ্রুপে মরক্কোর তিন প্রতিপক্ষ বেলজিয়াম, কানাডা ও ক্রোয়েশিয়া।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক