বরিশালে নালা উদ্ধারে গিয়ে হামলার শিকার ইউএনও, দুজনকে কারাদণ্ড

নালাটি উদ্ধার করায় শতাধিক কৃষকের ৬০ একর সম্পত্তি আবাদযোগ্য হবে।

বরিশাল প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 Jan 2023, 01:58 PM
Updated : 23 Jan 2023, 01:58 PM

বরিশালের বাবুগঞ্জে কৃষি জমিতে সেচের নালা উদ্ধারে গিয়ে হামলায় শিকার হয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা; পরে এ ঘটনায় দুজনকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

সরকারি কাজে বাধা দেওয়ায় সোমবার দুজনকে তিন মাস করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে বলে ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক ও বাবুগঞ্জের ইউএনও নুসরাত ফাতিমা জানান।

দণ্ডিতরা হলেন- উপজেলার চাঁদপাশা ইউনিয়নের আরজি কালিকাপুর গ্রামের বাসিন্দা বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হালিমের ছেলে মাহিন (১৯) ও তার স্বজন নাইম হাসান (২৬)।

ইউএনও বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, আরজি কালিকাপুর গ্রামে শত বছরের পুরনো পানি প্রবাহের নালা একটি পরিবার দখল করে ভরাট করে সেখানে মুরগির খামার করেছে। এ ছাড়া গাছ রোপণ করে নালাটি বন্ধ করে দিয়েছে। সেচের পানি না পেয়ে সেখানে ৬০ একর জমি অনাবাদী রয়েছে।

স্থানীয়দের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে নালা উদ্ধারে গেলে ওই পরিবারের লোকজন বাধা দেয়। একপর্যায়ে ইট নিক্ষেপ করে এবং একটি হাতবোমার বিস্ফোরণ ঘটায়। তখন পুলিশ সাতজনকে আটক করে। এ সময় লাঠিসোটাও উদ্ধার করা হয়েছে।

পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতে দুজনকে কারাদণ্ড দিয়ে বাকি পাঁচজনকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। তারা হলেন- আব্দুল হালিমের ছেলে রিগান (২২), মাহামুদ (২৬), জুনায়েদ হোসেন (১৯), অপু (১৭) এবং আশিকুজ্জামান (২০)।

ঘটনাস্থলে যাওয়া বরিশাল মহানগর পুলিশের এয়ারপোর্ট থানার পরিদর্শক লোকমান হোসেন বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, নালা উদ্ধারের সময় ইউএনওর সঙ্গে উপজেলা চেয়ারম্যান, ইউপি চেয়ারম্যান, পুলিশ, বিএডিসি ও কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের লোকজন ছিলেন।

“নালা কাটার সময় পাশের বাড়ির মালিকের ছেলেরা শ্রমিকদের লাঠিসোটা নিয়ে মারধর করেছে। পুলিশের দিকে ইট নিক্ষেপ করেছে। ইউএনওর পাশে দাঁড়ানো একজন ইটের আঘাত পেয়েছেন। পরে তাদের আটক করা হয়।”

চাঁদপাশা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন রাঢ়ি বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ অনুযায়ী, এক ইঞ্চি জমিও অনাবাদী রাখা যাবে না। কিন্তু নালা দখল করে রাখায় ৫০০-৬০০ লোক ভোগান্তিতে পড়েছে। একাধিকবার তাকে অনুরোধ করা হয়। কিন্তু কারো কথাই তিনি শুনেন না।

“আজ প্রশাসন শত বছরের পুরনো সেই নালাটি উদ্ধার করেছে। এতে সেখানে শতাধিক কৃষকের ৬০ একর সম্পত্তি আবাদযোগ্য হবে।”

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হালিম বলেন, “পাশের অব্যবহৃত জমি থেকেও পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা করা যেত। কিন্তু স্থানীয়দের ইন্ধনে উদ্দেশ্যে প্রণোদিতভাবে ভিটাবাড়ি নষ্ট করে নালা নির্মাণ করা হয়েছে। পরিবারের সদস্যদের ওপর হামলা চালিয়ে ইউএনও আমার নিরাপরাদ সন্তানদের সাজা দিয়েছে।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক