এবার রাজশাহীতে রেলপথ অবরোধে ভর্তিচ্ছুরা

রেলের অনিয়ম দূর করাসহ ভর্তি পরীক্ষা চলাকালীন পর্যাপ্ত বগির ব্যবস্থা রাখার দাবিও জানিয়েছেন শিক্ষার্থীরা।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 27 July 2022, 02:06 PM
Updated : 27 July 2022, 02:06 PM

ফিরতি টিকিট না পেয়ে ট্রেনে অতিরিক্ত বগি লাগানোর দাবিতে রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশনে ঢাকাগামী ‘পদ্মা এক্সপ্রেস’ ট্রেন অবরোধ করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিচ্ছু পরীক্ষার্থীরা।

বুধবার বিকেল ৪টা থেকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিতে আসা শিক্ষার্থীরা অবরোধ শুরু করেন; এতে ট্রেনটি আটকে থাকায় দুর্ভোগে পড়েছেন যাত্রীরাও।

এরই মধ্যে পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের মহাব্যবস্থাপক (জিএম) অসীম কুমার তালুকদার ঘটনাস্থলে এসে রাত ১১টার মধ্যে সব পরীক্ষার্থীকে গন্তব্যে পৌঁছে দেওয়ার লিখিত প্রতিশ্রুতি দিলেও তাতে রাজি হননি পরীক্ষার্থীরা।

জিএম অসীম কুমার বলেন, “পরীক্ষার জন্য অতিরিক্ত তিন লাখ মানুষ এসেছেন। সবাইকে ট্রেনে নেওয়া সম্ভব না। পদ্মায় যাত্রী ওঠার পর অতিরিক্ত ৫০০ থেকে ৬০০ শিক্ষার্থী এসেছে। কীভাবে নিব? আমার শেষ সামর্থ্য অনুযায়ী একটা কোচ সংযুক্ত করলাম। ১০৫টা সিট, ২৫০ জনকে নেওয়া সম্ভব।

“বাকিদের রাতে ও সকালে পাঠানোর কথা রয়েছে।”

এদিকে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করেন, অল্প সময়ের মধ্যে অনলাইনে টিকিট শেষ হয়ে যাওয়ায় তারা টিকিট কাটতে পারেননি।

অনেকে অনলাইনে টিকিট কাটলেও এক টিকিট অনেকের কাছে চড়া দামে বিক্রি করা হয়েছে এবং পর্যাপ্ত বগির ব্যবস্থা না করায় ভোগান্তিতে পড়েছেন বলে তারা অভিযোগ করেন।

এ সময় রেলের অনিয়ম দূর করাসহ ভর্তি পরীক্ষা চলাকালীন পর্যাপ্ত বগির ব্যবস্থা রাখার দাবিও জানিয়েছেন শিক্ষার্থীরা।

এ বছর রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য তিন ইউনিটে কোটা ছাড়া মোট চার হাজার পাঁচটি আসনের বিপরীতে আবেদন জমা পড়েছে এক লাখ ৭৮ হাজার ২৬৮টি। এ হিসাবে প্রতি আসনে লড়াই করবেন ৪৪ জন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী। শেষ দিন বুধবার ‘বি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় প্রায় ৩৮ হাজার শিক্ষার্থী অংশ নিয়েছেন।

এর আগে ২০ জুলাই রাজশাহী যাওয়ার টিকেট না পেয়ে রাজধানীর বিমানবন্দর স্টেশনে রেললাইন অবরোধ করে রাখে শিক্ষার্থীরা। সাড়ে তিন ঘণ্টা পর কর্তৃপক্ষের আশ্বাস পেয়ে, সেই অবরোধ তুলে নেওয়া হয়।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক