বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোরের পটুয়াখালী প্রতিনিধির ওপর হামলা

ঢাকায় বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমের সদর দপ্তরে একটি প্রশিক্ষণ কর্মশালা শেষে বিকেলে মেঘনা পরিবহনের বাসে পটুয়াখালী যাওয়ার সময় আক্রান্ত হন লিটু।

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 21 Sept 2022, 07:34 AM
Updated : 21 Sept 2022, 07:34 AM

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমের পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধি সঞ্জয় দাস লিটুর ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। 

মঙ্গলবার রাতে পটুয়াখালী লাউকাঠী ব্রিজের দ‌ক্ষিণপাড় ব্রিজের উপর পুরাতন ফেরীঘাট প‌য়ে‌ন্টে ঢাকা থেকে পটুয়াখালীর উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসা মেঘনা পরিবহনের বাসে এ ঘটনা ঘটে।

সাংবাদিক লিটু টেলিভিশন চ্যানেল নিউজ ২৪ এবং বাংলাদেশ প্রতিদিনেরও জেলা প্রতিনিধি।

লিটু ঢাকায় বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমের সদর দপ্তরে একটি প্রশিক্ষণ কর্মশালা শেষে বিকেলে মেঘনা পরিবহনের বাসে পটুয়াখালী রওয়ানা হন। পটুয়াখালীর কাছাকাছি পৌঁছালে ওই বাসে থাকা এক ব্যক্তি তাকে মারধর করে পালিয়ে যায় বলে প্রতক্ষ্যদর্শীদের ভাষ্য।

পরে বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোরের বরগুনা প্রতিনিধি মো. কামাল হোসেন তাকে উদ্ধার করে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। 

কামাল হোসেন জানান, বাসটি পটুয়াখালী পৌঁছালে হঠাৎ করে অজ্ঞাতপরিচয় এক ব্যক্তি সাংবাদিক লিটুকে মারধর শুরু করে। এ সময় লিটু গুরুতর আহত হন।

হামলার সময় ওই ব্যক্তি নিজেকে ‘পটুয়াখালীর শীর্ষ পাঁচজন সন্ত্রাসীর মধ্যে শ্রেষ্ঠ’ বলে দাবি করেন।  

তবে, কী কারণে ওই হামলা, সে বিষয়ে নিদিষ্ট করে কিছু বলতে পারেননি কেউ।

ইতোমধ্যে হামলাকারীদের শনাক্তে কাজ শুরুর কথা জানিয়ে পটুয়াখালী সদর থানার ওসি মো. মনিরুজ্জামান বলেছেন, হাসপাতালে লিটুর অবস্থার খোঁজ রাখছেন তারা।  

“আমরা আহত সাংবাদিকের খোঁজ-খবর নিয়েছি। হাসপাতালে তার কথা শুনেছি। আমরা প্রাথমিক তথ্যের ভিত্তিতে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ ও ঘটনার সাথে জড়িতদের খুঁজে বের করতে কাজ শুরু করছি।”  

এ ঘটনার নিন্দা জানিয়েছেন পটুয়াখালী জেলায় কর্মরত গণমাধ্যমকর্মীরা। তারা দ্রুত দোষীদের খুঁজে বের করে গ্রেপ্তার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক