লালমনিরহাটে ট্রেনে কাটা: মা-মেয়ের পরে এবার ছেলের মৃত্যু

শনিবার দুপুরে সুমির স্বামীকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

লালমনিরহাট প্রতিনিধি
Published : 14 Jan 2023, 02:09 PM
Updated : 14 Jan 2023, 02:09 PM

লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলায় ট্রেনে কাটা পড়ে এক নারী ও তার মেয়ের মৃত্যুর পরে আহত ছেলেরও মৃত্যু হয়েছে। 

শুক্রবার সন্ধ্যায় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুই বছরের শিশু তৌহিদের মৃত্যু হয়েছে বলে জানান পাটগ্রাম থানার ওসি ওমর ফারুক। 

এর আগে শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার বুড়িমারী ইউনিয়নে লালমনিরহাট-বুড়িমারী রেলপথের ঘুণ্টি নামক এলাকায় ট্রেনে কাটা পড়ে ঘটনাস্থলেই সুমি আক্তার (২৭) ও তার মেয়ে তাজমিরা তাবাসসুম তাসিমের (৬) মৃত্যু হয়। 

এ ঘটনার পর সুমির বাবা আজিজুল ইসলাম শুক্রবার রাতেই সুমির স্বামী রাশেদুজ্জামান ও শাশুড়ি রাশেদা বেগমকে আসামি করে লালমনিরহাট রেলওয়ে থানায় আত্মহত্যার প্ররোচণার মামলা দায়ের করেন। 

সেই মামলায় পুলিশ রাতেই পাটগ্রাম ইউনিয়নের ধবলসুতি রহমানপুর গ্রামের বাসিন্দা রাশেদুজ্জামানকে গ্রেপ্তার করে থানায় নিয়ে আসেন।

শনিবার দুপুরে তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানান লালমনিরহাট রেলওয়ে থানার ওসি ফেরদৌস আলী। 

স্থানীয়দের বরাতে তিনি জানান, বৃহস্পতিবার রাতে ঝগড়ার এক পর্যায়ে সুমিকে মারধর করে তার স্বামী রাশেদুজ্জামান ও শাশুড়ি। শুক্রবার সকালে আবারও মারধর করে সুমিকে বাড়ি থেকে বের করে দেন তার স্বামী। 

সুমি ছেলে-মেয়েকে নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে ঘুণ্টি এলাকার লালমনিরহাট- বুড়িমারী রেললাইনে গিয়ে বুড়িমারী কমিউটার ট্রেনের সামনে ঝাঁপ দেন।  এতে সুমি ও তার মেয়ে তাসিন ঘটনাস্থলেই মারা যান। আর তার ছেলে তৌহিদ আহত হয়। 

পরে সন্ধ্যায় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তৌহিদের মৃত্যু হয়। 

নিহত সুমির ছোট ভাই আরাফাত হোসেন বলেন, “আমার আপাকে আমাদের বাড়িতে আসতে দিতো না দুলাভাই। প্রায় সময় আপাকে মারধর করতো দুলাভাই ও তার মা। মারধর করার কারণে আপা আত্মহত্যা করেছে। আমি এর সুষ্ঠু বিচার চাই।” 

সুমির বাবা আজিজুল ইসলাম বলেন, “মারধর, নির্যাতন ও পারিবারিক কলহ সহ্য করতে না পেরে আমার মেয়েটির আজ এই অবস্থা। তার হত্যাকারীদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেছি। আমি এর সুষ্ঠু বিচার চাই সরকারের কাছে। ” 

ওসি ফেরদৌস আলী জানান, পারিবারিক কলহ ও নির্যাতনের কারণে সুমি আত্মহত্যা করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। রাশেদুজ্জামানকে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে, অন্য আসামিকে ধরতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। 

আরও পড়ুন

Also Read: লালমনিরহাটে ট্রেনে কাটা পড়ে মা-মেয়ে নিহত

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক