শার্শায় এসএসসি পরীক্ষার্থীকে ‘ধর্ষণ’, গ্রেপ্তার ২

এ ঘটনায় পাঁচজনকে আসামি করে মামলা করেছেন মেয়েটির ভাই।

যশোর প্রতিনিধিও বেনাপোল প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 22 Sept 2022, 11:13 AM
Updated : 22 Sept 2022, 11:13 AM

যশোরের শার্শা উপজেলায় এসএসসি পরীক্ষার্থী এক কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

শার্শা থানার ওসি মামুন খান জানান, উপজেলার নিজামপুর গ্রামে বুধবার রাত ১১টার দিকে এ ঘটনায় মেয়েটির ভাই বাদি হয়ে পাঁচজনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন।

তার মধ্যে দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুরে তাদের আদালতে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেপ্তাররা হলেন- কন্দপপুর গ্রামের শাহাজান মল্লিকের ছেলে মো. হাসান (২৭) এবং মাসুদ রানা (২৬)। তাৎক্ষণিকভাবে মাসুদের বিস্তারিত পরিচয় জানা যায়নি।

আর ১৬ বছর বয়সী মেয়েটিকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য যশোর সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে শার্শা থানার এসআই সুমন সরকার জানিয়েছেন।

মেয়েটির বাবার বরাতে ওসি বলেন, মেয়েটির মা যশোরের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। বাড়িতে কেউ না থাকায় মেয়েটি তার বন্ধু হাসানকে মোবাইলে ফোন করে বাড়িতে আসতে বলে। পরে হাসান তার বন্ধু মাসুদকে সঙ্গে নিয়ে মেয়েটির বাড়িতে যায়। বাড়িতে তারা পাশাপাশি বসে গল্প করছিলো।

এ সময় কন্দপপুর গ্রামের জাহান আলীর ছেলে নাসিম হোসেন (২৮), নিজাম উদ্দিন চৌকিদারের ছেলে নুরুজ্জামান (২৭) ও মোহম্মদ ফটিকের ছেলে সাকিব হোসেনসহ (২৮) অজ্ঞাত পরিচয় আরও ২/৩ জন ছেলে তার বাড়িতে যায়। তারা হাসান ও মাসুদকে আটক করে ছবি তোলে এবং ভিডিও ধারণ করে।

“পরে নাসিম, নুরুজ্জামান ও সাকিব মেয়েটিকে ধর্ষণ করে বলে ওই কিশোরী জানিয়েছে।” বলেন এ পুলিশ কর্মকর্তা।

তিনি আরও বলেন, “সকালে এই তিনজন হাসান ও মাসুদকে আটক করে মেয়েটির বাবার কাছে নিয়ে যায় এবং বলে যে, এরা রাতে তোমাদের মেয়ের ঘরে এসেছিলো, আমরা ধরেছি। পরে গোড়পাড়া ক্যাম্পের পুলিশ গিয়ে স্থানীয়দের কাছ থেকে হাসান ও মাসুদকে আটক করে শার্শা থানায় নিয়ে যায়।”

এ ঘটনায় দায়ের করা মামলার বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে বলে জানান ওসি।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক