শীতে চুল থাকুক সুস্থ

তেল, শ্যাম্পু ও কন্ডিশনার ব্যবহারের পাশাপাশি চুল ভালো রাখতে পুষ্টিকর খাবারও প্রয়োজন।

তৃপ্তি গোমেজবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 19 Nov 2022, 12:50 PM
Updated : 19 Nov 2022, 12:50 PM

শীতকালে আবহাওয়া থাকে শুষ্ক। ফলে দেখা দেয় খুশকি আর চুল হয় মলিন।

এই মৌসুমে চুল সুস্থ ও সুন্দর রাখতে সঠিক পরিচর্যার প্রয়োজন।

তেলের বিকল্প নেই

শীতে চুলের মলিন ও রুক্ষ ভাব কমাতে সাধারণ ও কার্যকর কয়েকটি উপায় সম্পর্কে জানান, রেড বিউটি স্যালনের কর্ণধার আফরোজা পারভীন।

তিনি বলেন, “চুলের সুস্থতায় তেলের বিকল্প নেই। আর এই মৌসুমে চুলের রুক্ষভাব দূর করতে তেল ব্যবহার আবশ্যক। না হলে বাড়তে পারে খুশকির সমস্যা।”

সপ্তাহে তিনদিন তেল কুসুম গরম করে মাথার ত্বকে মালিশ করার পরামর্শ দেন আফরোজা।

রাসায়নিক বা সুগন্ধি তেলের পরিবর্তে প্রাকৃতিক যেমন- নারিকেল, জলপাই, ক্যাস্টর ও তিলের তেল ব্যবহার উপকারী বলে জানান তিনি।

“তেল কুসুম গরম করে কিছুটা সময় নিয়ে চুলে বিলি কেটে মাথার ত্বকের তেল মালিশ করতে হবে। সম্ভব হলে সারা রাত অথবা কমপক্ষে এক ঘন্টা অপেক্ষা করে শ্যাম্পু করে নিতে হবে। শ্যাম্পুর পরে চুলে কন্ডিশনার ব্যবহার জরুরি, এতে বাইরের শুষ্ক আবহাওয়া চুলের ক্ষতি করতে পারবেনা।” এভাবেই পরামর্শ দিলেন এই রূপবিশেষজ্ঞ।

শীতকালে চুলের নানান সমস্যার মধ্যে অন্যতম হল খুশকির সমস্যা। মাথার ত্বকের মৃত কোষ খুশকি রূপে দেখা দেয়। এই সমস্যা সমাধানে মাথার ত্বকের আর্দ্রতা রক্ষা করা জরুরি।

“চুলে নিয়মিত তেল দেওয়া ও অ্যান্টিড্যান্ড্রাফ শ্যাম্পু ব্যবহার খুশকির প্রবণতা কমায়। তেলের সঙ্গে লেবুর রস মিশিয়ে ২০ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেললে ভালো ফলাফল পাওয়া যায়,” বলেন আফরোজা।

চুল ঘন ঘন না আঁচড়ানো

আকাংঙ্ক্ষা’স গ্ল্যামারস ওয়ার্ল্ডের কর্ণধার ও অ্যারোমা থেরাপিস্ট জুলিয়া আজাদ শীতে চুলের সুস্থতায় নিয়মিত তেল, শ্যাম্পু ও কন্ডিশনার ব্যবহারের পাশাপাশি ঘন ঘন চুল না আঁচড়ানোর পরামর্শ দেন।

শুষ্ক বাতাসে ও চিরুনির ঘষায় চুল সহজে ভেঙে যায়। তাই অযথা বার বার চুল আঁচড়ানো ভালো না বলে মনে করেন তিনি।

এই সময়ে চুল নিয়ন্ত্রণে রাখতে সপ্তাহে অন্তত একদিন প্রাকৃতিক হেয়ার প্যাক ব্যবহারের পরামর্শ দেন তিনি।

জুলিয়া আজাদের ভাষায়, “টক দই, ডিম ও কাঠবাদামে তেলে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে ব্যবহার করলে চুল মসৃণ ও উজ্জ্বল হয়। এটা চুলের গোড়া শক্ত করতে ও মাথার ত্বক আর্দ্র রাখতেও সহায়তা করে।”

“এছাড়াও, আমলকী, মেথি ও মেহেদির গুঁড়া একসঙ্গে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে তাতে ডিমের সাদা অংশ, মধু ও কিছুটা জলপাইয়ের রস মিশিয়ে ব্যবহার করলে চুলের গোড়া শক্ত ও মসৃণ হয়,” বলেন তিনি।

চুলের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে ও আগা ফাটা কমাতে নিয়মিত চুল ছাটার পরামর্শ দেন জুলিয়া আজাদ।

দরকার পুষ্টিকর খাবার

“চুলের বাহ্যিক পরিচর্যা, একে বাইরে থেকে দেখতে সুন্দর করে। আর খাদ্যাভ্যাস ভেতর থেকে পুষ্টি যুগিয়ে চুল মজবুত করে। তাই ভিটামিন, খনিজ, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ খাবার যেমন- শাক সবজি, ফলমূল, বাদাম ইত্যাদি দৈনিক খাদ্য-তালিকায় যোগ করা উপকারী” বলেন রূপ বিশেষজ্ঞ আফরোজা পারভিন।

আরও পড়ুন

Also Read: প্রয়োজন বুঝে চুলের প্যাক

Also Read: যে খাবারে চুল পড়ে

Also Read: চুলের বৃদ্ধি ও সুস্থতায় মেহেদি

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক