লাল সিং চাড্ডা: যেভাবে বলিউডের ফরেস্ট গাম্প হলেন আমির খান

“দশ বছর ধরে ফরেস্ট গাম্পের মত লাল সিং চরিত্রের মধ্যেই ছিলেন আমির খান।”

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 10 August 2022, 03:38 PM
Updated : 10 August 2022, 03:38 PM

অস্কারজয়ী চলচ্চিত্র ফরেস্ট গাম্পের আদলে বলিউডে লাল সিং চাড্ডা নির্মাণের স্বত্ব নিশ্চিত করতেই এক দশক অপেক্ষা করেছেন বলিউড তারকা আমির খান।

টম হ্যাঙ্কস অভিনীত সেই ক্লাসিকের ভারতীয় রূপান্তরের কাজ শুরু হয় ২০১৮ সালে। দীর্ঘ অপেক্ষার পর বৃহস্পতিবার মুক্তি পাচ্ছে এ সিনেমা।

চিত্রনাট্যকার অতুল কুলকার্নি এবং পরিচালক অদ্বৈত চন্দনের সঙ্গে লাল সিং চাড্ডার কাজ শুরু করেন আমির খান। প্রযোজনার পাশাপাশি ও প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন তিনি।

আমির ও তার সঙ্গীদের ভাষ্য, মূল ফরেস্ট গাম্পের প্রতি ‘সম্মান রেখেই’ লাল সিং চাড্ডাকে চমকপ্রদ একটি নতুন আঙ্গিক তারা দিতে চেয়েছেন।

বিবিসি জানিয়েছে, প্রথমবার স্ক্রিপ্ট পড়ার সময় নির্মাতারা একটি কক্ষে কিছু চেয়ার সাজিয়ে ট্রেনের ভেতরের পরিবেশ তৈরি করেন।

পরিচালক চন্দন বিবিসিকে বলেন, “আমরা অভিনেতাদের চরিত্র অনুযায়ী যার যার জায়গায় বসিয়ে স্ক্রিপ্ট পড়া শুরু করি। আমির খান তার লাল চরিত্রের মধ্যে এতটাই মিশে যান, যে প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই সেটি মৌলিক একটি চরিত্র হয়ে ওঠে। তিনি যেন আসলেই লাল। আসলে ১০ বছর ধরে তিনি এই চরিত্রকে ধারণ করেছেন।”

ভারতে বেশ কয়েকটি হলিউডি, কোরিয়ান এবং ইউরোপীয় চলচ্চিত্রের রূপান্তর বা রিমেক করেছে। তবে নির্মাতা করণ জোহারের ভাষায়, লাল সিং চাড্ডা ‘বিশেষ কিছু’।

সম্প্রতি নিচের চ্যাট শো কফি উইথ করণে তিনি বলেন, ফরেস্ট গাম্পের মত ‘আইকনিক চলচ্চিত্রের’ রিমেক এর আগে বলিউডে হয়নি।

আর পরিচালক অদ্বৈত চন্দন বলছেন, তুমুল জনপ্রিয় কোনো গান অন্য কোনো গায়কের কণ্ঠে গাওয়ার বিষয়টি যেমন, তাদের লাল সিং চাড্ডাও হবে তেমন কিছু।

“যদিও ফরেস্ট গাম্প এককভাবে একটি আমেরিকান চলচ্চিত্র, তবে এর গল্প সার্বজনীন, সেখানে আমরা ভারতীয় ফ্লেভার আনতেই পারি।”

মূল চলচ্চিত্রে যেমন একজন সাদাসিধে ভালো মানুষ গাম্পকে ভিয়েতনাম যুদ্ধ, ওয়াটারগেইট কেলেঙ্কারির মত মার্কিন ইতিহাসের বড় বড় ঘটনার মধ্য দিয়ে পরিভ্রমণ করতে দেখা যায়, চাড্ডার জীবনও তাকে ২০ শতকের ভারতের সাংস্কৃতিক ও রাজনৈতিক বাঁক বদলের নানা ঘটনার মধ্যে দিয়ে নিয়ে যাবে।

লাল সিং চাড্ডা ভারতের প্রথম ক্রিকেট বিশ্বকাপ জয় এবং পাকিস্তানের সঙ্গে কার্গিল যুদ্ধের মত ঐতিহাসিক ঘটনাগুলো প্রত্যক্ষ করবেন। বলিউডের আর সব সিনেমার মত এ চলচ্চিত্রেও প্রচুর গান থাকবে।

সিনেমার পরিচালক চন্দন বলেন, “একটি সিনেমায় যদি গান না থাকে, তাহলে আমার কাছে সেটা ভারতীয় সিনেমা বলে মনেই হয় না। গানগুলো লালের আবেগ-অনুভুতি তুলে ধরবে, একই উদ্দীপনা জাগিয়ে তুলবে দর্শকের মনে।”

এ সিনেমায় ফরেস্ট গাম্পের মূল গল্পই দর্শক পাবে, তবে কিছু উপাদান অদল-বদল করে সেটা ‘ভারতীয়’ করে তোলা হয়েছে বলে জানালেন তিনি।

সিনেমার লাল সিং চাড্ডার ভূমিকায় আমির খান পাঞ্জাবের একজন যুবক; আর ফরেস্ট গাম্পের জেনির মত লাল সিংয়ের রূপার চরিত্রে অভিনয় করেছেন কারিনা কাপুর।

ট্রেইলারে দেখা যায়, দৌড়াতে থাকা লাল সিং চাড্ডাকে বাকিরা বলছে ‘রান লাল রান’; একইভাবে ফরেস্ট গাম্প চরিত্রে টম হ্যাঙ্কসকে দৌড়াতে বলা হয়েছিল, ‘রান ফরেস্ট রান’ বলে।

ফরেস্ট গাম্প গিয়েছিলেন ভিয়েতনাম যুদ্ধে; বীরদর্পে যুদ্ধ করেছিলেন। লাল সিং চাড্ডা সিনেমায় উঠে এসেছে নব্বয়ের দশকে কার্গিল যুদ্ধের গল্প।

যুক্তরাষ্ট্রের ঔপন্যাসিক উইনস্টন গ্রুমের ‘ফরেস্ট গাম্প’ অবলম্বনে হলিউডের সিনেমাটি পরিচালনা করেন রবার্টস জেমিকস; এ সিনেমায় অভিনয় করে অস্কার পেয়েছিলেন টম হ্যাংকস।

তার তিন দশক পর ২০১৮ সালে হিন্দি রিমেকের ঘোষণা দেন আমির খান; মাঝে করোনাভাইরাস মহামারী পেরিয়ে আলোর মুখ দেখছে ‘লাল সিং চাড্ডা’।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক