‘কুড়া পক্ষীর শূন্যে উড়া’ এবার চট্টগ্রাম ও নারায়াণগঞ্জে

ভিন্ন ধারার গল্প হওয়ায় হল মালিকরা তেমন আগ্রহ দেখায়নি। তবে স্টার সিনেপ্লেক্সে এক সপ্তাহে দর্শকের ভালো সাড়া পাওয়ার কথা জানান নির্মাতা।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 11 Nov 2022, 12:36 PM
Updated : 11 Nov 2022, 12:36 PM

টানা এক সপ্তাহ ঢাকায় প্রদর্শনের পর এবার চট্টগ্রামে দর্শকদের সামনে হাজির ‘কুড়া পক্ষীর শূন্যে উড়া’, এরপর যাবে নারায়াণগঞ্জে।

হাওর অঞ্চলের শ্রমজীবী মানুষের জীবন সংগ্রাম এবং সেখানকার সংস্কৃতির উপর ভিত্তি করে সিনেমাটি নির্মাণ করেছেন মুহাম্মদ কাইউম।

শুক্রবার থেকে চট্টগ্রামের কাজীর দেউড়ির সুগন্ধা সিনেমা হলে মুক্তি পেয়েছে সিনেমাটি। প্রতিদিন দুপুর ১২.৩০, বিকেল ৩.৩০ ও সন্ধ্যা ৬.৪০ মিনিটে প্রদর্শনী থাকছে।

সেখানে সপ্তাহজুড়ে ২১টি প্রদর্শনী হবে বলে বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানিয়েছেন নির্মাতা।

কাইউম জানান, পরের সপ্তাহে অর্থাৎ ১৮ নভেম্বর থেকে এক সপ্তাহ চলবে নারায়াণগঞ্জে। প্রতিদিন চারটি করে ওই সপ্তাহে ২৮টি প্রদর্শনী হবে সেখানে।

Also Read: ‘কুড়া পক্ষীর শূন্যে উড়া’ অবশেষে পেল ওড়ার অবলম্বন

সিনেমাটি দর্শকের কাছে সাড়া পাচ্ছে দেখে ভালো লাগার কথা জানিয়ে তিনি বলেন, “ভিন্ন ধারার গল্প বলে হল মালিকরা সিনেমাটি নেওয়ার আগ্রহ দেখায়নি। এটা প্রচলিত নাচ-গানে ভরপুর সিনেমা নয়। স্টার সিনেপ্লেক্সে এক সপ্তাহে দর্শকের ভালো সাড়া পেয়েছি। এবার চট্টগ্রাম ও নারায়ণগঞ্জেও মুক্তি পাচ্ছে।”

সিনেমাটির বিশেষত্ব কী- প্রশ্নে পরিচালক বলেন, দেশ ও সমাজের ভিত্তিমূলে যে শ্রমজীবী মানুষ, তাদের জীবন সংগ্রামের কথা নাটকীয় দৃশ্যরূপে তুলে ধরার চেষ্টা করা হয়েছে। গত তিন বছর ধরে হাওরের দুর্গম এলাকায় শুটিং হয়েছে এই সিনেমার।

‘কুড়া পক্ষীর শূন্যে উড়া’ সিনেমায় অভিনয় করেছেন জয়িতা মহলানবীশ, উজ্জ্বল কবির হিমু, সুমী ইসলাম, সামিয়া আকতার বৃষ্টি, বাদল শহীদ, মাহমুদ আলম ও আবুল কালাম আজাদ।

নির্মাতার ভাষ্য, এ সিনেমায় প্রথাগত তারকা খ্যাতির কেউ না থাকলেও যারা অভিনয় করেছেন তারা থিয়েটারে অভিনয় শিখেছেন এবং তাদের অভিনয় পরীক্ষিত।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক