রাজ-পরীর শাবকেরা পেল নদীর নামে নাম

চট্টগ্রাম চিড়িয়াখানায় রাজ-পরী ঘরে চারটি সাদা বাঘ শাবকের জন্ম হয় শনিবার।

চট্টগ্রাম ব্যুরোবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 1 August 2022, 09:37 AM
Updated : 1 August 2022, 09:37 AM

নদীর নামে নাম পাচ্ছে চট্টগ্রাম চিড়িয়াখানায় জন্ম নেওয়া চারটি সাদা বাঘ শাবক।

চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষ জানায়, বাঘ দম্পতি রাজ-পরীর ছানাদের ডাকা হবে পদ্মা, মেঘনা, সাঙ্গু ও হালদা নামে।

চিড়িয়াখানা পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি, চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মো. মোমিনুর রহমান সোমবার বাঘ শাবকদের দেখে এক সংবাদ সম্মেলনে এই নামকরণের কথা জানান।

চিড়িয়াখানার রাজ-পরী ঘরে এ চারটি সাদা বাঘ শাবকের জন্ম হয় শনিবার। জন্মানোর দুদিনের মধ্যে নাম পেল তারা।

কর্তৃপক্ষ জানায়, নতুন চারটি নিয়ে চিড়িয়াখানায় বাঘের সংখ্যা দাঁড়ায় ১৬টিতে, যার মধ্যে পাঁচটি সাদা।

Also Read: রাজ-পরীর ঘরে একসঙ্গে ৪ অতিথি

চট্টগ্রাম চিড়িয়াখানার ভারপ্রাপ্ত ডেপুটি কিউরেটর ও চিকিৎসক শাহাদাত হোসেন শুভ বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “শাবকগুলো এখনও মায়ের সাথে আছে। তাই তাদের লিঙ্গ নির্ধারণ করা সম্ভব হয়নি। “

তিনি বলেন, “ক্যাপটিভ ব্রিডিংয়ের (চিড়িয়াখানা অথবা সাফারি পার্কে বাচ্চা দেওয়া) একটি সমস্যা হল জন্মের পর বাচ্চাকে মা দুধ খাওয়ায় না। তবে গতকাল জন্ম নেওয়া শাবকগুলোকে তাদের মা দুধ খাওয়াচ্ছে।”

এর আগে মায়ের কাছ থেকে দুধ না পাওয়ায় দুটি বাঘের ছানাকে খাঁচার বাইরে এনে বড় করা হয়েছিল বলে জানান চিড়িয়াখানার এই কর্মকর্তা।

ক্লোজড সার্কিট (সিসি) ক্যামেরার মাধ্যমে খাঁচায় শাবকগুলোর ওপর নজর রাখা হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

দীর্ঘদিন বাঘহীন থাকার পর ২০১৬ সালের ৯ ডিসেম্বর দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে ১১ ও ৯ মাস বয়েসী একটি বাঘ ও বাঘিনী আনা হয় চট্টগ্রাম চিড়িয়াখানায়।

২০১৮ সালের ১৯ জুলাই বাঘ দম্পতি জন্ম দেয় তিনটি সন্তানের। এর মধ্যে একটি ছানা পরদিন মারা যায়।

বেঁচে থাকা দুটির মধ্যে একটি কমলা-কালো ডোরা কাটা, অন্য সাদা-কালো। শুভ্রা নামের সাদা-কালো বাঘটিই দেশের প্রথম সাদা বাঘ বলা হয়।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক