বাংলাদেশের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজে নেই নিসাঙ্কা

দুই বছর পর এই সংস্করণে খেলার হাতছানি লেগ স্পিনার জেফ্রি ভ্যান্ডারসের সামনে।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 28 Feb 2024, 01:00 PM
Updated : 28 Feb 2024, 01:00 PM

হ্যামস্টিংয়ের চোট থেকে এখনও সেরে ওঠেননি পাথুম নিসাঙ্কা। বাংলাদেশের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজে এই ওপেনারকে তাই পাচ্ছে না শ্রীলঙ্কা। দলে ফিরেছেন জেফ্রি ভ্যান্ডারসে। দুই বছর পর এই সংস্করণে খেলার হাতছানি ৩৪ বছর বয়সী এই লেগ স্পিনারের সামনে।

বাংলাদেশ সফরে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের জন্য বুধবার ১৭ সদস্যের দল দিয়েছে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট (এসএলসি)। ফিরেছেন ব্যাটসম্যান আভিশকা ফার্নান্দোও।

কিছুদিন আগে আফগানিস্তানের বিপক্ষে খেলা টি-টোয়েন্টি সিরিজের দল থেকে পরিবর্তন এই দুটিই। দেশের মাটিতে ওই সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ম্যাচে ২১ ফেব্রুয়ারি ব্যাটিংয়ের সময় পায়ে টান লাগায় মাঠ ছাড়েন নিসাঙ্কা। তখন ৩০ বলে ৬০ রান করে খেলছিলেন তিনি।

তার আগে আফগানদের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ স্বপ্নের মতো কাটে নিসাঙ্কার। প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কার প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে এই সংস্করণে ডাবল সেঞ্চুরির কীর্তি গড়েন তিনি। তৃতীয় ম্যাচে উপহার দেন সেঞ্চুরি।

বাংলাদেশের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টিতে ২৫ বছর বয়সী এই ব্যাটসম্যানকে না পাওয়াটা শ্রীলঙ্কার জন্য তাই বড় ধাক্কা।

নিসাঙ্কার জায়গায় সুযোগ পেয়েছেন আরেক ওপেনার আভিশকা। শ্রীলঙ্কার হয়ে ৩৩ টি-টোয়েন্টির সবশেষটি তিনি খেলেছেন গত বছরের জানুয়ারিতে।

ভ্যান্ডারসে এখন পর্যন্ত দেশের হয়ে এই সংস্করণে ১৪ ম্যাচ খেলে উইকেট নিয়েছেন ৭টি। সবশেষ তিনি খেলেছেন ২০২২ সালের ফেব্রুয়ারিতে।

নিষেধাজ্ঞার কারণে বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রথম দুই ম্যাচে খেলতে পারবেন না শ্রীলঙ্কার অধিনায়ক ও লেগ স্পিনিং অলরাউন্ডার ভানিন্দু হাসারাঙ্গা। তার জায়গায় একাদশে জায়গা পাওয়ার লড়াইয়ে থাকবেন ভ্যান্ডারসে।

হাসারাঙ্গার অনুপস্থিতিতে প্রথম দুই ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে নেতৃত্ব দেবেন সহ-অধিনায়ক চারিথ আসালাঙ্কা।

টি-টোয়েন্টি ম্যাচগুলো হবে আগামী ৪, ৬ ও ৯ মার্চ। সবগুলো ম্যাচই হবে সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।

এই সফরে পরে তিনটি ওয়ানডে ও দুটি টেস্ট খেলবে শ্রীলঙ্কা।

শ্রীলঙ্কা টি-টোয়েন্টি দল: ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা (অধিনায়ক), চারিথ আসালাঙ্কা, কুসাল মেন্ডিস, আভিশকা ফার্নান্দো, ধানাঞ্জয়া ডি সিলভা, কুসাল পেরেরা, অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস, দাসুন শানাকা, সাদিরা সামারাউইক্রামা, কামিন্দু মেন্ডিস, মাহিশ থিকশানা, আকিলা দানাঞ্জয়া, জেফ্রি ভ্যান্ডারসে, মাথিশা পাথিরানা, দিলশান মাদুশানকা, নুয়ান থুসারা, বিনুরা ফার্নান্দো।