কিশোরগঞ্জের আফজাল কোন ক্ষমতায় এমপি পদে, হাই কোর্টের রুল

নির্বাচনি হলফনামায় মামলার তথ্য গোপনের অভিযোগে রিট করেন ওই মামলার বাদী এবং এলাকার দুই ভোটার।

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 6 Feb 2024, 10:54 AM
Updated : 6 Feb 2024, 10:54 AM

কিশোরগঞ্জ-৫ (বাজিতপুর-নিকলী) আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়নে নির্বাচিত সংসদ সদস্য মো. আফজাল হোসেন কোন কর্তৃত্ব বলে ওই পদে বহাল রয়েছেন, তা জানতে চেয়েছে হাই কোর্ট।

তথ্য গোপনের অভিযোগে করা একটি রিটের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে মঙ্গলবার বিচারপতি মোস্তফা জামান ইসলাম ও বিচারপতি আতাবুল্লার বেঞ্চ এ বিষয়ে রুল জারি করে।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার, নির্বাচন কমিশন, আইন মন্ত্রণালয় ও মন্ত্রিপরিষদ সচিবসহ সংশ্লিষ্টদের চার সপ্তাহের মধ্যে রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

রিট আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী এ বি এম সিদ্দিকুর রহমান খান। সঙ্গে ছিলেন মো. শমসের মবিন তিয়াস।

শমসের মবিন বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, নির্বাচনি হলফনামায় ফৌজদারি মামলার তথ্য গোপনের অভিযোগে আফজাল হোসেনের বিরুদ্ধে রিট আবেদন করেন ওই মামলার বাদী এবং এলাকার আরও দুই ভোটার।

“রুলে কোন ক্ষমতাবলে তিনি সংসদ সদস্য পদে বহাল রয়েছেন তা জানতে চেয়েছেন আদালত।“

আইনজীবী শমসের মবিন তিয়াস আরও বলেন, আফজাল হোসেন নির্বাচনী হলফনামায় একটি মামলায় বেকসুর খালাসের কথা উল্লেখ করলেও তার বিরুদ্ধে একাধিক ফৌজদারি মামলা চলমান আছে, যা তিনি গোপন করেছেন।

“তাই আমরা তার সংসদ সদস্য পদ চ্যালেঞ্জ করে আবেদন করেছিলাম। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ৪ ফেব্রুয়ারি শুনানি শেষ করে ৬ ফেব্রুয়ারি আদেশের জন্য রাখেন।”