নামিবিয়ার প্রেসিডেন্ট হাইগে গাংগবের মৃত্যু

গাংগবের নেতৃত্বে একটি কমিটি স্বাধীন নামিবিয়ার সংবিধান রচনা করে।

রয়টার্স
Published : 4 Feb 2024, 06:38 AM
Updated : 4 Feb 2024, 06:38 AM

ক্যান্সার আক্রান্ত নামিবিয়ার প্রেসিডেন্ট হাইগে গাংগব মারা গেছেন। রোববার ভোরে একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। তার বয়স হয়েছিল ৮২ বছর।

প্রেসিডেন্টের কার্যালয় থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এক্স (সাবেক টুইটার) এ পোস্টে গাংগবের মৃত্যুর খবর জানানো হয়। যদিও তার মৃত্যুর কারণ জানানো হয়নি।

তবে গত ১ ফেব্রয়ারি এক্স এ প্রেসিডেন্ট কার্যালয় থেকে করা এক পোস্টে বলা হয়েছিল, “দুই দিন ক্যান্সারের চিকিৎসা শেষে ৩১ জানুয়ারি বুধবার যুক্তরাষ্ট্র থেকে দেশে ফিরেছেন প্রেসিডেন্ট গাংগব। রাজধানী উইন্ডহোকে একটি হাসপাতালে তিনি ভর্তি আছেন।”

তিন সপ্তাহের কম সময় আগে নামিবিয়ার প্রেসিডেন্টের কার্যালয় থেকে গাংগবের ক্যান্সার আক্রান্ত হওয়ার খবর প্রকাশ করা হয়।

২০১৫ সাল থেকে আফ্রিকার দেশ নামিবিয়ার প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন গাংগব।

গাংগবের মৃত্যুতে ভাইস প্রেসিডেন্ট নানগোলো এমবামবা ভারপ্রাপ্ত প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন। এ বছরের শেষে নামিবিয়ায় প্রেসিডেন্ট এবং পার্লামেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

খনিসমৃদ্ধ দেশ নামিবিয়া হীরা ও বৈদ্যুতিক গাড়ির ব্যাটারি তৈরি প্রধান উপাদান লিথিয়ামের জন্য বিখ্যাত।

গাংগবের জন্ম ১৯৪১ সালে। ১৯৯০ সালে দক্ষিণ আফ্রিকার শাসন থেকে নামিবিয়া স্বাধীনতা লাভের আগেই সেখানে নামকরা রাজনীতিকে পরিণত হয়েছিলেন গাংগব।

গাংগবের নেতৃত্বেই একটি কমিটি নামিবিয়ার সংবিধান রচনা করে। তিনি স্বাধীন নামিবিয়ার প্রথম প্রধানমন্ত্রী ছিলেন। যে দায়িত্ব তিনি ২০০২ সাল পর্যন্ত পালন করেন।

২০০৭ সালে গাংগব সাউথ ওয়েস্ট আফ্রিকা পিপুলস অর্গানাইজেশন (এসডব্লিউএপিও) এর ভাইস প্রেসিডেন্ট হন। তখনও নামিবিয়ার নাম ছিল সাউথ ওয়েস্ট আফ্রিকা।

সাবেক জার্মান উপনিবেশ নামিবিয়া কাগজেকলমে একটি উচ্চ মধ্যবিত্ত দেশ। কিন্তু দেশটিতে সম্পদের বৈষম্য প্রকট।

২০১৪ সালে ৮৭ শতাংশ ভোট জিতে নামিবিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছিলেন গাংগব। তবে ২০১৯ সালের নির্বাচনে তিনি সামান্য ভোটের ব্যবধানে জেতেন।