‘বিশেষ ছয়শ অ্যাপ আছে ভিশন প্রো হেডসেটে’: অ্যাপল

অ্যাপলের ঘোষণায় প্রাধান্য পাওয়া অ্যাপগুলোর বেশিরভাগই ছিল বিনোদন কেন্দ্রিক। যেমন ‘ডিজনি+’ ও ‘এইচবিও ম্যাক্স’-এর মতো স্ট্রিমিং পরিষেবা।

প্রযুক্তি ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 3 Feb 2024, 11:08 AM
Updated : 3 Feb 2024, 11:08 AM

অ্যাপ নির্মাতারা ভার্চুয়াল রিয়ালিটি হেডসেটের জন্য ছয়শর বেশি বিশেষায়িত অ্যাপ ও গেইম তৈরি করেছে বলে জানিয়েছে অ্যাপল।

২ ফেব্রুয়ারি ভিশন প্রো’র বিক্রি শুরু করেছে অ্যাপল। সিইও টিম কুক প্রথা অনুযায়ী অ্যাপল স্টোরে ক্রেতাদের স্বাগত জানিয়েছেন - এ নিয়ে প্রতিবেদনও প্রকাশ করেছে সংবাদমাধ্যমগুলো।

তবে, উন্মোচনের পাশাপাশি ডিভাইসটি নিয়ে সবচেয়ে বড় প্রশ্নটি হল, আসলে কতগুলো অ্যাপ চলবে ভিশন প্রো’র ভিআর সিস্টেমে?

নেটফ্লিক্স ও ইউটিউবের মতো বেশ কিছু বড় অ্যাপের নির্মাতা কোম্পানি এরইমধ্যে ভিশন প্রো’র জন্য আলাদা অ্যাপ না আনার বিষয়টি পরিষ্কার করেছে। এর ফলে, ব্যবহারকারীদের হেডসেটের বিল্ট-ইন ব্রাউজারের মাধ্যমে এসব সেবা ব্যবহার করতে হবে।

তবে, অ্যাপল বলেছে উন্মোচনের দিনকেই ৬০০টি ভিশন প্রো’র অ্যাপ প্রকাশের দিন হিসেবে বেছে নিয়েছেন এসব অ্যাপের নির্মাতারা। উন্মোচনের দিনেই ১০ লাখেরও বেশি অ্যাপ ডাউনলোড করা গেলেও এর মধ্যে বেশিরভাগই আগে থেকেই আইপ্যাডেও ছিল। এ অ্যাপগুলো নির্মাতারা ভিআর হেডসেটের জন্য খানিকটা বদলে নিয়েছেন।

এই ৬০০ অ্যাপ অবশ্য বিশেষভাবে ভিশন প্রো প্ল্যাটফর্মের জন্যই করা হয়েছে বলে প্রতিবেদনে লিখেছে ইন্ডিপেন্ডেন্ট। এর মানে হল, এটি ভিশন প্রো’র ‘পর্দার’ সঙ্গে মানিয়ে নেবে, হাত ও কণ্ঠস্বরের ইনপুটগুলো সম্পূর্ণ ব্যবহার করতে পারবে, সেইসঙ্গে জায়গাজুড়ে দেখা যাবে এগুলো।

আইপ্যাড অ্যাপগুলো হেডসেটের মধ্যে কেবল আয়তাকার হিসাবে দেখা যাবে, অনেকটা ট্যাবলেটের একটি ভার্চুয়াল সংস্করণের মতো।

অ্যাপলের ঘোষণায় প্রাধান্য পাওয়া অ্যাপগুলোর বেশিরভাগই ছিল বিনোদনকেন্দ্রিক যার মধ্যে রয়েছে ‘ডিজনি+’ ও ‘এইচবিও ম্যাক্স’-এর মতো স্ট্রিমিং পরিষেবা। এসব অ্যাপে ‘ইমার্সিভ পার্টস’ রয়েছে যার মাধ্যমে একজন ব্যবহারকারী কনটেন্টের সম্পূর্ণ থ্রিডি অভিজ্ঞতা পেতে পারেন। উদাহরণ হিসেবে, বিখ্যাত অ্যামেরিকান ফ্যান্টাসি সিরিজ ‘গেইম অফ থ্রোনস’-এর ‘আয়রন থ্রোম রুমে’র ভার্চুয়াল সংস্করণে বসেই সিরিজটি উপভোগ করতে পারবনে ব্যবহারকারীরা।

এ ছাড়া, অ্যাপল বিভিন্ন কাজের অ্যাপের পাশাপাশি ‘সুপার ফ্রুট নিঞ্জা’সহ বেশ কিছু গেইমিং অ্যাপের কথাও উল্লেখ করেছে।