ফেদেরারের সেরা ‘দশ’

টেনিস মহাতারকার দুই যুগের দীর্ঘ ক্যারিয়ারের সেরা কিছু মুহূর্ত।

স্পোর্টস ডেস্ক
Published : 16 Sept 2022, 02:42 PM
Updated : 16 Sept 2022, 02:42 PM

দুই যুগের দীর্ঘ ক্যারিয়ার। রজার ফেদেরার খেলেছেন দেড় হাজারের বেশি ম্যাচ। উপহার দিয়েছেন জাদুকরী কত মুহূর্ত। কত লড়াই আচ্ছন্ন করে রেখেছে ভক্তদের। এর কিছু জায়গা পেয়ে গেছে টেনিসের গল্পগাঁথায়।  

বয়স হয়ে গেছে ৪১, চোটও ভোগাচ্ছে খুব। সব কিছু মিলিয়ে লেভার কাপ দিয়ে পেশাদার টেনিসকে বিদায় দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন ফেদেরার। বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমের পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হল ২০ বারের গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী এই মহাতারকার ক্যারিয়ারের সেরা ম্যাচগুলোর দশটি: 

উইম্বলডনে পিট সাম্প্রাসের বিপক্ষে জয়  

২ জুলাই, ২০০১। উইম্বলডনের চতুর্থ রাউন্ডে সে সময়ের বিশ্বের এক নম্বর খেলোয়াড় পিট সাম্প্রাসের সামনে দাঁড়িয়ে ১৯ বছর বয়সী ফেদেরার। 

২৯ বছর বয়সী সাম্প্রাসের টানা পঞ্চম শিরোপা জয় তখন অনেকটাই প্রত্যাশিত। নিজের সামর্থ্য ঘোষণার জন্য এই ম্যাচকেই যেন বেছে নিলেন ফেদেরার। টেনিস বিশ্বকে চমকে দিয়ে থামিয়ে দিলেন সাম্প্রাসের টানা ৩১ ম্যাচের জয়যাত্রা।     

এক সময়ের আইডলকে ৭-৬ (৭), ৫-৭, ৬-৪, ৬-৭ (২), ৭-৫ গেমে হারিয়ে দেন ফেদেরার। এই হারের আগে আট বছরের মধ্যে অল ইংল্যান্ড ক্লাবে কেবল একটি ম্যাচ হেরেছিলেন সাম্প্রাস। 

মার্ক ফিলিপোসিসের বিপক্ষে উইম্বলডন ফাইনাল  

গ্র্যান্ড স্ল্যাম শিরোপার জন্য ফেদেরারের অপেক্ষা ফুরায় ২০০৩ সালে। অস্ট্রেলিয়ার দীর্ঘদেহী মার্ক ফিলিপোসিসকে হারিয়ে সুইজারল্যান্ডের প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে উম্বলডন পুরুষ এককে শিরোপা জেতেন তিনি। 

ফাইনালে ৭-৬, ৬-২, ৭-৬ গেমে ফিলিপোসিসকে হারিয়ে দেন ফেদেরার। 

লেটন হেউইটের বিপক্ষে ইউএস ওপেন ফাইনাল 

২০০৪ সালের ইউএস ওপেনে ফেদেরার অংশ নেন দারুণ ছন্দে থেকে। খেলতে আসেন অস্ট্রেলিয়ান ওপেন ও উইম্বলডন জিতে। সেই ধারা অব্যাহত রেখে ইউএস ওপেনের ফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার লেটন হেউইটকে ৬-০, ৭-৬ (৩), ৬-০ গেমে উড়িয়ে দেন ফেদেরার। জিতে নেন এক মৌসুমে তিনটি মেজর শিরোপা। 

ফেদেরারের আগে এই কীর্তি গড়েছিলেন সুইডেনের মাৎস ভিলান্দের (১৯৮৮ সালে)। 

রাফায়েল নাদালের বিপক্ষে উইম্বলডন ফাইনাল 

টেনিসের কোর্টে ইতিহাসের সেরা দ্বৈরথগুলোর একটি হলো ফেদেরার ও রাফায়েল নাদালের লড়াই। সময়ের পরিক্রমায় এই দুজন উপহার দিয়েছেন বেশ কয়েকটি স্মরণীয় ম্যাচের। যার প্রথমটা ছিল ২০০৮ সালের উইম্বলডনে। 

টানা পাঁচটি উইম্বলডন জেতা ফেদেরার সেবারের ফাইনালেও দারুণ খেলেছিলেন। দুই দফা বৃষ্টির বাগড়ায় বন্ধ হওয়া ম্যাচটিতে খেলা হয় প্রায় পাঁচ ঘণ্টা! ম্যারাথন লড়াইয়ে ৬-৪, ৬-৪, ৬-৭ (৫), ৬-৭ (৮), ৯-৭ গেমে জিতে ফেদেরারের রাজত্বের ইতি টানেন নাদাল।    

এই ম্যাচ দিয়েই উইম্বলডনে ৬৫ ম্যাচ পর হারের স্বাদ পেয়েছিলেন ফেদেরার। 

রাফায়েল নাদালের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ান ওপেন ফাইনাল 

পরের বছরও ধ্রুপদী লড়াই উপহার দেন ফেদেরার ও নাদাল। সেই সময়ের রেকর্ড ১৪তম গ্র্যান্ড শিরোপা স্পর্শের হাতছানিতে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের ফাইনালে উঠেন ফেদেরার। সামনে ছিলেন আগের বছর উইম্বলডনে তার স্বপ্ন ভাঙা নাদাল।  

রোমাঞ্চ ছড়ানো সেই ম্যাচে দুইজনই যেন না হারার পণ করেছিলেন। শ্বাসরুদ্ধকর লড়াইয়ে মেলবোর্নের হার্ডকোর্টে ৭-৫, ৩-৬, ৭-৬ (৩), ৩-৬, ৬-২ গেমে জেতেন নাদাল। 

ফরাসি ওপেন ফাইনালে রবিন সরাদলিংয়ের বিপক্ষে জয় 

রোলাঁ গাঁরোয় প্রথম শিরোপা জেতার পথে বার বার ফেদেরার আটকে যাচ্ছিলেন নাদালের সামনে। আগের তিন আসরে স্প্যানিশ টেনিস তারকার কাছেই হার মানতে হয়েছিল তাকে। 

তবে ২০০৯ আসরে সুইডেনের রবিন সদারলিংয়ের কাছে চতুর্থ রাউন্ডে হেরে বিদায় নেন নাদাল। 

ফাইনালে সেই সদারলিংকে ৬-১, ৭-৬ (১), ৬-৪ গেমে হারিয়ে ফরাসি ওপেন চ্যাম্পিয়ন হন ফেদেরার। স্পর্শ করেন সাম্প্রাসের ১৪টি মেজর শিরোপা জেতার কীর্তি। সঙ্গে ষষ্ঠ খেলোয়াড় হিসেবে ক্যারিয়ারে চার গ্র্যান্ড স্ল্যামের সবগুলো (ক্যারিয়ার গ্র্যান্ড স্ল্যাম) জয়ের কীর্তি গড়েন তিনি। 

নোভাক জোকোভিচের বিপক্ষে উইম্বলডন ফাইনাল 

২০১৪ সালে রেকর্ড অষ্টম উইম্বলডন শিরোপা জেতার দিকে চোখ রেখে ভালোভাবেই এগিয়ে যাচ্ছিলেন ফেদেরার। তবে প্রতিযোগিতার ইতিহাসে সেরা ফাইনালের একটিতে তাকে থমকে দেন নোভাক জোকোভিচ। 

দুই টেনিস তারকার সেই লড়াইয়ে শেষ পর্যন্ত লড়ে গিয়েছিলেন ফেদেরার। তবে তাকে হতাশ করে ৬-৭ (৭), ৬-৪, ৭-৬ (৪), ৫-৭ ও ৬-৪ গেমে জেতেন সার্বিয়ান তারকা।

নাদালের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ান ওপেন ফাইনাল                       

২০১৭ সালে আবারও ফেদেরার-নাদাল লড়াই। চোটের কারণে ছয় মাস বাইরে থাকার পর ফিরে ফেদেরার জিতে নেন সাড়ে চার বছরের মধ্যে তার প্রথম গ্র্যান্ড স্ল্যাম শিরোপা। 

তবে তার কাজটা ভীষণ কঠিন করে তুলেছিলেন নাদাল। দুর্দান্ত লড়াইয়ের পর ৬-৪, ৩-৬, ৬-১, ৩-৬, ৬-৩ গেমে ম্যাচটি জিতে নেন ফেদেরার। 

৩৫ বছর বয়সে এই শিরোপা জেতার মধ্য দিয়ে সবচেয়ে বেশি বয়সে মেজর শিরোপা জেতার তালিকায় দুইয়ে উঠে আসেন ফেদেরার। রেকর্ড অস্ট্রেলিয়ার কেন রোজওয়ালের, ১৯৭২ সালে ৩৭ বছর বয়সে শিরোপা জিতেছিলেন তিনি। 

মারিন চিলিচের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ান ওপেন ফাইনাল 

আগের বছর উম্বলডনের পর ২০১৮ সালে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনেও ফাইনালে ক্রোয়েশিয়ার মারিন চিলিচকে হারান ফেদেরার। 

৬-২, ৬-৭, ৬-৩, ৩-৬, ৬-১ গেমে জিতে এই প্রতিযোগিতায় নিজের ষষ্ঠ শিরোপা জেতেন ফেদেরার। এর মধ্য দিয়ে মার্গারেট কোর্ট, সেরেনা উইলিয়ামস ও স্টেফি গ্রাফের পর চতুর্থ খেলোয়াড় হিসেবে ২০টি বা এর বেশি গ্র্যান্ড স্ল্যাম একক জেতার কীর্তি গড়েন ফেদেরার। 

নোভাক জোকোভিচের বিপক্ষে উইম্বলডন ফাইনাল 

২০১৯ সালে উইম্বলডনের ইতিহাসে দীর্ঘতম একক ফাইনালে মুখোমুখি হয়েছিলেন ফেদেরার ও জোকোভিচ। মহারনে দুইজনই শিরোপা জেতার জন্য নিজেদের শেষটা নিংড়ে দিয়েছিলেন। 

সার্ভে দুটি চ্যাম্পিয়নশিপ পয়েন্ট থাকার পরও সেবার পারেননি ফেদেরার। ৭-৬ (৫), ১-৬, ৭-৬ (৪), ৪-৬, ১৩-১২ (৩) গেমে তাকে হারিয়ে দেন জোকোভিচ। এটিই ফেদেরারের শেষ গ্র্যান্ড স্লাম ফাইনাল।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক