শরীয়তপুরে পাসপোর্ট করাতে আসা নারী রোহিঙ্গা সন্দেহে কারাগারে

ওসি বলেন, “থানায় এনে ওই নারীকে লিখতে দেওয়া হলে তিনি উর্দুতে কিছু কথা লিখে দিয়েছেন। বাংলা পুরো বলতে এবং লিখতে পারেননি।”

শরীয়তপুর প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 30 Jan 2024, 03:37 AM
Updated : 30 Jan 2024, 03:37 AM

শরীয়তপুরে পাসপোর্ট করাতে আসা এক নারীকে রোহিঙ্গা সন্দেহে পুলিশে দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

সোমবার পালং মডেল থানার ওসি মেজবাহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, রোববার বিকালে আঞ্চলিক কার্যালয়ে আছিয়া বিবি নামে এক নারী পাসপোর্ট করাতে এলে কর্তৃপক্ষের সন্দেহ হয়। তখন তারা তাকে আটক করে পুলিশে দেয়।

সোমবার বিকালে তার বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে জানান ওসি।

২৫ বছর বয়সী ওই নারীর জন্মনিবন্ধনের কাগজ মৌলভীবাজারের। সেখানে তার বাবার নাম আলী জোহার, মা আম্বিয়া খাতুন এবং বাড়ি কক্সবাজারের টেকনাফে বলে উল্লেখ করা হয়েছে। তবে তিনি পাসপোর্টের আবেদনে নড়িয়া উপজেলার ঠিকানা ব্যবহার করেছিলেন।

শরীয়তপুর আঞ্চলিক পাসপোর্ট কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক নাজমুল ইসলাম বলেন, “ওই নারী উর্দু ও বাংলা মিশ্রিত ভাষায় কথা বলছিলেন। সন্দেহ হলে তাকে পুলিশে দেওয়া হয়।”

পালং মডেল থানার ওসি মেজবাহ আরও বলেন, “থানায় এনে ওই নারীকে লিখতে দেওয়া হলে তিনি উর্দুতে কিছু কথা লিখে দিয়েছেন। বাংলা পুরো বলতে এবং লিখতে পারেননি। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, তিনি রোহিঙ্গা।”

[প্রতিবেদনটি প্রথম প্রকাশিত হয়েছিল ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩ তারিখে: ফেইসবুক লিংক]