দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদের আন্দোলনে গুলি করছে ’কোটিপতির সরকার’: নজরুল

“জিনিসপত্রের দাম এতই বেড়েছে যে, হালাল উপার্জনে চলার অবস্থা নাই,” বলেন তিনি।

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 Sept 2022, 04:48 PM
Updated : 23 Sept 2022, 04:48 PM

দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদের আন্দোলনে গুলি করা হচ্ছে দাবি করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান অভিযোগ করেছেন, কষ্টের প্রতিবাদ করায় মানুষকে মেরে ফেলা হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার বিকালে মোহাম্মদপুরের বসিলায় এক সমাবেশে তিনি এমন অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, “আন্দোলন করতে গিয়ে আমার ভাই ভোলার নুরে আলম, আব্দুর রহিম, নারায়ণগঞ্জের শাওন... গতকাল (বৃহস্পতিবার) মারা গেল মুন্সিগঞ্জের আরেক ভাই শাওন। যশোরে আন্দোলনে তাদের আক্রমণে আহত হয়ে আব্দুল আলিম গত কয়েকদিন আগে মারা গেছে।

“আপনি খাবার দিতে পারবেন না, আপনি চাকরি দিতে পারবেন না...মানুষ তার কষ্টের প্রতিবাদ জানাবে আর আপনি (সরকার) গুলি করে মেরে ফেলবেন।“

বর্তমান সরকার জনগণের নয় মন্তব্য করে তিনি বলেন, ”আপনারা কয়েক হাজার নতুন কোটিপতির সরকার, আপনারা চার কোটি নতুন দরিদ্র মানুষের সরকার নন। আমরা ওই চার কোটি দরিদ্র মানুষের কথা বলছি এবং তাদেরকে সঙ্গে নিয়ে আমরা লড়ছি।”

দ্রব্যমূল্য পরিস্থিতি তুলে ধরে এই বিএনপি নেতা বলেন, “জিনিসপত্রের দাম এতই বেড়েছে যে, বাংলাদেশে যারা হালাল উপার্জন করে তাদের আর চলার অবস্থা নাই, তাদের সন্তানদের লেখাপড়া বন্ধ হয়ে যাচ্ছে, তাদের ছেলে-মেয়ের মুখে খাবার দিতে পারে না, চিকিৎসা করতে পারে না, কারণ ওষুধের দামও বাড়িয়ে দিয়েছে।

“এর প্রতিবাদে আন্দোলন-সংগ্রামে যখন মানুষ রাস্তায় নামছে, পুলিশ গুলি করছে। আমাদের সহকর্মীদের খুন করা হচ্ছে। তাতে কি বিএনপির জনসভা বা আন্দোলনে লোক কম হচ্ছে? কমে নাই। এটাই আন্দোলনের ইতিহাস। জোর-জবরদস্তি করে ক্ষমতায় টিকে থাকা যায় না। আপনারাও পারবেন না।”

চলমান আন্দোলনে বিএনপির জয়ী হওয়ার আশা প্রকাশ করে তিনি গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের লড়াইয়ে বরাবরের মত জনগণকে পাশে পাওয়ার প্রত্যাশার কথা জানান।

মহানগর উত্তর জোন ৮ এর উদ্যোগে জ্বালানি তেল ও নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধিসহ সারাদেশে বিএনপি নেতাকর্মীদের ‘হত্যা’ ও হামলার প্রতিবাদে এই সমাবেশ হয়; এতে মোহাম্মদপুরের বিভিন্ন ওয়ার্ডের নেতা-কর্মীরা অংশ নেয়।

ঢাকা মহানগর উত্তরের আহ্বায়ক আমান উল্লাহ আমানের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব আমিনুল হক ও যুগ্ম আহ্বায়ক এবিএম রাজ্জাকের সঞ্চালনায় সমাবেশে চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য আবদুস সালাম ও আতাউর রহমান ঢালী, কেন্দ্রীয় নেতা খায়রুল কবির খোকন, তাবিথ আউয়াল, বিলকিস জাহান শিরিন, নাজিম উদ্দিন আলম, সেলিম রেজা হাবিব, মীর সরাফত আলী সপু, সাইফুল আলম নিরব, শামীমুর রহমান শামীম, নিলোফার চৌধুরী মনি, কাজী রওনাকুল ইসলামি টিপু, আনিসুর রহমান তালুকদার খোকন ও এসএম জাহাঙ্গীর, মহানগর উত্তর শ্রমিক দলের আনোয়ার হোসেইন, মহিলা দলের ফরিদা ইয়াসমিন, জাসাসের জাকির হোসেন রোকন, স্বেচ্ছাসেবক দলের রফিকুল ইসলাম, মহানগর উত্তরের মুন্সি বজলুল বাসিত আনজু, আতিকুল ইসলাম মতিন, আখতার হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক