পরীমনি ও মিমের পাল্টাপাল্টি, ফেইসবুকে উত্তাপ

রাজ-মিমকে নিয়ে আবারও ফেসবুকে পরীমনির ক্ষোভ প্রকাশ; মিমের দাবি, তার সাফল্যে ‘ইর্ষান্বিত’ হয়ে কুৎসা রটাচ্ছেন কেউ কেউ।

গ্লিটজ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 10 Nov 2022, 11:32 AM
Updated : 10 Nov 2022, 11:32 AM

দামাল সিনেমায় নায়ক শরীফুল ইসলাম রাজ ও নায়িকা বিদ্যা সিনহা মিমের ‘প্রেমের’র গল্প দর্শকদের জানা। সেই জানা গল্পের বাইরে এই দুই সহশিল্পীর ‘সম্পর্ক’ এবং ওই সিনেমার নির্মাতাকে নিয়ে ফেইসবুকে চিত্রনায়িকা পরীমনির একটি ফেইসবুক পোস্ট আলোচনার জন্ম দিয়েছে।

বুধবার গভীর রাতে তার ওই পোস্টের পর বৃহস্পতিবার মিমের পাল্টা পোস্ট সোশাল মিডিয়ায় রীতিমত উত্তাপ ছড়াচ্ছে।

তিন লাইনের সংক্ষিপ্ত পোস্টে পরীমনি দামাল সিনেমার নির্মাতা রায়হান রাফিকে ‘দালাল’ আখ্যা দেন। নিজের স্বামী রাজ এবং অভিনেত্রী মিমের নাম ধরেই কথা বলেন। 

এরপর মীম তার ফেইসবুক পোস্টে দাবি করেন, এক পক্ষ তার পথচলায় ‘ইর্ষান্বিত’ হয়ে ‘কুৎসা’ রটাচ্ছে। কোনো ধরনের বাড়াবাড়ি হলে তিনি আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার কথাও ভাববেন।

পরীমনি তার গভীর রাতের পোস্টে রাফিকে ট্যাগ করে লেখেন, “রায়হান রাফি, সিনেমার সাথে সাথে দালালিও ভালোই করেন দেখি!”

পরের লাইনে মিমকে ট্যাগ করে তিনি লেখেন, “নিজের জামাইকে নিয়ে সন্তুষ্ট থাকা উচিত ছিল।”

সবশেষে স্বামী রাজকে মেনশন করে পরীমনি লিখেছে, “এটা এতদূর গড়াতে দেওয়া উচিত হয়নি তোমার।”

গ্লিটজের পক্ষ থেকে পরীমনির সঙ্গে বারবার যোগাযোগের চেষ্টা করার এক পর্যায়ে তিনি শুধু এসএমএস এ জানান, তিনি অসুস্থ, তার ঠাণ্ডা লেগেছে। তার স্বামী রাজ ফোন ধরনেনি।

পরীমনির ওই পোস্টে অনেকেই বিভিন্ন প্রশ্ন করেছেন, কেউ কেউ জানতে চেয়েছেন, ‘আবার কী হল?’

“দামালের মার্কেটিং নাকি নতুন কাহিনী?” লিখেছেন একজন।

“আপু আবার ক্ষেপছে,” লিখছেন পরীমনির এক ভক্ত।

ফেইসবুকে চলচ্চিত্রকেন্দ্রিক একটি গ্রুপে পোস্টটি শেয়ার করে একজন লিখেছেন, “দামালের পাবলিসিটি বাড়ানোর জন্য এমন পোস্ট নয়তো আবার! এটা পরীর রিয়েল ফেসবুক আইডি। অনেকেই না জেনে বলছেন এটা ফিইক পেইজ। এটা পেইজ না, তার ব্যক্তিগত রিয়েল আইডি।”

যোগাযোগ করা হলে মিম সকালে গ্লিটজকে বলেন, তিনি বর্তমানে তার স্বামীর সঙ্গে চট্টগ্রামে আছেন। বিষয়টি নিয়ে তিনি মন্তব্য করতে রাজি নন।

এরপর দুপুরে ফেইসবুকে দীর্ঘ পোস্টে মিম লেখেন, “পরাণ' ও 'দামাল' সিনেমার আকাশছোঁয়া সাফল্য আমাকে স্বার্থহীন ভালোবাসায় ভাসাচ্ছে। আমি আপ্লুত, অভিভূত। বলতে পারি, জীবনের সেরা সময় পার করছি। ঠিক এই সময়ে একটা পক্ষ আমার পথচলায় ঈর্ষান্বিত হয়ে, আমাকে থামিয়ে দিতে, আমাকে জড়িয়ে নানা ধরনের কুৎসা রটানোর চেষ্টা চালাচ্ছে। ‌‌'পরাণ' ও 'দামাল' যে ভালোবাসা আমাকে দিচ্ছে…আমি আমার পেশাদার অভিনয়জীবন গড়ে তোলা চেষ্টা করেছি, করে যাচ্ছি, আগামীতেও করে যাব।“

মিমের ভাষ্য, নিজের পেশাদার জীবনকে তিনি কখনও প্রশ্নবিদ্ধ করেননি।

“আমি কাজ করছি বাংলাদেশে জাতিসংঘের আন্তর্জাতিক শিশু তহবিলের (ইউনিসেফ) জাতীয় শুভেচ্ছাদূত হিসেবে। শিক্ষক বাবার আদর্শ ও মায়ের শেখানো সততাকে সঙ্গী করে…। কখনোই নিজের পেশাদার জীবনের সঙ্গে এমন কিছু যুক্ত করতে দেইনি যা আমার পথচলাকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে পারে। আমি জানি, আমার পারিবারিক শিক্ষা ও মূল্যবোধ কী…।”

প্রয়োজনে আইনের আশ্রয় নেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়ে মিম লিখেছেন, “এখন যে বা যারা কোনো ধরনের প্রমাণ ছাড়াই আমাকে নিয়ে ভিত্তিহীন কথা বলছে, তাদের প্রতি নিন্দা জানানোর ভাষা জানা নেই। তবে এসবের বাড়াবাড়ি হলে আমি অবশ্যই তাদের বিরুদ্ধে দেশের প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা গ্রহণ করব।“

কারও কোনো ধরনের ‘মনগড়া মিথ্যা বানোয়াট কথায়’ বিভ্রান্ত না হওয়ারও আহ্বান জানান মিম। 

ক্যারিয়ার এগিয়ে নিতে সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানিয়ে মিম বলেন, “আপনাদের সবার কাছে অনুরোধ, কোনো ধরনের সত্যতা যাচাই বাছাই না করে বিভ্রান্তিকর কোনো খবর ছড়াবেন না। কোনো ইউটিউব কিংবা পোর্টাল যদি আমাকে জড়িয়ে কোনো ধরনের ভিত্তিহীন খবর ছড়ানোর চেষ্ট করে, তাহলে সংশ্লিষ্ট সবার বিরুদ্ধেও প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হব।”

রাফি পরিচালিত রাজ-মিম জুটির শুরুটা ‘পরাণ সিনেমা দিয়ে। চলতি বছরে মুক্তি পাওয়া এই সিনেমার জুটিকেই ‘দামাল’এ নিয়ে আসেন রাফি। গত ২৮ অক্টোবর মুক্তির আগে থেকেই ‘দামাল’ এর প্রচারে রাফি অভিনয়শিল্পী রাজ, মিম, সিয়াম আহমেদমহ টিমের সদস্যদের নিয়ে নানা জায়গায় ছুটে বেড়িয়েছেন।

সে সময়ও মিম আর রাজকে নিয়ে ফেইসবুকে আপত্তি প্রকাশ করেছিলেন পরীমনি। ‘দামাল’ সিনেমার প্রচারের সময় রাজ-মীমের হাত ধরাধরি ছবিও পোস্ট করেছিলেন তিনি।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক