সমালোচনার মুখে হৃদিতার ট্রেইলারে কাঁচি

নায়িকা পূজা চেরি ফেইসবুকে লিখেছেন, ট্রেইলার থেকে যে অংশটুকু বাদ দেওয়া হয়েছে, সেটা ছিল ‘শুধুই আর্ট’।

গ্লিটজ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 Sept 2022, 04:26 AM
Updated : 23 Sept 2022, 04:26 AM

সমালোচনার মুখে একটি দৃশ্য বাদ দিয়ে নতুন করে প্রকাশ করা হয়েছে ‘হৃদিতা’ সিনেমার ট্রেইলার।

আনিসুল হকের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত এ সিনেমায় কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করেছেন পূজা চেরি ও এবিএম সুমন।

পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী ইস্পাহানি আরিফ জাহান পরিচালিত ‘হৃদিতা’ সিনেমার ট্রেইলার সোমবার ফেইসবুক ও ইউটিউবে প্রকাশ করা হয়। কিন্তু এবিএম সুমন নগ্ন পূজা চেরির ছবি আঁকছেন – এমন একটি দৃশ্য নিয়ে সমালোচনা শুরু হলে সেটি বাদ দিয়ে বৃহস্পতিবার প্রকাশ করা হয় ২ মিনিট ৪৩ সেকেন্ডের নতুন ট্রেইলার। 

৭ অক্টোবর মুক্তির অপেক্ষায় থাকা হৃদিতার ট্রেইলার থেকে কেন দৃশ্যটি বাদ দেওয়া হল, তার একটি ব্যাখ্যা পূজা চেরি তার ফেইসবুক পেইজে ‍দিয়েছেন।

তিনি লিখেছেন, “ট্রেইলারের কিছু দৃশ্য হয়তো আপনারা পছন্দ করছেন না; সে কথা আপনারা আমাকে জানাচ্ছেন। আমার অডিয়েন্স আমার সিনেমার ভালো-খারাপ নিয়ে সুন্দরভাবে কথা বলছে, বিষয়টা আমি অ্যাপ্রিশিয়েট করি।”

“যে দৃশ্যগুলো নিয়ে আপনারা আমাকে প্রতিক্রিয়া জানাচ্ছেন, তা জনাব আনিসুল হক স্যারের লিখিত উপন্যাস ‘হৃদিতা’রই ভিজুয়ালি রিপ্রেজেন্ট করা হয়েছে কেবল। এছাড়া উক্ত আর্ট এর বিষয়টা শুধুই আর্ট ও আমি নই। পরিশেষে বলতে চাই, আপনাদের মতামতের উপর শ্রদ্ধা রেখে উক্ত ট্রেইলারে দেখানো কিছু অংশ ইতোমধ্যেই বাদ দেওয়া হয়েছে।”

পূজা লিখেছেন, “আমি আশা করব, আপনারা যেভাবে এতদিন ধরে আমাকে ভালোবেসে আসছেন, সুন্দরভাবে আমার সিনেমার ভালো-খারাপ নিয়ে কথা বলেছেন, আমার পাশে থেকেছেন; একইভাবে ভবিষ্যতেও আমার পাশে থাকবেন, বাংলা সিনেমার পাশে থাকবেন।”

ট্রেইলার ‘সেন্সর’ আর নায়িকার ব্যাখ্যার পরও থেমে নেই সমালোচনা। কেউ ট্রেইলারের ব্যাপ্তি ও পুরো গল্প বলে দেওয়ার ধরন নিয়ে কথা বলছেন।

কমেন্ট বক্সে তারিক সুমন নামে একজন লিখেছেন, “কালার, অভিনয়, এডিটিং এবং অন্যান্য কিছু টেকনিক্যাল বিষয়ে আরও ভালো করার সুযোগ আছে। আশা করি মেইন ছবিতে সমস্যা থাকবে না।”

জাহাঙ্গীর আলম লিখেছেন, “কি বলবো, আমার কাছে মনে হল আমি ট্রেইলার দেখি নাই, পুরো সিনেমাটাই দেখে ফেলেছি।”

“এমন সিনেমা নির্মাণে সরকার টাকা দিয়েছেন কেন’– এমন প্রশ্ন শুভাশিস রয় নামের একজন তুলেছেন আনিসুল হকের শেয়ার করা পোস্টে ।

অনেকে প্রশংসাও করছেন। ইরফানুল হক লিখেছেন, “চমৎকার। ইস্পাহানি আরিফ জাহান থেকে এতটুকু পাব, ভাবিনি। আর কোরিওগ্রাফি বেশি সুন্দর।”

২০১৯-২০ অর্থবছরে ৫৫ লাখ টাকা সরকারি অনুদান পায় সিনেমাটি। পূজা চেরি ও এবিএম সুমন ছাড়াও অভিনয় করেছেন, মানস বন্দ্যোপাধ্যায়, সাবেরী আলম, আরজুমান আরা।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক