চট্টগ্রামে গণজাগরণের আহ্বান মাহতাবের

“৪ ডিসেম্বর চট্টগ্রাম নগরীকে জনসমুদ্রের জনতরঙ্গে উদ্বেলিত করে তুলতে হবে,” বলেন নাছির।

চট্টগ্রাম ব্যুরোবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 20 Nov 2022, 03:50 PM
Updated : 20 Nov 2022, 03:50 PM

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জনসভা ঘিরে চট্টগ্রামে ‘গণজাগর’ণ ঘটানোর আহ্বান জানিয়েছেন মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী।

রোববার নগরীর একটি কমিউনিটি সেন্টারে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় তার এ আহ্বান আসে।

মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী বলেন, “আগামী ৪ ডিসেম্বর প্রায় একযুগ পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রথমবারের মত পলোগ্রাউন্ড ময়দানে প্রকাশ্যে জনসভায় সশরীরে উপস্থিত হবেন। তাই এই দিনটি আমাদের সকলের জন্য উৎসব মুখর। তারই প্রস্তুতি নিতে নগরীর প্রতিটি ওয়ার্ডে থানায় অভূতপূর্ব গণজাগরণ ঘটাতে হবে।”

তিনি বলেন, “দলের প্রতিটি সাংগঠনিক স্তরের কর্মী বাহিনীকে সংগঠিত করে জনগণের মাঝে শেখ হাসিনার আগমনী বার্তা ছড়িয়ে দিতে হবে। তিনি ২০০৯ সালে ক্ষমতা গ্রহণের পর চট্টগ্রামের উন্নয়নের সকল দায়িত্ব নিজের কাঁধে নিয়েছিলেন। তিনি তার প্রতিশ্রুতি রক্ষা করেছেন এবং বৃহত্তর চট্টগ্রামে একের পর এক উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়িত করেছেন।”

সভায় মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, “দলের সকল ক্রান্তিকালে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের নিয়ে মাঠে ছিল। আবারও প্রমাণ করার সময় এসেছে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ সুশৃঙ্খল ও সুসংগঠিত।

“তাই ৪ ডিসেম্বর উৎসব মুখরিত পরিবেশে শুধু পলোগ্রাউন্ড ময়দান নয়, সারা চট্টগ্রাম নগরীকে জনসমুদ্রের জনতরঙ্গে উদ্বেলিত করে তুলতে হবে।”

সভায় সিটি মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরী বলেন, “শেখ হাসিনার জনসভা আমাদের জন্য একটি বিরাট চ্যালেঞ্জ। আমরা প্রমাণ করব- ওইদিন চট্টগ্রামের জনতার ঢল মহাপ্লাবণের মতো জেগে উঠবে। চট্টগ্রামে ৭০ লাখ মানুষের বসবাস। তাই এখানে ১০ লাখ মানুষের সমাবেশ করা কোনো ব্যাপার নয়।

“প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চট্টগ্রামের যে অভাবনীয় দৃশ্যমান উন্নয়ন করেছেন তা নজিরবিহীন। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তিনি দায়িত্ব নেওয়ার পর আমাদেরকে পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। প্রাকৃতিক দুর্যোগ ও বৈশ্বিক মন্দা পরিস্থিতির মধ্যেও বাংলাদেশ বারবার ঘুরে দাঁড়িয়েছে।”

সভায় শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল বলেন, “যারা অসৎ উদ্দেশ্যে সরকার পতনের ডাক দিয়েছেন, তারা দেশের উন্নয়ন দেখেও দেখেন না। কারণ তাদের মগজের ঘাটতি রয়েছে। আজ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে মহল বিশেষ ষড়যন্ত্রমূলকভাবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পরিকল্পিতভাবে গুজব ছড়াচ্ছেন।”

সভায় মহানগর আওয়ামী লীগ নেতাদের পাশাপাশি ৪১টি প্রশাসনিক ওয়ার্ড ও তিনটি সাংগঠনিক ওয়ার্ডের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক, আহ্বায়ক ও যুগ্ম আহ্বায়ক উপস্থিত ছিলেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক