টুকু, নিপুণ, নিরবসহ বিএনপির ২৫ জনের বিরুদ্ধে পরোয়ানা

এ মামলার প্রতিবেদন মামলা দাখিল করতে আগামী ১৫ জানুয়ারি দিন ঠিক করেছে আদালত।

আদালত প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 4 Dec 2022, 06:18 PM
Updated : 4 Dec 2022, 06:18 PM

ঢাকার রমনা থানার নাশকতার মামলায় জাতীয়তাবাদী যুবদলের সভাপতি সুলতান সালাউদ্দিন টুকু, ঢাকা জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নিপুণ রায় চৌধুরী ও যুবদলের সাবেক সভাপতি সাইফুল আলম নিরবসহ ২৫ জনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছে আদালত।

রোববার শুনানি শেষে এ আদেশ দেন ঢাকার অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম আসাদুজ্জামান নূর।

এ দিন ৪৫ আসামির মধ্যে সময় চেয়ে আবেদন করেন ১৯ জন। তাদের মধ্যে অসুস্থ বিবেচনায় আদালত হাবিবুন নবী খান সোহেলের আবেদন মঞ্জুর করে। তবে ১৮ আসামির জামিন বাতিল করে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়। অপর সাত আসামি গরহাজির থাকায় তাদের বিরুদ্ধেও গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন বিচারক।

রোববার রমনা থানা পুলিশ মামলার প্রতিবেদন মামলা দাখিল করতে না পারায় এজন্য আগামী ১৫ জানুয়ারি দিন ঠিক করেছে আদালত।

আসামিদের অন্যতম আইনজীবী নীহার হোসেন ফারুক বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “সুলতান সালাউদ্দিন টুকুকে আজ অপর মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে। সে মামলার কথা আমরা উল্লেখ করে বলেছিলাম যে ওই মামলার কারণে টুকুর হাজিরার জন্য সময় চাই। সেই সঙ্গে আমরা ওই মামলায় শুনানির জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছিলাম বলে অন্যদের জন্যও সময় চেয়েছিলাম। কিন্তু দুঃখজনকভাবে আমাদের কথা বিশ্বাস করেননি বিচারক।”

মামলার বিবরণ অনুযায়ী, বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের বীরউত্তম খেতাব বাতিলের প্রতিবাদে গত বছরের ১৩ ফেব্রুয়ারি জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে সমাবেশের আয়োজন করে বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা। সমাবেশ শেষে তারা প্রেস ক্লাব এলাকায় পুলিশের ওপর অতর্কিত আক্রমণ করেন।

“মিছিল নিয়ে তারা মৎস্য ভবন মোড়ে এলে সেখানে পুলিশ বাধা দেয়। ওই সময় উচ্ছৃঙ্খল জনতাকে ছত্রভঙ্গ করার চেষ্টা করলে আসামিরা পুলিশের ওপর ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে ও সরকারি কাজে বাধা দেয়।”

এ ঘটনায় ওই দিনই রমনা থানায় মামলা করেন এসআই আনোয়ার হোসেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক