জার্মানি, যুক্তরাজ্যকে ছাড়িয়ে বাংলাদেশ হবে তৃতীয় বৃহত্তম বাজার: প্রধানমন্ত্রী

“বাংলাদেশের লক্ষ্য অর্জনের জন্য উন্নয়ন অংশীদার প্রয়োজন।”

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 30 Jan 2024, 03:14 AM
Updated : 30 Jan 2024, 03:14 AM

বাংলাদেশের অবস্থান প্রায় ৩০০ কোটি মানুষের বাজারের কেন্দ্রস্থলে জানিয়ে এখানে বিনিয়োগ বাড়াতে কমনওয়েলথভুক্ত দেশগুলোর ব্যবসায়ীদেরকে প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বাংলাদেশের ১৭ কোটি জনসংখ্যার মধ্যে ২০৩০ সালের মধ্যে প্রায় সাড়ে তিন কোটি স্বচ্ছল হবে জানিয়ে তিনি বলেন, “ফলে জার্মানি ও যুক্তরাজ্যকে পেছনে ফেলে বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম বাজারে পরিণত হবে বাংলাদেশ।”

বুধবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে দুই দিনের “কমনওয়েলথ ট্রেড অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট ফোরাম বাংলাদেশ-২০২৩” উদ্বোধন করে এসব কথা বলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, “বাংলাদেশের সরাসরি বৈদেশিক বিনিয়োগের প্রায় ৭০ শতাংশই আসে পুনঃবিনিয়োগ থেকে। এ থেকে প্রমাণ হয় বাংলাদেশে বিনিয়োগের চমৎকার পরিবেশ বিদ্যমান।”

বাংলাদেশ থেকে লভ্যাংশ ফিরিয়ে নেওয়ার সহজ প্রক্রিয়া সুবিধার কথাও উল্লেখ করে ব্যবসা ও বিনিয়োগ পরিবেশকে আরও উন্নত করতে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সঙ্গে মুক্তবাণিজ্য চুক্তির চেষ্টার কথাও তুলে ধরেন তিনি।

বাংলাদেশের লক্ষ্য অর্জনের জন্য 'উন্নয়ন অংশীদার প্রয়োজন' জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “বিনিয়োগ উন্নয়নের পূর্বশর্ত হিসেবে সরকার সাংগঠনিক সংস্কার, বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিডা) ও বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ (বেজা) গঠনকে অগ্রাধিকার দিয়েছে, যা বিনিয়োগকারীদের জন্য আকর্ষণীয় সুযোগ-সুবিধা দেয় এবং বিনিয়োগ পরবর্তী সেবা নিশ্চিত করে।”

বাংলাদেশে বিনিয়োগের জন্য 'প্রায় সব খাত উন্মুক্ত' থাকলেও কৃষিপণ্য ও খাদ্য প্রক্রিয়াজাত, চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য প্রক্রিয়াজাত, চিকিৎসা সরঞ্জাম, গাড়ি ও জাহাজ নির্মাণ এবং আইসিটি খাতে আরও বিনিয়োগ উৎসাহিত করা হচ্ছে বলে জানান তিনি।

বিনিয়োগকারীদের সুবিধার্থে বিডার ওয়ান স্টপ ফাস্ট ট্র্যাক ডেলিভারি সেবা চালুর কথা উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। ১০০টি অর্থনৈতিক অঞ্চল, ১০৯টি হাই-টেক ও সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক এবং আইটি ট্রেনিং ও ইনকিউবেশন সেন্টার স্থাপনের কথাও তুলে ধরেন তিনি।

স্থল, রেল ও বিমান যোগাযোগের উন্নয়নের সরকারের পদক্ষেপের কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশের প্রায় সব মহাসড়ক চার বা তদুর্ধ্ব লেনে উন্নীত করা হয়েছে বা হচ্ছে।

পদ্মা সেতু চালু, কর্ণফুলী নদীর তলদেশে টানেল, কক্সবাজারের সঙ্গে চট্টগ্রামের রেল লাইন, মেট্রোরেল ও এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে গণপরিবহন ব্যবস্থায় বৈপ্লবিক পরিবর্তন আসবে বলেও আশা রাখেন সরকার প্রধান।

 

(প্রতিবেদনটি প্রথম ফেইসবুকে প্রকাশিত হয়েছিল ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২৩ তারিখে: ফেইসবুক লিংক)