ইউভেন্তুসকে হারিয়ে শীর্ষস্থান মজবুত ইন্টারের

সেরি আর টেবিলে ৪ পয়েন্টে এগিয়ে গেল সিমোনে ইনজাগির দল।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 4 Feb 2024, 09:51 PM
Updated : 4 Feb 2024, 09:51 PM

দুই শিরোপা প্রত্যাশীর লড়াইয়ে ব্যবধান গড়ে দিল একটি মাত্র গোল, সেটাও আবার আত্মঘাতী। তারপর, ম্যাচ শেষে ইন্টার মিলানের সেই ট্রেডমার্ক উদযাপন। সবাই একসঙ্গে গ্যালারির দিকে এগিয়ে দর্শক অভিবাদনের জবাব দেওয়া। সমর্থকদের সঙ্গে তাদের আনন্দ-উল্লাস যেন থামেই না! এত উচ্ছ্বাসের কারণ, ইউভেন্তুসকে হারিয়ে যে লিগ টেবিলে ৪ পয়েন্টে এগিয়ে গেল সিমোনে ইনজাগির দল।

মিলানের সান সিরোয় রোববার রাতে সেরি আর টেবিলের শীর্ষ দুই দলের লড়াইয়ে ইউভেন্তুসের ডিফেন্ডার ফেদেরিকো গাত্তির আত্মঘাতী গোলে জিতেছে ইন্টার।

দুই দলই চলতি মৌসুমে লিগে স্রেফ একটি ম্যাচ হেরে এই লড়াইয়ে মাঠে নেমেছিল। দ্বিতীয় হারের স্বাদ পেল ইউভেন্তুস।

লিগে টানা দুই ম্যাচে জয়হীন রইল মাস্সিমিলিয়ানো আল্লেগ্রির দল। টানা পাঁচ জয়ের পর গত রাউন্ডে এম্পলির সঙ্গে ১-১ ড্র করেছিল তারা।

অন্যদিকে, দারুণ এক স্মৃতি ফেরাল ইন্টার। ২০০৭ সালের পর এই প্রথম সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে এক পঞ্জিকাবর্ষে নিজেদের প্রথম ৬ ম্যাচে জিতল তারা। এর মধ্যে জাল অক্ষত রাখল সবশেষ চার ম্যাচে।

ঘরের মাঠে শুরুতে ইউভেন্তুসকে চেপে ধরে ইন্টার। পঞ্চম মিনিটে বক্সের বাইরে থেকে হেনরিখ মিখিতারিয়ানের শট একজনের পায়ে লেগে বাইরে যায়।

অষ্টাদশ মিনিটে ভালো একটি সুযোগ হারান ফেদেরিকো দিমারকো। বাঁজামাঁ পাভার্দের ক্রস দূরের পোস্টে পেয়ে ভলিতে পাশের জালে বল মারেন ইতালিয়ান ডিফেন্ডার।

২৫তম মিনিটে ডিফেন্ডার গ্লেইসন ব্রেমেরের দৃঢ়তায় বেঁচে যায় ইউভেন্তুস। দিমারকোর দারুণ পাস বক্সে খুঁজে পায় মার্কাস থুরামকে। পেছন থেকে দারুণ ট্যাকলে দলকে বিপদমুক্ত করেন ব্রেমের।

৩২তম মিনিটে সুযোগ নষ্ট করেন ইউভেন্তুসের দুসান ভ্লাহোভিচ। ওয়েস্টন ম্যাককেনির পাস বক্সে ফাঁকায় পেয়ে নিয়ন্ত্রণে নিতে পারেননি সার্বিয়ান ফরোয়ার্ড।

৩৭তম মিনিটে ভাগ্যের ছোঁয়ায় এগিয়ে যায় ইন্টার। ডান দিক থেকে নিকোলো বারেল্লার ক্রসে বক্সে ওভারহেড কিকের চেষ্টায় পারেননি পাভার্দ, ছয় গজ বক্সে নিচু হয়ে হেডের চেষ্টায় ব্যর্থ হন থুরামও, তার সঙ্গেই থাকা গাত্তির বুকে লেগে তাদের জালেই বল জড়ায়।

দ্বিতীয়ার্ধে প্রথম ১০ মিনিটে সুযোগ তৈরি করতে পারেনি কেউ। ৫৬তম মিনিটে সতীর্থের পাস ধরে বক্সে ঢুকে লক্ষ্যভ্রষ্ট নেন দিমারকো। দুই মিনিট পর হাকান কালহানোগলুর দারুণ শট পোস্টের বাইরের দিকে লাগে।

৬৩তম মিনিটে ইউভেন্তুসের ভ্লাহোভিচের ওভারহেড কিক উড়ে যায় ক্রসবারের ওপর দিয়ে। চার মিনিট পর বক্সের বাইরে থেকে গাত্তির জোরাল শট পোস্টের সামান্য বাইরে দিয়ে যায়।

৬৯তম মিনিটে দারুণ সেভে ব্যবধান বাড়তে দেননি ভয়চেখ স্ট্যাসনি। দিমারকোর ক্রসে দূরের পোস্টে বারেল্লার ভলি পা দিয়ে ঠেকান পোলিশ গোলরক্ষক।

নির্ধারিত সময়ের তিন মিনিট বাকি থাকতে আরেকটি দুর্দান্ত সেভ করেন স্ট্যাসনি। ডেনজেল ডামফ্রিসের পাস বক্সে ফাঁকায় পান মার্কো আর্নাতোভিচ। এই অস্ট্রিয়ান ফরোয়ার্ডের প্রচেষ্টা আটকে দেন স্ট্যাসনি।

২২ ম্যাচে ১৮ জয় ও ৩ ড্রয়ে ইন্টারের পয়েন্ট হলো ৫৭। তাদের চেয়ে এক ম্যাচ বেশি খেলে ৫৩ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে ইউভেন্তুস।

ইন্টারের সমান ২৩ ম্যাচে ৪৯ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে এসি মিলান।