মেসি-দুঃখ ভুলে ঘুরে দাঁড়ানোর আশায় কুমান

যে কোনো পরিস্থিতিতে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দিতে যার দিকে তাকিয়ে থাকত বার্সেলোনা, তিনি আর দলে নেই। তাকে ছাড়াই এখন থেকে সাফল্যের পথ খুঁজতে হবে। তাই বাস্তবতার কঠিন জমিনে পা রেখে লিওনেল মেসিকে হারানোর দুঃখ ভুলে ঘুরে দাঁড়াতে চান রোনাল্ড কুমান।  মেসি অধ্যায়ের সমাপ্তি টেনে কাম্প নউয়ে চান নতুন শুরু।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 13 August 2021, 04:48 PM
Updated : 13 August 2021, 04:48 PM

সেই ২০০৪ সালে যে পথচলার শুরু, তা শেষ হয়েছে দুই দশক পর। এই সময়ে ক্রমেই মেসি হয়ে ওঠেন বার্সেলোনার মধ্যমণি, সাফল্যের নায়ক। সময়ের পরিক্রমায় হয়ে উঠেন ক্লাবের সবচেয়ে বড় বিজ্ঞাপন। বার্সেলোনার সঙ্গে মেসির পথচলার ইতি ঘটেছে ক্লাবের আর্থিক দুরবস্থা ও লা লিগার লা লিগার ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লের নিয়মের বাধায়। ফুটবলের এই মহাতারকা এখন ফরাসি ক্লাব পিএসজির হয়ে মাঠ মাতাবেন।

স্প্যানিশ ক্লাবটির জার্সিতে রেকর্ড ৩৫টি শিরোপা জেতেন মেসি। বার্সেলোনার হয়ে ৬৮২ গোল করে ক্লাবটির ইতিহাসে রেকর্ড গোলদাতা তিনি। লা লিগার সর্বোচ্চ গোলদাতাও আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। আরও অনেক রেকর্ডও রয়েছে তার নামের পাশে।

এমন একজনকে হারিয়ে স্বাভাবিকভাবেই হতাশ পুরো দল। ইএসপিএনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে কুমানের কণ্ঠেও ঝরল সেই হতাশাই। তবে ঘুরে দাঁড়ানোর আশায় তিনি।

“আমি মনে করি এটা ছিল কঠিন, কারণ আমরা অন্য কোনো ফুটবলার নিয়ে কথা বলছি না। আমরা কথা বলছি লিওলেন মেসিকে নিয়ে, অনেকগুলো মৌসুম ধরে যে বিশ্বের সেরা ফুটবলার। আমরা সবাই হতাশ যে, এই মৌসুমে সে আমাদের হয়ে খেলবে না।”

“তবে, ঠিক আছে। দ্রুত আমাদের বদলাতে হবে, কারণ নতুন মৌসুম যখন শুরু হতে যাচ্ছে তখন হতাশ হয়ে বসে থাকা যাবে না। ... মেসি এই ক্লাবের জন্য অনেক কিছু।”

বার্সেলোনা দলে যোগ করেছে মেমফিস ডিপাই, এরিক গার্সিয়া, সের্হিও আগুয়েরোর মতো ফুটবলার। আছেন পেদ্রি, আনসু ফাতির মতো তরুণরা। কুমান সামনের পথ পাড়ি দিতে চান এই দল নিয়ে। মেসি অধ্যায় দ্রুত ভুলে মনোযোগ দিতে চান ভবিষ্যতে।

“আমাদের বুঝতে হবে যে, একজন খেলোয়াড়ের শেষ আছে। সেই বই বন্ধ করতে হবে, কারণ আমাদের নতুন মৌসুমের দিকে মনোযোগ দিতে হবে।”

“আমাদের দলে নতুন খেলোয়াড় এসেছে, এখন আমাদের সামনে এগিয়ে যেতে হবে। এটাই উপযুক্ত সময়। এই মৌসুমে আমাদের দলে তরুণ অনেক খেলোয়াড় আছে, আর এটা ভবিষ্যতের জন্যও। আমরা ক্লাবের ভবিষ্যতের জন্য কাজ করছি। এটায় মনোযোগ দেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ, গত কিছুদিনে কী ঘটল সেটায় মনোযোগ দেওয়ার চেয়ে।”

লা লিগার গত মৌসুমে মেসি গোল করেছেন ৩০টি। সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার ‘পিচিচি’ ট্রফি তাই উঠেছে তার হাতে। এবার দলে নেই সময়ের সেরা এই ফুটবলার। কুমানের বললেন, বাকিদের সেই অভাব পূরণ করতে হবে এবং খেলতে হবে দল হয়ে।

“অবশ্যই গোল করার ক্ষেত্রে আমাদের অনেক বেশি কঠিন পরিস্থিতি হবে। মেসি গত মৌসুমে ৩০ গোল করেছে, তাই অন্যদের আরও গোল করতে হবে। পরবর্তী ধাপে যেতে হবে এবং এখন ব্যক্তিগত খেলোয়াড়ের চেয়ে দলের চিন্তা করতে হবে।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক