‘শাভির আস্থায় বার্সায় থাকার সিদ্ধান্ত নিয়েছি’

ক্লাব কিংবদন্তির কোচিংয়ে নিজেকে আরও শাণিত করার অনুপ্রেরণা পাচ্ছেন ফরাসি ফরোয়ার্ড উসমান দেম্বেলে।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 22 Sept 2022, 01:15 PM
Updated : 22 Sept 2022, 01:15 PM

ক্লাবের সঙ্গে চুক্তির শর্ত নিয়ে হচ্ছিল না বনিবনা। মাঠের পারফরম্যান্সও ছিল না আশাব্যঞ্জক। কঠিন সেই সময় পেরিয়ে ধীরে ধীরে বার্সেলোনায় পায়ের তলায় মাটি খুঁজে পেয়েছেন উসমান দেম্বেলে। ফরাসি ফরোয়ার্ড জানালেন, তার এই বদলে যাওয়ার পেছনে বড় অবদান রেখেছেন কাতালান দলটির কোচ শাভি এরনান্দেস।

দেম্বেলে বললেন, স্পেনের বিশ্বকাপজয়ী তারকার আস্থার কারণেই ক্লাবে থেকে গেছেন তিনি।

২০১৭ সালে অনেক সম্ভাবনা নিয়ে বরুশিয়া ডর্টমুন্ড থেকে বার্সেলোনায় পাড়ি জমানো দেম্বেলে মাঝে মধ্যে প্রতিভার ঝলক দেখালেও কখনোই সেভাবে ধারাবাহিক হতে পারেননি। বারবার চোটের আঘাতে প্রথম চার বছরে তাকে বাইরে কাটাতে হয়েছিল অনেক সময়। তার মাঠের বাইরের কিছু কর্মকাণ্ডও ছিল বিতর্কিত।

চুক্তির বিষয়ে সমঝোতা না হওয়ায় এ বছরের শুরুতে ক্লাবের পক্ষ থেকে ২৫ বছর বয়সী ফরোয়ার্ডকে চলে যেতে বলা হয়। পিএসজিসহ কয়েকটি ক্লাব তাকে পেতে আগ্রহী ছিল বলেও তখন শোনা গিয়েছিল। এরপর থেকেই তার বদলে যাওয়ার শুরু। গত নভেম্বরে বার্সেলোনার কোচ হয়ে আসা শাভির হাত ধরে দেখা যায় ভিন্ন এক দেম্বেলেকে। ক্রমেই তিনি হয়ে ওঠেন দলের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য।

শাভি কোচ হওয়ার পর থেকে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে সতীর্থদের দিয়ে ১৭টি গোল করিয়েছেন দেম্বেলে। এই সময়ে ইউরোপের শীর্ষ পাঁচ লিগে চার চেয়ে বেশি অ্যাসিস্ট করেছেন কেবল পিএসজির লিওনেল মেসি (২২) ও ম্যানচেস্টার সিটির কেভিন ডে ব্রুইনে (২১)। একই সময়ের মধ্যে লা লিগায় সর্বোচ্চ ১৫টি অ্যাসিস্ট করেছেন দেম্বেলে।

গত জুলাইয়ে দুই বছরের নতুন চুক্তি করার পর চলতি মৌসুমেও ভালো খেলছেন দেম্বেলে। সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে এখন পর্যন্ত তার নামের পাশে দুটি গোলের পাশাপাশি রয়েছে দুটি অ্যাসিস্টও।

আরএমসি স্পোর্টকে গত বুধবার দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে দেম্বেলে শোনালেন বার্সেলোনায় তার বদলে যাওয়ার গল্প। বলেন, তার ওপর শাভির যে আস্থা ছিল, সেটাই তাকে ক্লাবে থাকার ব্যাপারে অনুপ্রেরণা জুগিয়েছে।

“আমার ওপর শাভির যে আস্থা, তা দেখার পর আমাকে থাকতেই হতো। আমার ও তার মধ্যে একটি বৈঠকের কথা মনে পরছে এবং তখনই তাকে বলেছিলাম, আমি চুক্তিতে সই করব।”

“আমি সবসময় শাভিকে বলেছি যে আমি এই ক্লাবে থাকতে চাই। (চুক্তি নবায়ন নিয়ে) আলোচনা হয়েছিল এবং আমিই সেটার নিষ্পত্তি করিনি। তবে নিজেকে কখনও বলিনি যে আমি ক্লাব ছেড়ে চলে যাচ্ছি।”

দেম্বেলের কাছে ক্লাবের আবহও আগের চেয়ে ইতিবাচক লাগছে।

“সব তরুণদের সঙ্গে লকার রুমে ভালো অনুভব করছি। পুরো দল ভালোভাবে উন্নতি করছে।”

“আমি পাঁচ বছর ধরে এখানে আছি এবং এখন পরিস্থিতি ভালো ভালো। কারণ সবাই কেবল ফুটবল নিয়ে কথা বলছে।”

নেশন্স লিগ খেলতে দেম্বেলে এখন আছেন জাতীয় দলের ক্যাম্পে। বৃহস্পতিবার ফ্রান্সের প্রতিপক্ষ অস্ট্রিয়া।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক