ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় অটোচালক হত্যা: মোবাইলে কথার মধ্যেই চিৎকার শুনেন বাবা

অটোরিকশা ছিনতাইয়ের জন্য তাকে হত্যা করা হয়েছে বলে ধারণা পুলিশের।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 1 Dec 2023, 12:15 PM
Updated : 1 Dec 2023, 12:15 PM

বাড়ি ফিরতে দেরি হওয়ায় অটোচালক ছেলের মোবাইলে কল দিয়েছিলেন বাবা। কথার মধ্যেই ছেলের আর্তচিৎকার শুনতে পান তিনি। পরে ছেলের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ, পাওয়া যায়নি তার অটোরিকশাটি। 

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া নবীনগরে উপজেলায় এই ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (নবীনগর সার্কেল) সিরাজুল ইসলাম। 

নিহত আরাফাত হাসান (১৬) সলিমগঞ্জ ইউনিয়নের কাদৈর গ্রামের মো. এন্তাজ মিয়ার ছেলে। 

শুক্রবার দুপুরে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সিরাজুল জানান, উপজেলার গণি শাহর মাজার এলাকা থেকে বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে আরাফাত তার অটোরিকশায় দুইজন যাত্রী নেন। এদিকে অনেক রাত হলেও বাড়ি না ফেরায় খবর নিতে তার মোবাইলে ফোন দেন বাবা এন্তাজ মিয়া।

“এ সময় আরাফাত তার বাবাকে জানায়, দুইজন যাত্রী গণি শাহের মাজার থেকে রতনপুরের খাগাতুয়া গ্রামের দিকে যাবে। পৌঁছে দিয়েই সে বাড়ি ফিরবে। কিন্তু মোবাইলে কথা বলার মধ্যেই আরাফাতের চিৎকার শুনতে পান তার বাবা। এরপর আর তার সঙ্গে কোনো যোগাযোগ করা যায়নি।”

পরে রাত ২টার দিকে আরাফাতের মরদেহ খাগাতুয়া গ্রামের জুরা ব্রিজ এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়৷ তাকে ছুরিকাঘাতে হত্যা হয়েছে। পাওয়া যায়নি তার অটোরিকশাটিও।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আরও বলেন, ধারণা করা হচ্ছে অটোরিকশা ছিনতাইয়ের জন্য তাকে হত্যা করা হয়েছে। তার মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্যে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।