বিএনপির সময়ে রিজার্ভ ছিল সাড়ে ৩ বিলিয়ন ডলার: হানিফ

২০০১ সালে বিএনপি ক্ষমতায় আসার পর আওয়ামী লীগের লোকজনের বাড়ি বাড়ি গিয়ে নির্যাতন করেছিল, বলেন হানিফ।

চাঁদপুর প্রতিনিধি
Published : 28 Nov 2022, 02:47 PM
Updated : 28 Nov 2022, 02:47 PM

রিজার্ভে ডলার কমে যাওয়া নিয়ে বিএনপি মহাসচিবের বক্তব্যের সমালোচনা করেছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ।

সোমবার চাঁদপুরে দলের এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল সাহেব বিভিন্ন স্থানে মিটিংয়ে বলছেন, হিসাব শেষ। দেশ শেষ হয়ে গেছে। যে বাংলাদেশে এই মুহূর্তে রিজার্ভ আছে প্রায় ৩৯ বিলিয়ন ডলার। ব্যাংকের হিসাবেও রয়েছে ২৯ বিলিয়ন ডলার। আর বাকি ডলার বিভিন্ন সংস্থায় আছে।

“আমি বিএনপির মহাসচিবকে জিজ্ঞাসা করেছি আপনারা যখন ক্ষমতায় ছিলেন তখন রিজার্ভ কত ছিল? একটু আমাদেরকে জানান। লজ্জা হওয়া উচিৎ!

“এই বিএনপি যখন ক্ষমতায় ছিল তখন মাত্র সাড়ে ৩ বিলিয়ন ডলার রিজার্ভ ছিল। সাড়ে ৩ বিলিয়ন ডলার দিয়ে দেশ শেষ হয়নি। আর এখন ৩৯ বিলিয়ন ডলার রিজার্ভ। তিনি বলছেন দেশ শেষ হয়ে গেছে।”

তিনি বলেন, বিএনপির গত কয়েকদিনের আন্দোলন সংগ্রামে দুয়েকজন কর্মী নাকি মারা গেছে। তিনি এক সমাবেশে চোখের পানি ফেলে বললেন সরকার নির্যাতন করছে, তাদের অনেক মানুষকে হত্যা করেছে।

“আমরা জিজ্ঞেস করি, মির্জা ফখরুল সাহেব ২০০১-২০০৬ সাল পর্যন্ত আপনার এই চোখের পানি কোথায় ছিল? কোথায় ছিল আপনার গণতন্ত্র ও মানবতা?”

হানিফ বলেন, ২০০১ সালে আপনারা ক্ষমতায় আসার পর আওয়ামী লীগের লোকজনের বাড়ি বাড়ি গিয়ে অত্যাচার নির্যাতন করেছিলেন। হাজার হাজার নেতা-কর্মীকে হত্যা করেছিলেন। ২৬ হাজার নেতা-কর্মীকে প্রাণ দিতে হয়েছিল এই বিএনপি-জামাতের সন্ত্রাসীদের হাতে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর-৫ আসনের সংসদ সদস্য রফিকুল ইসলাম বীর উত্তম, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন, ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী এবং জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল।

দুপুরে শাহরাস্তির মেহের ডিগ্রি কলেজ মাঠে উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে হানিফ প্রধান অতিথি ছিলেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক