যুদ্ধের কোনো কারণ নেই: কাদের

মিয়ানমার প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, “আমাদের সাথে তাদের কোনো বিরোধ নেই। রোহিঙ্গা ইস্যুতে যে সমস্যা, সেটা আন্তর্জাতিকভাবে সমাধানের চেষ্টা চলছে। যুদ্ধের কোনো কারণ নেই।”

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 6 Feb 2024, 10:08 AM
Updated : 6 Feb 2024, 10:08 AM

মিয়ানমারে চলা যুদ্ধের মধ্যে সেখান থেকে আসা গোলায় বাংলাদেশে দুই জনের মৃত্যুর পরও দেশটির সঙ্গে যুদ্ধে জড়ানোর কোনো কারণ নেই বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

এ বিষয়ে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূতকে ডেকে প্রতিবাদ জানিয়েছে বলেও জানান তিনি।

মঙ্গলবার আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি একথা বলেন।

এর আগে তিনি সংরক্ষিত আসনের মনোনয়ন ফরম বিক্রির বুথ পরিদর্শন করেন।

মিয়ানমার প্রসঙ্গে এক প্রশ্নে ওবায়দুল কাদের বলেন, “আমরা একে অন্যের সাথে যুদ্ধে লিপ্ত না। তাদের ইন্টারনাল কনফ্লিক্ট এসে সীমান্তে গড়াচ্ছে, (গোলা ও গুলি) ছিটকে এসে পড়ছে আমাদের সীমান্তে। একজন নারী ও পুরুষ মারা গেছে। এ ব্যাপারে আমাদের বক্তব্য আমরা জানাব।”

মিয়ানমারে সরকারি বাহিনীর সঙ্গে বিদ্রোহীদের যুদ্ধের জেরে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে হতাহতের ঘটনায় মঙ্গলবারই ঢাকায় দেশটির রাষ্ট্রদূত অং কিউ মোয়েকে তলব করে কড়া প্রতিবাদ জানিয়েছে সরকার।

ওবায়দুল কাদের বলেন, “মিয়ানমারে ৫৪টা এথনিক কমিউনিটি আছে। বিভিন্ন জায়গা তারা অলরেডি দখন করে নিয়েছে। তাদের সেনাবাহিনীর সাথে অন্য গোষ্ঠীর কনফ্লিক্ট। আমাদের সাথে তাদের কোনো বিরোধ নেই। রোহিঙ্গা ইস্যুতে যে সমস্যা, সেটা আন্তর্জাতিকভাবে সমাধানের চেষ্টা চলছে। যুদ্ধের কোনো কারণ নেই। মিয়ানমার নয়, কারো সাথে আমরা যুদ্ধে জড়াতে চাই না।”

উপজেলা নির্বাচনে দলীয় প্রতীক থাকবে কিনা, এমন প্রশ্নে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, “প্রতীক থাকছে কি থাকছে না আমাদের ওয়ার্কিং কমিটি সিদ্ধান্ত নেবে। বর্ধিত সভায় যারা থাকবে তাদের মতামতও গ্রহণ করা হবে। কারণ এটা মৌলিক একটা সিদ্ধান্ত। এ ব্যাপারে সবার মতামত নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিবেন আমাদের নেত্রী।”

সংসদের সংরক্ষিত আসনে নির্বাচন প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, “আমরা আশা করছি নির্বাচন কমিশিনের শিডিউল ঘোষণা করবে। তারপর আমাদের প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে মনোনয়ন বোর্ড বসবে। আমাদের ৪৮টি আসনে প্রার্থিতা চূড়ান্ত করবে।”

আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, এস এম কামাল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, উপ-প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক সৈয়দ আবদুল আউয়াল শামীম, উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়েম খান এ সময় উপস্থিত ছিলেন।