ডেটিং অ্যাপে ঢুঁ মেরেছিলেন করণ, কিন্তু পাত্তা পাননি

করণ বলেন, ‘সংবেদনশীল মনের মানুষ তার পছন্দ, কিন্তু  চাওয়া সহজ, পাওয়া নয়।“

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 24 Oct 2023, 06:03 AM
Updated : 24 Oct 2023, 06:03 AM

বলিউডে সিনেমা নির্মাণে ২৫ বছর কাটিয়ে দেওয়া পরিচালক করণ জোহর কয়েক বছর আগে সঙ্গিনীর খোঁজে নাম লিখিয়েছিলেন সোশাল মিডিয়ার ডেটিং অ্যাপে। কিন্তু সেখানে কারোর মনের নাগাল পাননি।

তাতে করে এক সময় নিজেকে ‘প্রত্যাখ্যাত’ ভেবে ‘হীনমন্যতায়’ ভুগেছেন বলে ভাষ্য করণের।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ডেটিং অ্যাপের অভিজ্ঞতার কথা তুলে ধরেছেন এ চলচ্চিত্র নির্মাতা।

হাসতে হাসতে তিনি বলেন, “কত ঘটকালি করলাম, নায়ক-নায়িকাদের কত জনের মনের খবর কত জনের কাছে পৌঁছে দিলাম, অথচ আমাকে কী না যেতে হল ডেটিং অ্যাপে।“

সেখানে ঘটেছিল? করণ জানালেন, প্রথমে সাধারণ কৌতুহল থেকে একটি ‘ডেটিং অ্যাপে’ রেজিস্ট্রেশন করেছিলেন তিনি। তারপর অবশ্য ব্যাপারটা গুরুত্বের সঙ্গেই নেন।

“আমার কাউকে পছন্দ হলে যোগাযোগ করতাম, কিন্তু তাদের কাছ থেকে কোনো প্রতিক্রিয়া পাইনি। কয়েক মাস ধরে এটা চলার পরে আমি হীনম্মন্যতায় ভুগতে থাকলাম। শেষে অ্যাপ আনইনস্টল করে দিলাম।“

করণ জানান, কোভিড মহামারীর পরে উৎসাহ নিয়ে একাধিক ডেটে গিয়েছেন তিনি। দেখা করেছেন অনেকের সঙ্গে। তবে তাতে তেমন কিছু লাভ হয়নি। কারণ তাদের মধ্যে নিজের মনের মানুষকে খুঁজে পাননি।

কেমন মানুষ খুঁজছেন করণ?

তার উত্তর, “যার মনটা হবে সংবেদনশীল। কিন্তু চাওয়া সহজ, পাওয়া নয়।“

তিনি বলেন,” জীবনের কঠিন পরিস্থিতিতে যে আমার পাশে থাকবে, এমন মানুষ আমার পছন্দ। আমার মা এবং দুই সন্তানকে আগলে রাখবে।“

অবিবাহিত এই তারকা নির্মাতা সারোগেসির মাধ্যমে দুই সন্তানের বাবা হয়েছেন। দুই ছেলেমেয়ে আর মাকে নিয়ে করণের সংসার।

দুই যুগ আগের প্রথম সিনেমা ‘কুছ কুছ হোতা হ্যায়’ দিয়ে অভিষেকেই ‘খ্যাতি কুড়ান করণ।  এছাড়া ‘কাভি খুশি কাভি গম’, ‘মাই নেম ইজ খান’, ‘স্টুডেন্ট অফ দ্য ইয়ার’সহ অনেক দর্শকপ্রিয় সিনেমা উপহার দিয়েছেন।

সিনেমা তৈরি ছাড়াও ছোটপর্দার জনপ্রিয় তারকালাপ ‘কফি উইথ করণ’ এর উপস্থাপক হিসেবেও বেশ জনপ্রিয় তিনি।

২০১৬ সালে ‘অ্যায় দিল হ্যায় মুশকিল’ সিনেমায় করে বিরতিতে চলে গিয়েছিলেন এই নির্মাতা। এরপর চলতি বছর ‘রকি অউর রানি কি প্রেম কাহানি’ সিনেমা বানিয়ে ফের পরিচালনায় ফিরেছেন।