ধ্বংসস্তুপে দাঁড়িয়ে দুর্দান্ত ইনিংস রাজাপাকসার

এশিয়া কাপের ফাইনালে পাল্টা আক্রমণে বাঁহাতি ব্যাটসম্যানের বিধ্বংসী ইনিংসে বিপর্যয় কাটিয়ে লড়িয়ে স্কোর গড়ল শ্রীলঙ্কা।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 11 Sept 2022, 04:14 PM
Updated : 11 Sept 2022, 04:14 PM

নাসিম শাহর আগুনে ডেলিভারিতে প্রথম ওভারেই উপড়ে গেল কুসল মেন্ডিসের স্টাম্প। পাওয়ার প্লে শেষ হওয়ার আগেই বিদায় আরও দুই ব্যাটসম্যানের। ভানুকা রাজাপাকসা উইকেটে গেলেন তখন। খানিক পর উইকেটের পতন হলো আরও দুটি। শ্রীলঙ্কার সেই চরম বিপর্যয়ের মধ্যেই ত্রাতা হয়ে উঠলেন রাজাপাকসা। পাল্টা আক্রমণে বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান খেললেন বিধ্বংসী ইনিংস। এশিয়া কাপের ট্রফির লড়াইয়ে দলকে তিনি এনে দিলেন লড়ার মতো পুঁজি।

টুর্নামেন্টের আগের ম্যাচগুলিতেও দারুণ কিছু ক্যামিও দেখা গেছে রাজাপাকসার ব্যাটে। তবে সেরাটা জমা রেখেছিলেন যেন ফাইনালের জন্য। দলের নড়বড়ে অবস্থার মধ্যে তিনি খেললেন ৪৫ বলে ৭১ রানের অপরাজিত ইনিংস।

দুবাইয়ে রোববার এশিয়া কাপের ফাইনালে নবম ওভারে ৫৮ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ধুঁকছিল শ্রীলঙ্কা। রাজাপাকসার দারুণ ইনিংসের সৌজন্যে শেষ পর্যন্ত তারা তুলতে পারে ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৭০ রান।

নাসিম শাহ ও হারিস রউফের আগুনে বোলিংয়ে শ্রীলঙ্কা ৩৬ রানে হারায় ৩ উইকেট। দৃষ্টিনন্দন কিছু শট খেলে স্রোতের বিপরীতে লড়ছিলেন ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা। কিন্তু ২১ বলে ২৮ রান করে তিনি উইকেট উপহার দেন ইফতিখার আহমেদের অফ স্পিনে। এরপর অধিনায়ক দাসুন শানাকাও যখন বিদায় নেন, লঙ্কানরা ইনিংসের অর্ধেক হারিয়ে ফেলে ৫৮ রানে।

এরপরই শ্রীলঙ্কার অসাধারণভাবে ফিরে আসা। ষষ্ট উইকেটে দারুণ প্রতি-আক্রমণে ৩৬ বলে ৫৮ রানের জুটি গড়েন রাজাপাকসা ও ভানিন্দু হাসারাঙ্গা। এই জুটিতে বেশি অগ্রণী ছিলেন হাসারাঙ্গা। ২১ বলে ৩৬ রান করে আউট হন তিনি।

ভাগ্যও পাশে ছিল রাজাপাকসার। ফিফটির আগে-পরে দুবার জীবন পাওয়া এই ব্যাটসম্যান এরপর সপ্তম উইকেটে ৩১ বলে ৫৪ রানের জুটি গড়েন চামিকা করুনারত্নের সঙ্গে। এই জুটিতে করুনারত্নের অবদান কেবল ১৪ বলে ১৪। রাজাপাকসা করেন ১৭ বলে ৩৪।

শেষ দিকে দুর্দান্ত টাইমিং আর পেশির জোরে বড় শটে দ্রুত রান বাড়ান রাজাপাকসা। ইনিংস শেষ করেন তিনি নাসিম শাহকে টানা দুই বলে চার ও ছক্কা মেরে।

শেষ ৪ ওভারে শ্রীলঙ্কা তোলে ৫০ রান।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক