বাংলাদেশের ‘এক চীন’ নীতির অবস্থানকে সাধুবাদ চীনের

পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সফরে আলোচনায় রোহিঙ্গা সঙ্কট নিয়েও আলোচনা হয় বলে জানিয়েছে চীনের দূতাবাস।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 7 August 2022, 05:13 PM
Updated : 7 August 2022, 05:13 PM

তাইওয়ান ঘিরে উত্তেজনা চলার মধ্যে ‘এক চীন’ নীতিতে বাংলাদেশের দৃঢ় অবস্থানকে সাধুবাদ জানিয়েছেন চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই।

রোববার ঢাকায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে এই প্রতিক্রিয়া জানান তিনি।

ঢাকায় চীনের দূতাবাসের এক বিবৃতিতে বলা হয়, বৈঠকে তাইওয়ান প্রশ্নে বাংলাদেশের কাছে চীনের অবস্থান বিস্তারিতভাবে তুলে ধরেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই। বাংলাদেশের অব্যাহত এক চীন নীতিকে সাধুবাদ জানান তিনি।

দূতাবাস জানিয়েছে, দ্রুততম সময়ের মধ্যে বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের পড়াশোনার জন্য চীনে ফিরে যাওয়ার বিষয়ে আশ্বাস দিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং।

‘মিয়ানমার থেকে বাস্তুচ্যুতদের’ প্রত্যাবাসনসহ অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ বিষয় বৈঠকে আলোচিত হয়েছে বলেও বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়। তবে, বিবৃতিতে রোহিঙ্গা শব্দটি উল্লেখ করেনি দূতাবাস।

বিবৃতিতে বলা হয়, সহযোগিতার কৌশলগত অংশীদারিত্বের প্রতি নিজেদের প্রতিশ্রুতি পুনর্ব্যক্ত করেন দুই দেশের শীর্ষ কূটনীতিকরা। পরস্পরের জন্য লাভজনক সহযোগিতাকে আরও গভীর করার মাধ্যমে সম্পর্ককে নতুন উচ্চতায় নেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেন তারা।

দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য ও বিনিয়োগ, উন্নয়ন সহযোগিতা, কোভিড-১৯ মহামারী, নবায়নযোগ্য জ্বালানি, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি, সাংস্কৃতিক সহযোগিতা, মানুষে-মানুষে যোগাযোগ এবং আন্তর্জাতিক ফোরামগুলোতে সহযোগিতার বিষয়ে বৈঠকে আলোচনা হওয়ার কথা তুলে ধরা হয় বিবৃতিতে।

চীন দূতাবাস জানিয়েছে, চীনের গ্লোবাল ডেভেলপমেন্ট ইনিশিয়েটিভের (জিডিআই) বিষয়েও বৈঠকে তারা আলোচনা করেছেন। আরও নতুন কিছু ক্ষেত্রে সহযোগিতার বিষয়ও আলোচনায় এসেছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক