রেলপথে কালিনিনগ্রাদে রুশ পণ্য পরিবহনে বিধিনিষেধ তুলল লিথুয়ানিয়া

বাল্টিক সাগরের তীরে অবস্থিত কালিনিনগ্রাদ ছিটমহলে রাশিয়ার মূল ভূখণ্ড থেকে পণ্য ও যাত্রী পরিবহনের রেল লাইন লিথুয়ানিয়া দিয়ে গেছে।

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 July 2022, 08:39 AM
Updated : 23 July 2022, 08:39 AM

ইউরোপীয় ইউনিয়নের নিষেধাজ্ঞার আওতায় থাকা পণ্যসামগ্রী রাশিয়ার মূল ভূখণ্ড থেকে লিথুয়ানিয়ার ভেতর দিয়ে রেলপথে কালিনিনগ্রাদে আনা নেওয়ায় ভিনিয়ুস যে বিধিনিষেধ দিয়েছিল, তা তুলে নেওয়া হয়েছে।

বাল্টিক সাগরের তীরে অবস্থিত কালিনিনগ্রাদ ছিটমহলে রাশিয়ার মূল ভূখণ্ড থেকে পণ্য ও যাত্রী পরিবহনের রেল লাইন লিথুয়ানিয়া দিয়ে গেছে।

ইউক্রেইনে যুদ্ধের প্রতিক্রিয়ায় ইউরোপীয় ইউনিয়ন রাশিয়ার ইস্পাত ও অন্যান্য লৌহজাত ধাতুসহ বেশকিছু পণ্যের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিলে গত মাসে লিথুয়ানিয়া তাদের ভূখণ্ড ব্যবহার করে সেসব পণ্য কালিনিনগ্রাদে আনা নেওয়া নিষিদ্ধ ঘোষণা করে।

ভিনিয়ুসের এই সিদ্ধান্ত মস্কোকে ক্ষেপিয়ে তোলে বলে জানায় বিবিসি।

লিথুয়ানিয়া রেল ট্রানজিটে ‘অবরোধ’ তুলে না নিলে তাদের মারাত্মক পরিণতি ভোগ করতে হবে বলে সেসময় রাশিয়ার নিরাপত্তা পরিষদের প্রধান নিকোলাই পাত্রুশেভ হুমকিও দিয়েছিলেন।

তবে লিথুয়ানিয়ার রেলওয়ে এখন বলছে, তারা রুশ ছিটমহলটিতে সব পণ্যই আনা নেওয়া করবে।

কিছুদিন আগে ইউরোপীয় ইউনিয়নও বলেছিল, তাদের ট্রানজিট নিষেধাজ্ঞা কেবল সড়কপথেই, রেলপথে নয়। যে কারণে লিথুয়ানিয়ার অবশ্যই রাশিয়াকে ইইউ এলাকার ভেতর দিয়ে কালিনিনগ্রাদে ইস্পাত, কাঠ ও অ্যালকোহলসহ বিভিন্ন পণ্যসামগ্রী নিয়ে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া উচিত।

নিষেধাজ্ঞা উঠে যাওয়ায় শিগগিরই ৬০টি ওয়াগনভর্তি সিমেন্ট ছিটমহলটিতে যাবে বলে কালিনিনগ্রাদের এক সরকারি কর্মকর্তার বরাত দিয়ে জানিয়েছে রাশিয়ার বার্তা সংস্থা তাস।

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর রাশিয়া পোল্যান্ড ও লিথুয়ানিয়ার মধ্যে থাকা কালিনিনগ্রাদ অঞ্চলটির নিয়ন্ত্রণ নেয়, সেখানে এখন মোটামুটি দশ লাখ মানুষের বাস।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক